সংযুক্ত প্রগতিশীল জোট

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সংযুক্ত প্রগতিশীল জোট
সভাপতিসোনিয়া গান্ধী
লোকসভার নেতারাবনীত সিং বিট্টু
রাজ্যসভার নেতামল্লিকার্জুন খাগড়ে
প্রতিষ্ঠা২০০৪
রাজনৈতিক অবস্থানবাম
লোকসভা আসন
৮৯ / ৫৪৫
রাজ্যসভা আসন
৫৬ / ২৪৫
ভারতের রাজনীতি
সংযুক্ত প্রগতিশীল জোটের চেয়ারপার্সন সোনিয়া গান্ধী

সংযুক্ত প্রগতিশীল জোট হল হচ্ছে ভারতের প্রধানত মধ্য-বাম রাজনৈতিক দলগুলির একটি জোট ।এই জোটের সর্বাপেক্ষা বৃহত্তর শরিক দল হিসেবে ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস এই জোটের নেতৃত্ব প্রদান করছে।জোটটি ২০০৪ সালের সাধারণ নির্বাচনের পরে গঠিত হয়েছিল।ইউপিএর বৃহত্তম সদস্য দল হ'ল ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস,যার সভাপতি সোনিয়া গান্ধী ইউপিএর চেয়ারপারসন। কোনও একক দল নিজেরাই সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করতে না পারার পরে ২০০৪ সালে কিছু অন্যান্য বাম-সংযুক্ত দলগুলির সমর্থন নিয়ে একটি সরকার গঠন করেছিল।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

২০০৪ সালের সাধারণ নির্বাচনের পরে স্পষ্ট হয়ে গিয়েছিল যে কোনও দলই নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করতে পারেনি সে সময় ইউপিএ গঠিত হয়েছিল।সে মুহূর্তে ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টির নেতৃত্বাধীন ন্যাশনাল ডেমোক্র্যাটিক অ্যালায়েন্স (এনডিএ) ৪৪৩ সদস্যের লোকসভায় ১৮১ টি আসন জিতেছিল।ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস এর নেতৃতে ইউপিএ গঠনের পর জোটের আসন হয় ২১৮টি এবং এর ফলে ইউপিএ জোট ক্ষমতা লাভ করে।

১ দশক ক্ষ্মতায় থাকার পর ইউপিএ জোট ২০১৪ সালের নির্বাচনে বিজেপি নেতৃতাধীন এনডিএ জোটের কাছে পরাজিত হয়।[১]

ইউপিএ জোট ২০১৯ সালের সাধারণ নির্বাচনে পুনরায় বিজেপি নেতৃতাধীন এনডিএ জোটের কাছে পরাজিত হয়। বিজেপি একাই জিতেছে ৩০২ আসনে জয়লাভ ।কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন ইউপিএ জোট জয়লাভসহ এগিয়েছিল ৯২ আসনে। কংগ্রেস এককভাবে জয়লাভ করে ৫০টি আসনে।[২]

বর্তমান সদস্যদল এবং লোকসভায় আসনসংখ্যাঃ[সম্পাদনা]

দল লোকসভার সদস্য রাজ্যসভার সদস্য দলীয় অবস্থা
ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস ৫১ ৩৬ জাতীয় দল
ডিএমকে ২৪ তামিলনাড়ু
জাতীয়তাবাদী কংগ্রেস পার্টি জাতীয় দল
রাষ্ট্রীয় জনতা দল - বিহার
ভারতীয় ইউনিয়ন মুসলিম লিগ কেরালা,তামিলনাড়ু
জম্মু ও কাশ্মীর ন্যাশনাল কনফারেন্স - জম্মু ও কাশ্মীর
ঝাড়খন্ড মুক্তি মোর্চা ঝাড়খন্ড
এমডিএমকে - তামিলনাড়ু
বিপ্লবী সমাজতন্ত্রী দল - কেরালা
10 ভিদুথালাই চিরুথাইগাল কাটচি - তামিলনাড়ু
১১ নিখিল ভারতীয় সংযুক্ত গণতান্ত্রিক মোর্চা - আসাম
১২ স্বতন্ত্র রাজনীতিবিদ - -
মোট ৮৯ ৫৬ ভারত

বিভিন্ন রাজ্যে ইউপিএ জোটের সরকারঃ[সম্পাদনা]

  বিজেপি জোট (৬)
  ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস জোট (২)
  রাষ্ট্রপতি শাসন (২)
  বিধানসভা হীন (৫)

ফেব্রুয়ারী ২০২১ পর্যন্ত ইউপিএ জোটের ৫ রাজ্যে মূখ্যমন্ত্রী আছে

বর্তমান রাজ্য সরকারের তালিকা[সম্পাদনা]

নং রাজ্য/কেন্দ্র শাসিত UPA Govt Since মূখ্যমন্ত্রী দল/জোট সঙ্গী বিধানসভায় আসন শেষ নির্বাচন
Name ্দল Seats Since অন্যান্য স্বতন্ত্র
Punjab ১৬ মার্চ ২০১৭ অমরিন্দ সিং ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস ৮০ ১৬ মার্চ ২০১৭ নেই ৮০/১১৭ ৪ ফেব্রুয়ারী ২০১৭
ছত্তিসগড় ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮ ভূপেশ ভাগেল ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস ৭০ ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮ নেই ৭০/৯০ ১১ ডিসেম্বর ২০১৮
রাজস্থান ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮ অশোক গেহলট ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস ১০৪ ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮ রাষ্ট্রীয় লোক দল (1) নেই ১২ ১১৭/২০০ ১১ ডিসেম্বর ২০১৮
মহারাষ্ট্র ২৮ নভেম্বর ২০১৯ উদদ্ভব ঠাকরে শিব সেনা ৫৭ ২৮ নভেম্বর ২০১৯ NCP (৫৩) ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস (৪৪) বহুজন বিকাশ আগাধী (৩) সমাজবাদী পার্টি (২), PJP (২), স্বভিমানী প্রকাশ (১), PWPI (১) ১৬৯/২৮৮ ২১ অক্টোবর ২০১৯
ঝাড়খন্ড ২৮ ডিসেম্বর ২০১৯ হেমন্ত সরেন ঝাড়খন্ড মুক্তি মোর্চা ২৯ ২৮ ডিসেম্বর ২০১৯ ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস (১৮) রাষ্ট্রীয় জনতা দল (১) NCP (১) CPI(ML)L (১) ৫০/৮১ ২৩ ডিসেম্বর ২০১৯

ইউপিএ জোট ৫টি রাজ্যে ক্ষমতায় আছে-

- পাঞ্জাব (ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস থেকে মূখ্যমন্ত্রী)

- ছত্তিসগড় (ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস থেকে মূখ্যমন্ত্রী)

- রাজস্থান (ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস থেকে মূখ্যমন্ত্রী)

- মহারাষ্ট্র (শিব সেনা থেকে মূখ্যমন্ত্রী)

- ঝাড়খন্ড (ঝাড়খন্ড মুক্তি মোর্চাথেকে মূখ্যমন্ত্রী)

তথ্য সূত্রঃ[সম্পাদনা]

  1. "নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতায় সরকার গঠনের পথে বিজেপি"BBC News বাংলা। ২০১৪-০৫-১৬। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৪-১০ 
  2. "মোদিতেই মাতোয়ারা ভারত, পরাজয় মেনে কংগ্রেসের অভিনন্দন | কালের কণ্ঠ"Kalerkantho। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৪-১০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]