রামকানাই দাশ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
রামকানাই দাশ
Pandit Ramkanai Das and Subarna Das.jpg
পণ্ডিত রামকানাই দাশ এবং তাঁর স্ত্রী সুবর্ণা দাশ, নিউ ইয়র্ক ২০০৮
প্রাথমিক তথ্য
জন্ম১৯৩৫
শাল্লা, সুনামগঞ্জ, সিলেট, বেঙ্গল প্রেসিডেন্সি, ব্রিটিশ ভারত
মৃত্যু৫ সেপ্টেম্বর,২০১৪
ঢাকা, বাংলাদেশ
ধরনলোকগান, উচ্চাঙ্গসংগীত
পেশাসঙ্গীত শিল্পী
কার্যকাল১৯৪৭-২০১৪

পণ্ডিত রামকানাই দাশ বাংলাদেশের একজন প্রখ্যাত লোকসংগীতশিল্পী ও সংগ্রাহক।[১] তিনি ১৯৩৫ সালে সিলেটের সুনামগঞ্জ জেলার শাল্লা উপজেলায় জন্মগ্রহণ করেন।[২][৩] কাজের স্বীকৃতি হিসেবে ২০১৪ সালে তিনি একুশে পদক লাভ করেন। [৪] ১৯৬৭ সাল থেকে সিলেট বেতারে নিয়মিত সংগীত শিল্পী হিসেবে গান পরিবেশন করে থাকতেন।

অ্যালবাম সমূহ[সম্পাদনা]

  • বন্ধুর বাঁশি বাজে (২০০৪)[৫]
  • সুরধ্বনির কিনারায় (২০০৫)
  • রাগাঞ্জলি (২০০৬)
  • অসময়ে ধরলাম পাড়ি (২০০৬)
  • পাগলা মাঝি (২০১০)

পুরস্কার[সম্পাদনা]

  • ১৯৯৭ - সালে ওস্তাদ মোজাম্মেল হোসেন পদক
  • ২০০৭ - সালে ওস্তাদ মোশাররফ হোসেন পদক[৬]
  • ২০১১ - সালে ‘সিটিসেল-চ্যানেল আই মিউজিক অ্যাওয়ার্ডস[৭]
  • ২০১২ - বাংলা একাডেমী ফেলোশিপ লাভ[৮]
  • ২০০০ - সালে দেশের শ্রেষ্ঠ সঙ্গীত গুণী হিসেবে বাংলাদেশ জাতীয় রবীন্দ্রসঙ্গীত সম্মিলন পরিষদ থেকে রবীন্দ্র পদক।
  • ২০১৪ - একুশে পদক

তথ্যচিত্র[সম্পাদনা]

২০১১ সালে নির্মাতা ‘নিরঞ্জন দে’ ওস্তাদ রামকানাই দাশের জীবন ও কর্ম নিয়ে 'সুরের পথিক'[৯] নামে একটি তথ্যচিত্র নির্মাণ করেন এবং এটি লেজার ভিশন থেকে প্রকাশিত হয়।[১০] তথ্যচিত্রটিতে কবি, ঘাটু, উড়ি, গাজী, ত্রিনাথ, বাউল, টপ্পাসহ লোক আঙ্গিকের বিভিন্ন ধারার গান ও তার শিল্পী জীবনের নানা ঘটনা তুলে ধরা হয়। এতে সঙ্গীতজ্ঞ প্রয়াত ওয়াহিদুল হক, ড. সন্জীদা খাতুন, ড. করম্নণাময় গোস্বামী, সঙ্গীতশিল্পী সুবীর নন্দী, চন্দনা মজুমদারসহ অনেকের বক্তব্য এবং উচ্চাঙ্গ সঙ্গীতের কিছু কিছু অংশ স্থান পায়। [১১][১২]

মৃত্যু[সম্পাদনা]

২০১৪ সালের ২৬শে আগস্ট সিলেটের বাড়িতে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই তার মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণের বিষয়টি ধরা পড়ে। পরদিন তাকে ঢাকায় নিয়ে আসা হয়। মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ বেড়ে গেলে ৩০ আগস্ট মেট্রোপলিটন হাসপাতালে জরুরি ভিত্তিতে তার মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচার করা হয়। মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচারের পর নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হলে তার অবস্থার অবনতি হয়। ৫ সেপ্টেম্বর শুক্রবার রাত সোয়া ১১টায় নিউরো সার্জারি বিভাগের আইসিইউতে মারা যান তিনি।[১৩][১৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Mahmud, Jamil (12 জানু, 2012)। "Ram Kanai Das' rendition of folk songs"The Daily Star  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)
  2. ":: যায় যায় দিন ::"। Jjdin.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০২-২৩ 
  3. Mahmud, Jamil (18 জানু, 2011)। "Ramkanai Das A Lifelong Devotion To Songs From Sylhet"The Daily Star  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)
  4. প্রতিবেদক, নিজস্ব। "এবার একুশে পদক পাচ্ছেন ১৫ জন"Prothomalo 
  5. "えっ?効果なし?重炭酸湯の口コミ全チェック中!薬用ホットタブの販売店はドラッグストア・楽天・Amazon?"www.dailyprimenews.com 
  6. [১][স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  7. "সুরধ্বনির কিনারায়" 
  8. "কালের কণ্ঠ"কালের কণ্ঠ 
  9. "শাহ আবদুল করিম ও রাম কানাই দাশ নিয়ে নির্মিত তথ্যচিত্রের প্রিমিয়ার শো শুক্রবার" 
  10. "দৈনিক জনকন্ঠ || প্রচ্ছদ"দৈনিক জনকন্ঠ 
  11. Pratidin, Bangladesh। "Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper"বাংলাদেশ প্রতিদিন 
  12. "The Daily Janakantha"। The Daily Janakantha। ২০১১-০৬-০৫। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০২-২৩ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  13. "পরলোকে পণ্ডিত রামকানাই দাশ"মানবজমিন 
  14. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ৪ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ সেপ্টেম্বর ২০১৪