ম্যাচ ফিক্সিংয়ের জন্য নিষিদ্ধ হওয়া ক্রিকেটারদের তালিকা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

নীচের এই তালিকাটি টেস্ট, একদিনের আন্তর্জাতিক এবং প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট খেলোয়াড়দের, যিনি ক্রিকেটের পরিচালনা পর্ষদ দ্বারা, আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল, বা তাদের নিজ নিজ জাতীয় ক্রিকেট বোর্ড কর্তৃক ম্যাচ-ফিক্সিং বা স্পট-ফিক্সিং এর জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

খেলোয়াড় জাতীয় দল নিষেধাজ্ঞার দৈর্ঘ্য বিস্তারিত সূত্র
সেলিম মালিক  পাকিস্তান আজীবন নিষিদ্ধ
(২০০৮ সালে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার)
১৯৯৪ সালে অস্ট্রেলিয়ার শেন ওয়ার্ন, টিম মে ও মার্ক ওয়াহকে ঘুষ নেয়ার বিনিময়ে বাজে খেলার প্রস্তাব দিয়ে দোষী সাবাসত্ম হন ২০০০ সালে [১]
আতা-উর-রেহমান  পাকিস্তান আজীবন নিষিদ্ধ
(২০০৬ সালে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার)
জুয়াড়িদের সাথে লেনদেনের জন্য [২]
মোহাম্মদ আজহারউদ্দীন  ভারত আজীবন নিষিদ্ধ
(২০১২ সালে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার)
বিসিআইসি কর্তৃক নিষিদ্ধ হয়েছিলেন [৩]
অজয় শর্মা  ভারত আজীবন নিষিদ্ধ জুয়াড়িদের সঙ্গে সংযুক্ত জন্য দোষী সাব্যস্ত [৪]
মনোজ প্রভাকর  ভারত ৫ বছর [৫]
অজয় জাদেজা  ভারত ৫ বছর
(২০০৩ সালে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার)
জুয়াড়িদের সাথে সংযুক্ত হওয়ার অভিযোগে [৬]
হানসি ক্রনিয়ে  দক্ষিণ আফ্রিকা আজীবন নিষিদ্ধ [৭]
হার্শেল গিবস  দক্ষিণ আফ্রিকা ৬ মাস [৮]
হেনরি উইলিয়ামস  দক্ষিণ আফ্রিকা ৬ মাস জুয়াড়িদের কাছ থেকে অর্থ নেওয়ার জন্য [৯]
১০ মরিস ওদুম্বে  কেনিয়া ৫ বছর জুয়াড়িদের কাছ থেকে অর্থ নেওয়ার জন্য [১০]
১১ মারলন স্যামুয়েলস  ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২ বছর দলের তথ্য জুয়াড়িদের কাছে দেয়ার জন্য [১১]
১২ মোহাম্মদ আমির  পাকিস্তান ৫ বছর ২০১০ সালের আগস্টে লর্ডস টেস্টে অর্থের বিনিময়ে ইচ্ছাকৃতভাবে নো বল করার অপরাধে [১২] [১৩]
১৩ মোহাম্মদ আসিফ  পাকিস্তান ৭ বছর পাতানো খেলার দায়ে[১২] [১৪]
১৪ সালমান বাট  পাকিস্তান ১০ বছর পাতানো খেলার দায়ে[১২] [১৫]
১৫ দানিশ কানেরিয়া  পাকিস্তান আজীবন নিষিদ্ধ ম্যাচ ফিক্সিং [১৬]
১৬ এস. শ্রীশান্ত  ভারত আজীবন নিষিদ্ধ ৯ মে ২০১৩, আইপিএলে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের বিপক্ষে একটি ম্যাচে রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে পরিকল্পিত ভাবে ১৪ রান দেন।[১৭] ১৬ মে ২০১৩ তারিখে বাজিকরদের থেকে টাকা গ্রহণ করার জন্য তাকে গ্রেপ্তার করা হয়, কিন্তু এক মাস পরে তিনি জামিনে মুক্তি পান।[১৮] [১৯]
১৭ মোহাম্মদ আশরাফুল  বাংলাদেশ ৫ বছর
(৩ বছর বরখাস্ত)
বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের ২০১৩ মৌসুমে ম্যাচ ফিক্সিংয়ে সম্পৃক্ততার অভিযোগে নিষিদ্ধ হন। প্রথমে নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ ৮ বছর দেয়া হলেও পরে তা কমিয়ে ৫ বছর করা হয়।[২০] [২১]
১৮ লু ভিনসেন্ট  নিউজিল্যান্ড আজীবন নিষিদ্ধ প্রথমে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের একটি খেলায় ফিক্সয়ের একটি পদক্ষেপের রিপোর্ট করতে ব্যর্থ হওয়ায় জন্য ৩ বছর নিষিদ্ধ হলেও পরে ইংরেজ ঘরোয়া ক্রিকেটে ম্যাচ ফিক্সয়ের জন্য আজীবন নিষিদ্ধ হন [২২]
১৯ কৌশল লোকুরচ্চি  শ্রীলঙ্কা ১৮ মাস বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের একটি খেলায় ফিক্সয়ের একটি পদক্ষেপের রিপোর্ট করতে ব্যর্থ হওয়ায় জন্য নিষিদ্ধ [২১]

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

খেলোয়াড় জাতীয় দল নিষেধাজ্ঞার দৈর্ঘ্য বিস্তারিত সূত্র
মারভিন ওয়েস্টফিল্ড এসেক্স ৫ বছর ম্যাচ ফিক্সিং [২৩][২৪]
চন্দ্র সুধিন্দ্রা DC ডেকান চার্জারস আজীবন নিষিদ্ধ ঘরোয়া খেলায় স্পট ফিক্সিং [২৫]
মহনিস মিশ্র DC ডেকান চার্জারস ১ বছর [২৫]
অমিত যাদব KXIP কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব ১ বছর ম্যাচ ফিক্সিং এবং স্পট ফিক্সিং [২৫]
আভিনাভ বালি KXIP কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব ১ বছর ম্যাচ ফিক্সিং এবং স্পট ফিক্সিং [২৫]
শালাভ শ্রীভাসতাভা KXIP কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব ৫ বছর ম্যাচ ফিক্সিং এ মধ্যস্ততা করার জন্য [২৫]
শারিফুল হক DG ঢাকা গ্ল্যাডিয়েটর্স অনির্দিষ্ট কাল স্পট ফিক্সিং [২৬][২৭]
আঙ্কিত চৌহান RR রাজস্থান রয়্যালস আজীবন নিষিদ্ধ স্পট ফিক্সিং [২৮]
অমিত সিং RR রাজস্থান রয়্যালস ৫ বছর বাজিকর এবং রাজস্থান রয়্যালসের ক্রিকেটারদের মধ্যে মধ্যস্তাকারী হিসেবে কাজ করা[২৯] [২৮]
১০ সিদ্ধার্থ ত্রিবেদী RR রাজস্থান রয়্যালস ১ বছর বাজিকররা তাকে প্রস্তাব দিলে তা রিপোর্ট করতে ব্যর্থ হওয়ায়, যদিও তার ম্যাচ ফিক্সিং বা স্পট ফিক্সিংয়ে কোন সংশ্লিষ্টতা ছিল না।[৩০] [২৮]
১১ নাভেদ আরিফ সাসেক্স আজীবন নিষিদ্ধ ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের দুর্নীতি দমন কোড অমান্য করায় আজীবন নিষিদ্ধ হন। [৩১]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Player Profile: Saleem Malik"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  2. "Player Profile: Ata-ur-Rehman"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  3. "Player Profile: Mohammad Azharuddin"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  4. "Player Profile: Ajay Sharma"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  5. "Player Profile: Manoj Prabhakar"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  6. "Player Profile: Ajay Jadeja"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  7. "Player Profile: Hansie Cronje"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  8. "Player Profile: Herschelle Gibbs"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  9. "Player Profile: Henry Williams"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  10. "Player Profile: Maurice Odumbe"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  11. http://www.espncricinfo.com/westindies/content/story/350812.html
  12. "Salman Butt and Pakistan bowlers jailed for no-ball plot"BBC News। ২০১১-১১-০৩। 
  13. "Player Profile: Mohammad Amir"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  14. "Player Profile: Mohammad Asif"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  15. "Player Profile: Salman Butt"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০১-০৬ 
  16. http://www.espncricinfo.com/pakistan/content/story/571681.html
  17. My confession to police was under duress: Sreesanth
  18. Sreesanth, Chavan released from jail
  19. "Sreesanth: Former India bowler banned for life for spot-fixing"BBC 
  20. "আশরাফুলের শাস্তি কমল"। বিডিনিউজ২৪.কম। সংগ্রহের তারিখ ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৪ 
  21. । ক্রিকইনফো http://www.espncricinfo.com/bangladesh/content/current/story/753529.html। সংগ্রহের তারিখ ১৮ জুন ২০১৪  |শিরোনাম= অনুপস্থিত বা খালি (সাহায্য)
  22. http://www.espncricinfo.com/ci-icc/content/story/756729.html। সংগ্রহের তারিখ ১ জুলাই ২০১৪  |শিরোনাম= অনুপস্থিত বা খালি (সাহায্য)
  23. "Kaneria banned for life by ECB"। ক্রিকইনফো। 2012-22-06।  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |তারিখ= (সাহায্য)
  24. "Player Profile: Mervyn Westfield"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ 2012-22-06  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য)
  25. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ২৫ অক্টোবর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৩ ডিসেম্বর ২০১২ 
  26. "Player Profile: Shariful Haque"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৪-০৯ 
  27. "Bangladesh player banned for spot-fixing"। ক্রিকইনফো। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৪-০৯ 
  28. IPL 6 spot-fixing: S Sreesanth, Ankeet Chavan banned for life by BCCI
  29. "Bookies used Rajasthan Royals' pacer Amit Singh to fix deals, say cops"। ২৪ জুন ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২ সেপ্টেম্বর ২০১৪ 
  30. India cricketers Sreesanth, Chavan banned for life for fixing
  31. ECB ban Naved Arif for life

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]