মিস ইন্টারন্যাশনাল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মিস ইন্টারন্যাশনাল
মিস ইন্টারন্যাশনাল.png
মিস ইন্টারন্যাশনাল প্রতিযোগিতার লোগো
নীতিবাক্যভালবাসা, শান্তি এবং সৌন্দর্য
গঠিত১৯৬০
ধরণসৌন্দর্য প্রতিযোগিতা
সদরদপ্তরটোকিও
অবস্থান
দাপ্তরিক ভাষা
ইংরেজী ভাষা
প্রেসিডেন্ট
আকেমি শিমোমুরা
অনুমোদনমিস প্যারিস গ্রুপ [১]
ওয়েবসাইটঅফিশিয়াল ওয়েবসাইট

মিস ইন্টারন্যাশনাল (মিস ইন্টারন্যাশনাল বিউটি অথবা আন্তজার্তিক সৌন্দর্য প্রতিযোগিতা) হচ্ছে টোকিও ভিত্তিক একটি আন্তজার্তিক সৌন্দর্য প্রতিযোগীতা এবং এটি পরিচালনা করে আন্তর্জাতিক সাংষ্কৃতিক সংস্থা।[১][২] মিস ওর্য়াল্ড,মিস ইউনিভার্স, মিস আর্থ এর পাশাপাশি বড় চারটি আন্তজার্তিক সৌন্দর্য প্রতিযোগিতা মধ্যে এটি একটি।[৩]

বর্তমান মিস ইন্টারন্যাশনাল হচ্ছেন ফিলিপাইনের কাইলি ভারসোজা যিনি মুকুটটি জিতেন অক্টোবর ২৭,২০১৬-এ টোকিও,জাপানে।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

প্রতিযোগিতাটির সূচনা হয় ১৯৬০ সালে লং বীচ,ক্যালিফোর্নিয়া,যুক্তরাষ্ট্রে।[৪] মিস ইউনিভার্স প্রতিযোগিতা মিয়ামি বীচে চালু হলে ১৯৬৭ পর্যন্ত এটি লং বীচে অনুষ্ঠিত হয়।[৫][৬] প্রতিযোগিতাটি ১৯৬৮-১৯৭০ পর্যন্ত জাপানে স্থান্তারিত হয় এবং প্রতি বছর এক্সপো ৭০ নামে অনুষ্ঠিত হয়। ১৯৭১-এ এটি আবার লং বীচে হয়,কিন্তু সেই সময় থেকে ২০০৩ পর্যন্ত এটি জাপানেই অনুষ্ঠিত হতে থাকে। ২০০৪ থেকে প্রতিযোগিতাটি জাপান অথবা চীনেই অনুষ্ঠিত হয়। [৭]

প্রতিযোগিতাটি মিস ইন্টারন্যাশনাল বিউটি নামেও ডাকা হয়।[৮] প্রতিযোগিদের মনে করা হয় "শান্তি ও সৌন্দর্যের দূত", তারা প্রদর্শক আবেগপ্রবণতা, দয়াশীলতা, বন্ধুত্ব, সৌন্দর্য, বুদ্ধিমত্তা, ব্যবস্থা গ্রহণ করার ক্ষমতা এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণভাবে, একটি মহান আন্তর্জাতিক সংবেদনশীলতা পরিবেশন করবে বলে আশা করা হয়। প্রতিযোগিতাটির মূল লক্ষ্য হচ্ছে বিশ্ব শান্তি, মঙ্গলকামনা এবং বোঝা।[৭]

বর্তমান মুকুটধারী[সম্পাদনা]

বছর দেশ মিস ইন্টারন্যাশনাল জাতীয় খেতাব স্থান সমাগম সংখ্যা
২০১৬  ফিলিপাইন কাইলি ভারসোজা বিনিবিনিং ফিলিপিনাস টোকিও, জাপান ৬৯
২০১৫  ভেনেজুয়েলা এডিমার মার্টিনেজ মিস ভেনেজুয়েলা টোকিও, জাপান ৭০
২০১৪  পুয়ের্তো রিকো ভালিরাই হান্নার্দিনেজ মিস পুয়ের্তো রিকো টোকিও, জাপান ৭৩
২০১৩  ফিলিপাইন বিয়া সান্তিয়াগো বিনিবিনিং ফিলিপিনাস টোকিও, জাপান ৬৭
২০১২  জাপান ইকুমি ইয়োমাৎসু মিস ইন্টারন্যাশনাল জাপান ওকিনওয়া, জাপান ৬৯

বিজয়ীদের চিত্রমালা[সম্পাদনা]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "MOFA examines beauty contest's 'belittling'"The China Post। ২১ অক্টোবর ২০০৮। সংগ্রহের তারিখ ১৬ নভেম্বর ২০১০ 
  2. Adelstein, Jake। "First lady scrutinizes blackballing of beauty queen"। The Japan Times। সংগ্রহের তারিখ ২৬ অক্টোবর ২০১৫ 
  3. "Beauty Pageants: Are The Crowns On the Right Heads? - Nigerian News from Leadership News"Nigerian News from Leadership News। ২২ ডিসেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩ জানুয়ারি ২০১৬ 
  4. "6th place winner low-rates Miami"The Miami News। ১৩ আগস্ট ১৯৬০। সংগ্রহের তারিখ ১৬ নভেম্বর ২০১০ 
  5. "May settle dispute over beauty pageant"Lewiston Evening Journal। ২২ আগস্ট ১৯৫৯। সংগ্রহের তারিখ ১৬ নভেম্বর ২০১০ 
  6. "Pageant shifted"Spokane Daily Chronicle। ২৩ এপ্রিল ১৯৬৮। সংগ্রহের তারিখ ১৬ নভেম্বর ২০১০ 
  7. History of Miss International ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ১৬ জুন ২০১১ তারিখে. Miss-international.org. Retrieved on 2010-10-21.
  8. "Miss Germany Tops Beauties"The Hartford Courant। ১৪ আগস্ট ১৯৬৫। সংগ্রহের তারিখ ১৬ নভেম্বর ২০১০Ingrid Fiffi Finger, was named Miss International Beauty Friday. 

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]