সি. অব্রে স্মিথ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
স্যার সি. অব্রে স্মিথ
সিবিই
C. Aubrey Smith in Little Lord Fauntleroy (1936).jpg
লিটল লর্ড ফন্টেলরয় (১৯৩৬) চলচ্চিত্রে ডরিনকোর্ট আর্ল চরিত্রে সি. অব্রে স্মিথ
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামচার্লস অব্রে স্মিথ
জন্ম(১৮৬৩-০৭-২১)২১ জুলাই ১৮৬৩
লন্ডন, ইংল্যান্ড, যুক্তরাজ্য
মৃত্যু২০ ডিসেম্বর ১৯৪৮(1948-12-20) (বয়স ৮৫)
বেভার্লি হিলস, ক্যালিফোর্নিয়া, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি ফাস্ট
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
একমাত্র টেস্ট
(ক্যাপ ৬৬)
১২ মার্চ ১৮৮৯ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
১৮৮২–১৮৯৬সাসেক্স
১৮৮৯–১৮৯০ট্রান্সভাল
১৮৮৬মেরিলেবোন ক্রিকেট ক্লাব (এমসিসি)
১৮৮২–১৮৮৫কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ১৪৩
রানের সংখ্যা ২,৯৮৬
ব্যাটিং গড় ৩.০০ ১৩.৬৩
১০০/৫০ ০/০ ০/১০
সর্বোচ্চ রান ৮৫
বল করেছে ১৫৪ ১৭,৯৫৩
উইকেট ৩৪৬
বোলিং গড় ৮.৭১ ২২.৩৪
ইনিংসে ৫ উইকেট ১৯
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৫/১৯ ৭/১৬
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ০/– ৯৭/–
উৎস: ক্রিকেটআর্কাইভ, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭

স্যার চার্লস অব্রে স্মিথ, সিবিই (ইংরেজি: C. Aubrey Smith; জন্ম: ২১ জুলাই, ১৮৬৩ - মৃত্যু: ২০ ডিসেম্বর, ১৯৪৮) লন্ডনে জন্মগ্রহণকারী বিখ্যাত ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট তারকা ছিলেন। ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ঘরোয়া প্রথমশ্রেণীর ক্রিকেটে সাসেক্স, কেমব্রিজ, এমসিসি ও ট্রান্সভালের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি ফাস্ট-বোলার ছিলেন। এছাড়াও নিচেরসারিতে কার্যকরী ডানহাতি ব্যাটসম্যানের দায়িত্ব পালন করতেন তিনি।

চলচ্চিত্র জগতে প্রবেশের পর সি. অব্রে স্মিথ নামে পরিচিতি পান। ক্রিকেটের পাশাপাশি মঞ্চ ও চলচ্চিত্র অভিনয় কর্মের সাথে নিজেকে জড়িয়ে রাখেন। হলিউডে অবস্থানকালে ব্রিটিশ অভিনেতাদেরকে নিয়ে দল গঠন করেন। আনুষ্ঠানিক খেলাগুলোয় তাঁদের ক্রীড়াশৈলী স্থানীয় দর্শকদের মনোরঞ্জনের খোরাক জোগাতো।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

ইংল্যান্ডের লন্ডনে জন্মগ্রহণকারী স্মিথ বিশিষ্ট চিকিৎসক চার্লস জন স্মিথ ও সারাহ অ্যান দম্পতির সন্তানরূপে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর বোন বেরিল ফাবেরকে কসমো হ্যামিল্টনের সাথে পরিণয়সূত্রে আবদ্ধ করানো হয়েছিল।[১]

চার্টারহাউজ স্কুলে অধ্যয়ন করেন স্মিথ। এরপর ক্যামব্রিজের সেন্ট জোন্স কলেজে পড়াশোনা করেন।[২][৩] ১৮৮৮-৮৯ অর্থবছরে দক্ষিণ আফ্রিকায় স্বর্ণের আকর্ষণে বসতি স্থাপন করেন। এ সময়ে সর্দি জ্বরে আক্রান্ত হন। ভুলক্রমে তাঁকে চিকিৎসকেরা মৃত ঘোষণা করেছিলেন। ১৮৯৬সালে ইসাবেলা নাম্নী এক রমণীর পাণিগ্রহণ করেন তিনি।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

ক্রিকেটার হিসেবে স্মিথ মূলতঃ ডানহাতে ফাস্ট-বোলিং করতেন ও নিচেরসারিতে ডানহাতে কার্যকরী ব্যাটসম্যানের দায়িত্বে থাকতেন। এছাড়াও সুদক্ষ ফিল্ডার হিসেবেও সুনাম ছিল তাঁর। বিশ্বের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় বোলাররূপে তাঁর সবিশেষ পরিচিতি ছিল। বোলিং করার সময় অদ্ভুতভাবে বাঁকানো দৌড়ের জন্য ডিপ মিড-অফ এলাকা থেকে শুরু করতেন। ফলশ্রুতিতে 'রাউন্ড দ্য কর্নার স্মিথ' ডাকনামে পরিচিতি লাভ করেন অব্রে স্মিথ।[৪]

১৮৮২ থেকে ১৮৯২ সময়কালীন ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে খেলতেন। এছাড়াও ১৮৮২ থেকে ১৮৯২ সময়কালে সাসেক্সের পক্ষে বিভিন্ন সময়ে ক্রিকেট খেলতেন।[৫] দক্ষিণ আফ্রিকায় অবস্থানকালে জোহেন্সবার্গ ইংরেজ একাদশের অধিনায়কের দায়িত্বে ছিলেন তিনি।

ইংল্যান্ডের পক্ষে একটিমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ করলেও অধিনায়কের দায়িত্বে ছিলেন। ঐ টেস্টটিতে ইংল্যান্ড জয়লাভ করেছিল। ১৮৮৮-৮৯ মৌসুমে পোর্ট এলিজাবেথে অনুষ্ঠিত টেস্টের প্রথম ইনিংসে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে উনিশ রান দিয়ে পাঁচ উইকেট দখল করেছিলেন।[৬] ইংরেজ দলে ঐ সময়ের সেরা খেলোয়াড়দের অন্তর্ভুক্তি ছিল না ও কেউ জানতো না যে খেলাটি আনুষ্ঠানিকভাবে টেস্টখেলা হিসেবে গণ্য হবে।

চলচ্চিত্রে অংশগ্রহণ[সম্পাদনা]

শীর্ষস্থানীয় অভিনেত্রী গ্রেটা গার্বো, এলিজাবেথ টেলরভিভিয়েন লেই এবং অভিনেতা ক্লার্ক গ্যাবল, লরেন্স অলিভিয়ের, রোনাল্ড কোলম্যান, মরিস চেভালিয়ের ও গ্যারি কুপারের সাথে কাজ করেছেন।

টারজান ধারাবাহিক চলচ্চিত্রের প্রথমটি ১৯৩২ সালের টারজান দি অ্যাপ ম্যানে জনি ওয়াইজমুলারের সাথে অভিনয় করেন। তিনি মরিন ওসালিভানের পিতার চরিত্রে ছিলেন।

স্মিথ খেলতে ভালোবাসতেন। তাঁর ভাষায় হলিউড ইংরেজদের আবাসস্থল। ঘন ভ্রু, গোলাকৃতি আঁখি, হাতল আকৃতির গোঁফ ও ৬ ফুট ৪ ইঞ্চির দীর্ঘদেহ হলিউডের সর্বাপেক্ষা পরিচিত মুখের মর্যাদা এনে দেয়।

হলিউড ক্রিকেট ক্লাব[সম্পাদনা]

১৯৩২ সালে হলিউড ক্রিকেট ক্লাব প্রতিষ্ঠা করেন তিনি। ইংল্যান্ড থেকে ঘাস এনে পিচ তৈরি করেন। স্বদেশী ডেভিড নিভেন, লরেন্স অলিভার, নাইজেল ব্রুস, লেসলি হাওয়ার্ড[৭] ও বরিস কারলফসহ স্থানীয় মার্কিন খেলোয়াড়দেরকে ক্লাবের সদস্য করেন। তন্মধ্যে নাইজেল ব্রুসকে অধিনায়কের দায়িত্বে রাখা হয়েছিল।

স্মিথ স্বদেশীদেরকে নিয়মিত হলিউড ক্রিকেট ক্লাবে হাজিরা দিতে উদ্বুদ্ধ করতেন। ব্যতিক্রম ঘটলে তাঁর অসন্তুষ্টির কবলে পড়তে হতো। উগ্র জাতীয়তাবাদী স্মিথ ১৯৩৯ সালে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ চলাকালে যুদ্ধে অনাগ্রহী উপযুক্ত অভিনেতাদের বিপক্ষে সমালোচনায় মুখরিত থাকতেন।

সম্মাননা[সম্পাদনা]

হলিউড ওয়াক অব ফেমের অন্যকম তারকা ছিলেন তিনি।[৮] ফ্রন্টিয়ার্সম্যান লেজিওনে স্মিথ কর্মকর্তার দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৩৮ সালে ব্রিটিশ এম্পায়ার কমান্ডার অর্ডার সিবিই পদবী লাভ করেন। [৯] অ্যাংলো-আমেরিকান মৈত্রীতে অবদানের[১০][১১][১২] স্বীকৃতিস্বরূপ ১৯৪৪ সালে রাজা ষষ্ঠ এডওয়ার্ড কর্তৃক নাইট পদবীপ্রাপ্ত হন।[১৩]

দেহাবসান[সম্পাদনা]

৮৫ বছর বয়সে ফুসফুস প্রদাহজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে ১৯৪৮ সালে তাঁর দেহাবসান ঘটে। সমাহিত করার নয় মাস পর তাঁর ইচ্ছে অনুযায়ী নিজদেশ যুক্তরাজ্যে তাঁর ভস্ম নিয়ে যাওয়া হয়। সাসেক্সের হোভের সেন্ট লিওনার্ডস সমাধিক্ষেত্রে মায়ের সাথে রাখা হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Who Was Who in the Theatre: 1912-1976 vol. 4, Q-Z, p. 2208; compiled from editions originally published annually by John Parker, this 1976 version by Gale Research.
  2. Anglo-African Who's Who.
  3. "Smith, Charles Aubrey (SMT881CA)"A Cambridge Alumni Databaseকেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয় 
  4. Frindall, Bill (২০০৯)। Ask BeardersBBC Books। পৃষ্ঠা 46। আইএসবিএন 978-1-84607-880-4 
  5. Anglo-African Who's Who, p. 337.
  6. South Africa v England at Port Elizabeth, 1889
  7. Eforgan, E. (2010) Leslie Howard: The Lost Actor. London: Vallentine Mitchell; p. 94, আইএসবিএন ৯৭৮-০-৮৫৩০৩-৯৭১-৬.
  8. C. Aubrey Smith - Awards
  9. Commanders of the Order of the British Empire - Supplement to The London Gazette, 9 June 1938, p. 3701.
  10. C. Aubrey Smith - Biography
  11. The Home of CricketArchive
  12. Obituary Variety, 22 December 1948, p. 55.
  13. Recipients of the Honour of Knighthood - Supplement to The London Gazette, 2 June 1944, p. 2566.

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

আরও পড়ুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

ক্রীড়া অবস্থান
পূর্বসূরী
ডব্লিউ. জি. গ্রেস
ইংল্যান্ড ক্রিকেট অধিনায়ক
১৮৮৮–১৮৮৯
উত্তরসূরী
ডব্লিউ. জি. গ্রেস
পূর্বসূরী
ফ্রেডরিক লুকাস
সাসেক্স ক্রিকেট অধিনায়ক
১৮৮৬–১৮৮৮
উত্তরসূরী
বিলি নিউহাম
পূর্বসূরী
বিলি নিউহাম
সাসেক্স ক্রিকেট অধিনায়ক
১৮৯০
উত্তরসূরী
বিলি নিউহাম