মেছুকা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মেছুকা
মেচুকা
গ্রাম
অরুণাচল প্রদেশ, ভারত
মেছুকা অরুণাচল প্রদেশ-এ অবস্থিত
মেছুকা
মেছুকা
ভারতের অরুণাচল প্রদেশে অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৮°৩৬′১৮″ উত্তর ৯৪°৭′৪১″ পূর্ব / ২৮.৬০৫০০° উত্তর ৯৪.১২৮০৬° পূর্ব / 28.60500; 94.12806স্থানাঙ্ক: ২৮°৩৬′১৮″ উত্তর ৯৪°৭′৪১″ পূর্ব / ২৮.৬০৫০০° উত্তর ৯৪.১২৮০৬° পূর্ব / 28.60500; 94.12806
দেশ ভারত
রাজ্যঅরুণাচল প্রদেশ
ভারতের জেলাসমূহের তালিকাশি-ইওমি জেলা
উচ্চতা১,২৪০ মিটার (৪,০৭০ ফুট)
ভাষা সমূহ
 • সরকারিইংরেজি
সময় অঞ্চলআইএসটি (ইউটিসি+০৫:৩০)
পিন৭৯১০০৩
আইএসও ৩১৬৬ কোডইন-এআর
যানবাহন নিবন্ধনএআর
মেছুকা ভূদৃশ্য

মেছুকা হল একটি ছোট শহর, ভারতের অরুণাচল প্রদেশের শি-ইওমি জেলার মেছুকা উপত্যকায়, সমুদ্রতলের ৬,০০০ ফুট (১,৮২৯ মি) ওপরে অবস্থিত। মেছুকা আসনের বর্তমান বিধায়কের (অক্টোবর ২০১৬) নাম পাসাং দোর্জি সোনা[১] মেছুকা গ্রামে ম্যাকমেহন সীমান্ত ভারতীয় অঞ্চল এবং চীনা অঞ্চলকে পৃথক করে রেখেছে।[২]

অবস্থান[সম্পাদনা]

Menchukha Pine Forests
মেছুকা পাইন বন

পাইন গাছ এবং কাঁটাঝোপ দিয়ে ঘেরা মেছুকা একটি বনাঞ্চল উপত্যকায় অবস্থিত। ইয়ারগিয়াপচু নদী মেছুকা উপত্যকা দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। মেছুকা গ্রামটি অরুণাচল প্রদেশের আলংয়ের উত্তর-পশ্চিমে ১৮০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত এবং ইন্দো-চীন সীমানা থেকে মাত্র ২৯ কিলোমিটার দূরে। নিকটতম বিমানবন্দরটি আসাম এর লীলাবাড়ি বিমানবন্দর[৩]

ব্যুৎপত্তি[সম্পাদনা]

'মেন-চু-খা' নামটির অর্থ বরফের ঔষধিযুক্ত জল যেখানে মেন হল ওষুধ, চু অর্থ জল এবং খা অর্থ বরফ যদিও "খা" দিয়ে মুখও বোঝায়।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

মেছুকা ভারতের অরুণাচল প্রদেশ রাজ্যের একটি অংশ। আধুনিক রাস্তা নির্মাণের আগে, একমাত্র আকাশপথের মাধ্যমে গ্রামে প্রবেশ করা যেত, সেটি ব্যবহার করে ভারতীয় বিমানবাহিনী স্থানীয় জনগণকে পণ্য সরবরাহ করত।

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

মেনচুখা/মেছুখা উপত্যকা মেম্বা এবং আদি জনজাতির মানুষের বাসস্থান। অন্যান্য স্থানীয় লোকের মধ্যে রয়েছে ট্যাগিন উপজাতিরা। মেছুকা আসনের বর্তমান বিধায়কের (অক্টোবর ২০১৬) নাম পাসাং দোর্জি সোনা[৪]

উপত্যকায় প্রচলিত ধর্মগুলির মধ্যে রয়েছে - তিব্বতী বৌদ্ধধর্ম, ডোনি-পোলো ধর্ম এবং খ্রিস্ট ধর্ম। মেছুখা ধর্মীয় এবং ঐতিহাসিক তাৎপর্যের জন্য পরিচিত। মহাযান বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের ৪০০ বছরের পুরানো সামটেন ইওংচা মঠটি বহু শ্রদ্ধেয় তাওয়াং মঠের সমসাময়িক।[৫]

মেছুকা উপত্যকায় এখনও শাঙ্গলা ভাষায় কথা বলা হয় এমন প্রমাণ পাওয়া যায়নি। পরিবর্তে, লোকেরা মেম্বাতে কথা বলে, যা একটি বোদিশ ভাষা যা বিভিন্ন বোদিক জাতের (ডওয়াগস-পো, কোং-পো, ব্র্যাং-গসুম মেটশো -খোর), পূর্ব বোদিশ তাওয়াং মনপা, সাংভালা এবং কিছু তানি লোণের মিশ্রণ দ্বারা গঠিত। কিছু মেম্বা মানুষ এখনও তাওয়াং মংপাতে কথা বলে।[৬]

মেছুকা বিমানবন্দর[সম্পাদনা]

Menchukha town at dusk
সন্ধ্যাবেলা মেছুকা শহর

ভারতীয় বিমানবাহিনী একটি আকাশপথ বজায় রেখেছে, যা মেছুখায় অ্যাডভান্সড ল্যান্ডিং গ্রাউন্ড (এএলজি) নামে পরিচিত। অ্যান্টোনভ -৩২ বিমান এবং হেলিকপ্টারের মাধ্যমে আসামের শহরগুলি থেকে অত্যাবশ্যকীয় সরবরাহ আনতে বিমান পথটি প্রায়শই ব্যবহার করা হয়। বিমানের নির্মিত পথটি সংস্কার করা হয়েছিল, শক্তিশালী করা হয়েছিল, একটি কংক্রিট রানওয়েতে উন্নীত করা হয়েছিল এবং সরকার ২০১৭ সালে এটি ৪,৭০০ ফুট পর্যন্ত প্রসারিত করেছিল।[৭] এই অঞ্চলে যথেষ্ট সামরিক উপস্থিতি রয়েছে, যা নাগরিকদের জন্য কিছু কর্মসংস্থান তৈরি করে। এখানে উডান প্রকল্পের আওতায়, সোমবার ও শনিবার, সপ্তাহে দুবার হেলিকপ্টার পরিষেবা রয়েছে।[৭] অরুণাচল প্রদেশ সরকার একটি ৯ আসনযুক্ত স্থির ডানার বিমান পরিষেবা পরিচালনার জন্য বেসরকারী বিমান সংস্থাগুলির দরপত্রের আমন্ত্রণ জানিয়েছে যা উডান প্রকল্পের আওতায় থাকবে না (সি. মে ২০১৮)।[৭] ৩রা জুন ২০১৯ সালে, আসাম থেকে এই বিমানবন্দরের দিকে যাত্রা করার পরে একটি ভারতীয় বিমানবাহিনীর বিমান ১৩জন যাত্রীসহ নিখোঁজ হয়ে গিয়েছিল।[৮] এই বিমানের ধ্বংসাবশেষ ১১ই জুন ২০১৯ সালে সিয়াং সার্কেলে পাওয়া গিয়েছিল এবং এটি আইএএফ দ্বারা জেলা কর্মকর্তাদের কাছে নিশ্চিত করা হয়েছে। এই ধ্বংসাবশেষটি একটি এমআই ১৭ হেলিকপ্টারটি আবিষ্কার করেছে যেটি দুর্ঘটনার পরে 8 দিন থেকে অনুসন্ধান ও উদ্ধার কাজে নিযুক্ত ছিল ছিল।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Basar MLA"। ১৯ আগস্ট ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২২ অক্টোবর ২০১৬ 
  2. "The last village in our arunachal"। সংগ্রহের তারিখ ১ আগস্ট ২০১৭ 
  3. "Travel To The Mesmerizing Mechuka Valley In Arunachal Pradesh Read more at: https://www.nativeplanet.com/travel-guide/travel-to-the-mesmerizing-mechuka-valley-in-arunachal-pradesh-004844.html"। সংগ্রহের তারিখ ১৭ নভেম্বর ২০১৯  |title= এ বহিঃসংযোগ দেয়া (সাহায্য)
  4. "Mechuka MLA"। ১৯ আগস্ট ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ আগস্ট ২০১৬ 
  5. "Welcome to the Northeast!"। ১৮ নভেম্বর ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ নভেম্বর ২০১৯ 
  6. Bodt, Timotheus Adrianus (২০১৭-১২-১৬)। "Menchukha valley - Overview" 
  7. Arunachal Pradesh plans fixed-wing flight service to Mechuka, closest to China border, The Hindu, 15 May 2018.
  8. Air Force Plane Carrying 13 Missing After Taking Off From Assam

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:Arunachal Pradesh টেমপ্লেট:Indian Air Force bases