রানাঘাট লোকসভা কেন্দ্র

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
রানাঘাট লোকসভা কেন্দ্র
অস্তিত্ব২০০৯-বর্তমান
সংরক্ষণতফসিলি জাতিদের জন্য
বর্তমান সাংসদজগন্নাথ সরকার
রাজনৈতিক দলবিজেপি
নির্বাচনের বছর২০১৯
রাজ্যপশ্চিমবঙ্গ
মোট ভোটদাতা১৭,৫৬,৪৪৫[১]
বিধানসভা কেন্দ্রনবদ্বীপ বিধানসভা কেন্দ্র
রানাঘাট উত্তরপশ্চিম বিধানসভা কেন্দ্র
রানাঘাট উত্তরপূর্ব বিধানসভা কেন্দ্র
রানাঘাট দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্র
চাকদহ বিধানসভা কেন্দ্র
কৃষ্ণগঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্র
শান্তিপুর বিধানসভা কেন্দ্র

রানাঘাট লোকসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের ৪২ টি লোকসভা কেন্দ্রের একটি এবং ২০০৯ সালের লোকসভা কেন্দ্রটি প্রতিষ্ঠিত হয়। এটি তফসিলি জাতিদের জন্য সংরক্ষিত নয় এবং মোট সাতটি বিধানসভা কেন্দ্র নিয়ে গঠিত। এটি ২ টি আসনের একটি, যা নদীয়া জেলা প্রতিনিধিত্ব করে এবং রানাঘাট শহরে লোকসভা কেন্দ্রের সদর দফতর। লোকসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত এলাকার সরকারি ভাষা হল বাংলা ও ইংরেজি।

রানাঘাট লোকসভা কেন্দ্রটি নদীয়া জেলার অংশ জুড়ে বিস্তৃত।

পশ্চিমবঙ্গে সংসদীয় নির্বাচনী এলাকা - ১. কোচবিহার, ২.আলিপুরদুয়ার্স, ৩. জলপাইগুড়ি, ৪. দার্জিলিং, ৫. রায়গঞ্জ, ৬. বালুরঘাট, ৭. মালদহ উত্তর, ৮. মালদহ দক্ষিণ, ৯. জাঙ্গিপুর, ১০. বহরমপুর, ১১. মুর্শিদাবাদ, ১২. কৃষ্ণনগর, ১৩. রানাঘাট, ১৪. বনগাঁ, ১৫. ব্যারাকপুর, ১৬. দম দম, ১৭. বারাসত, ১৮. বসিরহাট, ১৮. জয়নগর, ২০. মথুরাপুর, ১২. ডায়মন্ড হারবার, ২২. যাদবপুর, ২৩. কলকাতা দক্ষিণ, ২৪. কলকাতা উত্তর, ২৫. হাওড়া, ২৬. উলুবেড়িয়া, ২৭. শ্রীরামপুর, ২৮. হুগলি, ২৯. আরামবাগ, ৩০. তমলুক, ৩১, কাঁথি, ৩২.ঘাটাল, ৩৩. ঝাড়গ্রাম, ৩৪. মেদিনীপুর, ৩৫. পুরুলিয়া, ৩৬. বাঁকুড়া, ৩৭. বিষ্ণুপুর, ৩৮. বর্ধমান পূর্ব, ৩৯. বর্ধমান দুর্গাপুর, ৪০. আসানসোল, ৪১. বোলপুর, ৪২. বীরভূম

বিধানসভা কেন্দ্র গুলি[সম্পাদনা]

লোকসভা কেন্দ্রটি ৭ টি বিধানসভা কেন্দ্র নিয়ে গঠিত। এগুলি হল- নবদ্বীপ বিধানসভা কেন্দ্র, রানাঘাট উত্তরপশ্চিম বিধানসভা কেন্দ্র, রানাঘাট উত্তরপূর্ব বিধানসভা কেন্দ্র, রানাঘাট দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্র, চাকদহ বিধানসভা কেন্দ্র, কৃষ্ণগঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্রশান্তিপুর বিধানসভা কেন্দ্র

চাকদহ বিধানসভা কেন্দ্র

এই বিধানসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের একটি এবং এটি নদীয়া জেলার অন্তর্গত। বিধানসভা কেন্দ্রটির মূল কার্যালয় চাকদহ শহরে অবস্থিত। এই কেন্দ্রটি তফসিলি জাতি ও তফসিলী উপজাতিদের জন্য সংরক্ষিত না।

নবদ্বীপ বিধানসভা কেন্দ্র

এই বিধানসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের একটি এবং এটি নদীয়া জেলার অন্তর্গত। বিধানসভা কেন্দ্রটির মূল কার্যালয় নবদ্বীপ শহরে অবস্থিত। এই কেন্দ্রটি তফসিলি জাতি ও তফসিলী উপজাতিদের জন্য সংরক্ষিত না।

রানাঘাট দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্র

এই বিধানসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের একটি এবং এটি নদীয়া জেলার অন্তর্গত। বিধানসভা কেন্দ্রটির মূল কার্যালয় রানাঘাট শহরে অবস্থিত। এই কেন্দ্রটি তফসিলি জাতি ও তফসিলী উপজাতিদের জন্য সংরক্ষিত।

রানাঘাট উত্তরপশ্চিম বিধানসভা কেন্দ্র

এই বিধানসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের একটি এবং এটি নদীয়া জেলার অন্তর্গত। বিধানসভা কেন্দ্রটির মূল কার্যালয় রানাঘাট শহরে অবস্থিত। এই কেন্দ্রটি তফসিলি জাতি ও তফসিলী উপজাতিদের জন্য সংরক্ষিত না।

রানাঘাট উত্তরপূর্ব বিধানসভা কেন্দ্র

এই বিধানসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের একটি এবং এটি নদীয়া জেলার অন্তর্গত। বিধানসভা কেন্দ্রটির মূল কার্যালয় রানাঘাট শহরে অবস্থিত। এই কেন্দ্রটি তফসিলি জাতি ও তফসিলী উপজাতিদের জন্য সংরক্ষিত।

শান্তিপুর বিধানসভা কেন্দ্র

এই বিধানসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের একটি এবং এটি নদীয়া জেলার অন্তর্গত। বিধানসভা কেন্দ্রটির মূল কার্যালয় শান্তিপুর শহরে অবস্থিত। এই কেন্দ্রটি তফসিলি জাতি ও তফসিলী উপজাতিদের জন্য সংরক্ষিত না।

কৃষ্ণগঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্র

এই বিধানসভা কেন্দ্রটি পশ্চিমবঙ্গের ২৯৪ টি বিধানসভা কেন্দ্রের একটি এবং এটি নদীয়া জেলার অন্তর্গত। বিধানসভা কেন্দ্রটির মূল কার্যালয় কৃষ্ণগঞ্জ শহরে অবস্থিত। এই কেন্দ্রটি তফসিলি জাতি ও তফসিলী উপজাতিদের জন্য সংরক্ষিত।

বর্তমান ও প্রাক্তন বিজয়ী সাংসদদের তালিকা[সম্পাদনা]

নিচের সারণীটি শুরু থেকে শেষ নির্বাচন পর্যন্ত ব্যারাকপুর সংসদীয় আসনের সকল বিজয়ী ও প্রাক্তন সংসদ সদস্যের নাম উপস্থাপন করে। এটি প্রতিটি এমপি দ্বারা প্রাপ্ত ভোটের সংখ্যা এবং তারা যে রাজনৈতিক দলের সাথে যুক্ত তাও দেখায়। রানাঘাট আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য হলেন বিজেপি-এর শ্রী জগন্নাথ সরকার।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Parliamentary Constituency Wise Turnout for General Elections 2019"West Bengal। Election Commission of India। ৮ মে ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ মে ২০১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]