রিচার্ড জোন্স

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
রিচার্ড জোন্স
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম
রিচার্ড অ্যান্ড্রু জোন্স
জন্ম (1973-10-22) ২২ অক্টোবর ১৯৭৩ (বয়স ৫০)
অকল্যান্ড, নিউজিল্যান্ড
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
ভূমিকাব্যাটসম্যান
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় দল
একমাত্র টেস্ট
(ক্যাপ ২২৩)
২৬ ডিসেম্বর ২০০৩ বনাম পাকিস্তান
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ১৩১)
২৯ নভেম্বর ২০০৩ বনাম পাকিস্তান
শেষ ওডিআই৭ ডিসেম্বর ২০০৩ বনাম পাকিস্তান
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই এফসি এলএ
ম্যাচ সংখ্যা ১২৪ ১৩২
রানের সংখ্যা ২৩ ১৬৮ ৭,২৫৪ ৩,২১২
ব্যাটিং গড় ১১.৫০ ৩৩.৬০ ৩৫.৭৩ ২৫.৯০
১০০/৫০ ০/০ ০/১ ১৯/৩৩ ১/১৬
সর্বোচ্চ রান ১৬ ৬৩ ২০১ ১০৮
বল করেছে
উইকেট
বোলিং গড় ০.০০
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট -
সেরা বোলিং ১/০
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ০/- ০/- ১০৬/০ ৩৬/০
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০

রিচার্ড অ্যান্ড্রু জোন্স (ইংরেজি: Richard Jones; জন্ম: ২২ অক্টোবর, ১৯৭৩) অকল্যান্ড এলাকায় জন্মগ্রহণকারী সাবেক নিউজিল্যান্ডীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ২০০৩ সালে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে নিউজিল্যান্ডের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।[১][২]

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর নিউজিল্যান্ডীয় ক্রিকেটে অকল্যান্ড ও ওয়েলিংটন দলের প্রতিনিধিত্ব করেন রিচার্ড জোন্স। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলতেন।

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

খেলোয়াড়ী জীবনের শুরুটা তার বেশ ভালো হয়েছিল। ১৯৯৩-৯৪ মৌসুমে অনূর্ধ্ব-১৯ দলের অধিনায়কের মর্যাদা লাভ করেছিলেন তিনি। ১৯৯৩-৯৪ মৌসুম থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত রিচার্ড জোন্সের প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। অকল্যান্ড দলের পক্ষে ঘরোয়া ক্রিকেটে অংশ নেন। নিজের বিয়ের পূর্বদিন ওয়েলিংটনের বিপক্ষে অংশ নিয়ে সেঞ্চুরি করেছিলেন। এছাড়াও, অকল্যান্ড এইসেসের অধিনায়কত্ব করেন। হক কাপে নর্থ হারবারের পক্ষে খেলেছেন তিনি।

২০০৩ সালে শ্রীলঙ্কা সফরের জন্যে মনোনীত হন। তবে, ঐ সফরের কোন প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট খেলায় অংশগ্রহণের সুযোগ পাননি তিনি। নিউজিল্যান্ডীয় ঘরোয়া ক্রিকেটে তিন মৌসুম একচ্ছত্র প্রভাব বিস্তার করেন। এরপর জাতীয় দলে খেলার সুযোগ পান। এক পর্যায়ে অকল্যান্ড ত্যাগ করে ওয়েলিংটনে চলে যান। নিয়মিতভাবে নিউজিল্যান্ডের শীর্ষস্থানীয় শীর্ষসারির ব্যাটসম্যানের মর্যাদা প্রাপ্ত হন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে একটিমাত্র টেস্ট ও পাঁচটিমাত্র একদিনের আন্তর্জাতিকে অংশগ্রহণ করেছেন রিচার্ড জোন্স। ২৬ ডিসেম্বর, ২০০৩ তারিখে ওয়েলিংটনে সফরকারী পাকিস্তান দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। এটিই তার একমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ ছিল। এরপর আর তাকে কোন টেস্টে অংশগ্রহণ করতে দেখা যায়নি।

একই বছরের ২৯ নভেম্বর তারিখে লাহোরে একই দলের বিপক্ষে ওডিআইয়ে অভিষেক ঘটে। ৭ ডিসেম্বর, ২০০৩ তারিখে রাওয়ালপিন্ডিতে একই দলের বিপক্ষে সর্বশেষ ওডিআইয়ে অংশ নেন। এক টেস্ট ও পাঁচটি একদিনের আন্তর্জাতিকে অংশ নেয়ার পর ২০০৪ মৌসুম শেষে অকল্যান্ডে পাড়ি জমান।

ব্যক্তিগত জীবনে বিবাহিত তিনি। কেলি হার্বার্ট নাম্নী এক রমণীর পাণিগ্রহণ করেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Players / New Zealand / ODI caps"Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২১ জানুয়ারি ২০২০ 
  2. "New Zealand ODI Batting Averages"Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২১ জানুয়ারি ২০২০ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]