মোহাম্মদ নুরুল করিম

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মোহাম্মদ নুরুল করিম
রাজশাহী সরকারি টিচার্স ট্রেনিং কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ
কাজের মেয়াদ
১৯৬৭ – ১৯৬৯
পূর্বসূরীসৈয়দ আজিজুর রহমান হাশমী [১]
উত্তরসূরীআ.ও.ম কাবেল [১]
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম(১৯০৯-১১-২৮)২৮ নভেম্বর ১৯০৯
ফেনী, ব্রিটিশ ভারত
মৃত্যু২৪ সেপ্টেম্বর ১৯৯২(1992-09-24) (বয়স ৮২)
ঢাকা, বাংলাদেশ
জাতীয়তাবাংলাদেশী
প্রাক্তন শিক্ষার্থীঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

মোহাম্মদ নুরুল করিম (২৮ নভেম্বর ১৯০৯ - ২৪ সেপ্টেম্বর ১৯৯২) একজন বাংলাদেশী লেখক ও ইতিহাসের অধ্যাপক। তিনি ঢাকা কলেজের উপাধ্যক্ষ এবং রাজশাহী সরকারি টিচার্স ট্রেনিং কলেজের অধ্যক্ষ ছিলেন। [১]

প্রাথমিক জীবন এবং শিক্ষা[সম্পাদনা]

করিমের জন্ম ফেনীতে। তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ফেনী কলেজ থেকে ইতিহাসে স্নাতক (সম্মান) সম্পন্ন করেন। তিনি ১৯৩৫ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইতিহাসে স্নাতোকোত্তর ডিগ্রি লাভ করেন এবং প্রথম শ্রেণিতে প্রথম হন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

করিম বিভিন্ন পদে ভিন্ন ভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কাজ করেছেন। তিনি ১৯৩৬ থেকে ১৯৩৭ সাল পর্যন্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাস বিভাগের প্রভাষক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন। দীর্ঘ কর্মজীবনে তিনি বিভিন্ন কলেজে ইতিহাসের বিভাগীয় প্রধান এবং ঢাকা কলেজ সহ একাধিক কলেজের উপাধ্যক্ষ হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি রাজশাহী সরকারি টিচার্স ট্রেনিং কলেজের অধ্যক্ষ ছিলেন। [১]

তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেটের সদস্যও ছিলেন। তিনি ঢাকারাজশাহী শিক্ষা বোর্ডে ইতিহাসের প্রধান পরীক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন এবং প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তরের অসংখ্য পাঠ্যপুস্তক রচনা, পর্যালোচনা ও সম্পাদনা করেন।

গবেষণা কর্ম[সম্পাদনা]

দ্য বাংলাদেশ অবজার্ভার এবং দ্য বাংলাদেশ টাইমস সহ খ্যাতিমান পত্রিকায় করিম নিয়মিত লেখালিখি করতেন। ইসলামী সংস্কৃতি এবং ইতিহাস সংশ্লিষ্ট বেতার অনুষ্ঠানে আলোচক হিসেবে তিনি নিয়মিত অংশগ্রহণ করতেন। তিনি দেশ-বিদেশের অনেক সম্মেলনে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

বাংলা এবং ইংরেজি উভয় ভাষায় তিনি বেশ কয়েকটি বই রচনা করেন। তার বহুল প্রশংসিত বইগুলির মধ্যে রয়েছে,

  • ইসলাম: এ রিলিজিয়ন অফ ট্রুথ (ইসলাম: সত্যের ধর্ম), ১৯৮০ [২]
  • দ্য বেকন লাইট অফ ইসলাম (ইসলামের আলোকবর্তিকা আলো), ১৯৮৩ [৩][৪]

অনুদান[সম্পাদনা]

অধ্যাপক করিম ১৯৯১ সালে তার নিজের নামানুসারে বাংলাদেশের এশিয়াটিক সোসাইটিতে অধ্যাপক মোহাম্মদ নুরুল করিম ট্রাস্ট ফান্ড প্রতিষ্ঠা করেন। এই ট্রাস্ট ফান্ডটি আরবি, ইসলামী শিক্ষা, ফার্সি ও উর্দু বিষয়ে অধ্যয়নে এশিয়ীদের অবদান- এই বিস্তৃত ক্ষেত্রে গবেষণাকে পৃষ্ঠপোষকতা প্রদান করে থাকে। [৫]

মৃত্যু[সম্পাদনা]

মোহম্মদ নুরুল করিম ১৯৯২ সালের ২৪ শে সেপ্টেম্বর ঢাকায় মৃত্যুবরণ করেন।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "সাবেক অধ্যক্ষগণ"www.ttc.rajshahi.gov.bd। সংগ্রহের তারিখ ১৪ এপ্রিল ২০২১ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  2. "BCS Administration Academy Library"। সংগ্রহের তারিখ ১৪ এপ্রিল ২০২১ 
  3. "BCS Administration Academy Library"। সংগ্রহের তারিখ ১৪ এপ্রিল ২০২১ 
  4. "The Beacon Light of Islam"। সংগ্রহের তারিখ ১৪ এপ্রিল ২০২১ 
  5. "Trust Funds"www.asiaticsociety.org.bd। সংগ্রহের তারিখ ১৪ এপ্রিল ২০২১