লিঙ্গ দৃঢ়বদ্ধতা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
একটি জার্মান ছবি যেখানে ছেলে মেয়েরা একধরণের খেলা একসাথে খেলছে, ১৮৮৩ সালে

লিঙ্গ দৃৃৃঢ়বদ্ধতার (en: Gender stereotypes) 'দৃঢ়তা' বা ‘নির্দিষ্ট' ধারণাটি ব্যক্তিকে কোনাে এক দল বা উপদলে শ্রেণীভুক্ত করাকে বোঝায়। এটি এক সাধারণ সামাজিক সমস্যা।[১][২] কোনাে নির্দিষ্ট বিশ্বাসের অন্তর্গত ব্যক্তিদের বিশেষত ঋণাত্মক শ্রেণীর অন্তর্ভুক্ত ব্যক্তিকে বোঝাতে এই ‘দৃঢ়বদ্ধতা' শব্দের ব্যবহার করা হয়। ব্যক্তির ‘প্রকৃতি' সম্পর্কে স্পষ্ট ধারণা আহরণ করতে বা সেই ব্যক্তির পরিচয়ের জন্য, সমাজ ব্যক্তিকে কিছু বিশেষ শ্রেণীকরণের অন্তর্ভূক্ত করে। এই বিশেষ শ্রেণীর অন্তর্গত ব্যক্তি বা সদস্যরা কিছু বিশেষ সংলক্ষণ বিশিষ্ট। সেই অনুপাতে লিঙ্গ দৃঢ়বদ্ধতা নারী এবং পুরুষকে মহিলাসুলভ এবং পুরুষসুলভ ব্যক্তির শ্রেণীতে শ্রেণীভক্ত করতে ব্যবহার করা প্রক্রিয়াকে বোঝায়। লিঙ্গ দৃঢ়তা হচ্ছে মহিলা এবং পুরুষ দ্বারা পালন করা ভূমিকা আচরণ এবং সংলক্ষণসমূহের সর্বজনীন ধারণা। সমাজে মহিলা এবং পুরুষের সদস্যপদের জন্য তাঁদের বিশেষ কিছু ভূমিকা, দায়িত্ব অর্পণ করার এক প্রথাই হচ্ছে লিঙ্গ দৃঢ়তা। অন্যকথায় লিঙ্গ দৃঢ়তা হচ্ছে এক বিশ্বাস এবং এই বিশ্বাস বিষয়দল বা পুরুষ-মহিলার বিষয়ে ধারণা করে নেওয়াতে সহায়তা করে।

আন্তঃরাষ্ট্রীয় মানবাধিকার আইন লিঙ্গ দৃঢ়বদ্ধতাকে বেআইনি ঘোষণা করেছে। যা মানব অধিকার এবং মৌলিক অধিকারের স্বাধীনতা উপভোগ করাতে ব্যক্তিকে বাধা প্রদান করে। দেশসমূহের সব ক্ষেত্রে পুরুষ মহিলা ইত্যাদির অংশগ্রহণ নিশ্চিত করাটি দায়িত্ব। সেইজন্য ব্যক্তির সামাজিক তথা ব্যক্তিগত জীবনে যাতে লিঙ্গ দৃঢ়বদ্ধতা সমস্যার সৃষ্টি না করে তার প্রতি দেশের আইনি ব্যবস্থা সতর্ক দৃষ্টি রাখতে হয়।

লিঙ্গ দৃঢ়বদ্ধতা হচ্ছে লিঙ্গ ভেদে থাকা এক সাধারণ সামাজিক দৃষ্টিকোণ বা পূর্বনির্ধারিত কিছু ধারণা, যেখানে লিঙ্গ ভেদে থাকা বিশেষত, বৈশিষ্ট্য বা পার্থক্যসমূহকে সূক্ষ্ম দৃষ্টিকোণের দ্বারা সাধারণীকরণ করতে চেষ্টা করা হয়। এটি এক ক্ষতিকারক ব্যবস্থা যেখানে এর দ্বারা পুরুষ এবং মহিলার ক্ষমতাকে একটি পরিসরে আবদ্ধ করার চেষ্টা করা হয়। এর দ্বারা ব্যক্তির ব্যক্তিগত পার্থক্য বা সক্ষমতা, সামাজিক স্থিতি, তথা অর্থনৈতিক ক্ষেত্রে অংশগ্রহণে বাধা প্রদান করা হয়।

লিঙ্গ দৃৃৃঢ়বদ্ধতার ক্ষেত্রে থাকা আইনি ব্যবস্থা[সম্পাদনা]

  • CEDAWর অনুচ্ছেদ ৫(ক): CEDAWর অনুচ্ছেদ ৫(ক) অনুসারে একটি যৌনতার উপর অন্য যৌনতার অধীনতা বা হীনতা (মহিলার উপর পুরুষের অধীনতা) এবং সমাজে প্রচলিত পুরুষ-মহিলার দৃঢ়বদ্ধ ভূমিকা নিষ্কাষণের জন্য রাজ্যই পুরুষ-মহিলার সামাজিক এবং সাংস্কৃতিকে আচরণের আর্হি সংশােধনর ব্যবস্থা গ্রহণ করা উচিত।
  • CEDAYর অনুচ্ছেদ নং ২: CEDAWর ২ নং অনুচ্ছেদেও, অনুচ্ছেদ নং ৫(ক)র স্বপক্ষে মতামত ব্যাখ্যা দেয়। এই অনুচ্ছেদ অনুসারে মহিলার বিরুদ্ধে প্রভেদ সৃষ্টিকারী আইন, নিয়ম, প্রথাসমূহ সংশােধন বা নিষ্কাষণের জন্য রাজ্যর দলসমূহের উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করা উচিত।
  • অনুচ্ছেদ নং ১০ : অনুচ্ছেদ নং ১০ অনুসারে সহশিক্ষা ব্যবস্থা এবং অন্যান্য শৈক্ষিক ব্যবস্থার গ্রহণের মাধ্যমে রাজ্য পুরুষ-মহিলার ক্ষেত্রে থাকা লিঙ্গ দৃঢ়বদ্ধতা রােধ করে পুরুষ-মহিলার সমতা সুনিশ্চিত করা উচিত।

CEDAW মূলতঃ মহিলার সমতা স্থাপনের উদ্দেশ্যে পুরুষ এবং মহিলার ক্ষেত্রে থাকা লিঙ্গ দৃঢ়তামূলক বিশ্বাসসমূহ প্রতিরােধের ক্ষেত্রে রাজ্য বা সরকারের ভূমিকাকে গুরুত্ব প্রদান করেছিল।

সমস্যা[সম্পাদনা]

সাধারণত ঘর, সমাজ, বিদ্যালয়, বিদ্যালয়ের পাঠ্যক্রম, পাঠ্যপুথি, কর্মক্ষেত্র ইত্যাদি বিভিন্ন ক্ষেত্রে লিঙ্গ পক্ষপাত হতে দেখা যায়। পুরুষ প্রধান সমাজ ব্যবস্থায় এই সমস্যা বেশি দেখা দেয়। সমাজ বিভিন্ন ক্ষেত্রে ব্যক্তির সক্ষমতা এবং ভূমিকাসমূহের প্রতি লিঙ্গ নির্দিষ্ট এবং বৈষম্যমূলক মনোভাব প্রকাশ করে। প্রকৃতিগত ভাবে সমাজ জন্মের থেকে ছেলে শিশুদের পুরুষত্বমূলক ভূমিকা এবং মেয়ে শিশুকে নারীসুলভ ভূমিকা আহরণের প্রশিক্ষণ প্রদান করে। [৩] পুরুষপ্রধান সমাজ ব্যবস্থায় নারীদের পুরুষর তুলনায় কম স্বাধীনতা প্রদান করা হয়।[৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Brewer, Holly (২০১২)। "List of gender stereotypes" 
  2. "Gender and gender identity at a glance"plannedparenthood.org। Planned Parenthood Federation of America Inc.। ২০১২। 
  3. Jacobs, Janis E. (ডিসেম্বর ১৯৯১)। "Influence of gender stereotypes on parent and child mathematics attitudes"। Journal of Educational Psychology83 (4): 518–527। ডিওআই:10.1037/0022-0663.83.4.518 
  4. Woolf, Virginia (১৯২৯)। A room of one's own। New York: Hogarth Press। পৃষ্ঠা 76। ওসিএলসি 31499943