মাইকোটক্সিন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

মাইকোটক্সিন এক ধরণের বিষাক্ত পদার্থ যা বিভিন্ন ছত্রাক থেকে তৈরি হয়। এটি প্রাণী এবং মানুষ উভয়ের দেহেই রোগ সৃষ্টি করতে পারে। মাইকোস মানে ছত্রাক আর টক্সিন মানে বিষাক্ত কোন কিছুকে বোঝায়। এই দুইয়ে মিলেই এর নাম হয়েছে মাইকোটক্সিন।[১][২][৩][৪] মাইকোটক্সিন দ্বারা কোন বিশেষ রাসায়নিক পদার্থকে বোঝানো হয়।[৫]

বিভিন্ন মাইকোটক্সিন মানুষ ও প্রাণীদেহে বিভিন্ন রোগ সৃষ্টি করে। উল্লেখযোগ্য কিছু মাইকোটক্সিন হল আফলাটক্সিন, ছিট্রিনিন, ফুমোনিসিন্স, অকরাটক্সিন, পাটুলিন, জিয়ারালিনন, এরগট এলকালয়েডস ইত্যাদি।[৬]

একটি ছত্রাক থেকে অনেকগুলো মাইকোটক্সিন তৈরি হতে পারে। আবার অনেকগুলো ছত্রাক মিলে একটি মাইকোটক্সিন তৈরি করতে পারে।[৭]

খাদ্যের ক্ষেত্রে[সম্পাদনা]

বিভিন্ন শস্য থেকে মাইকোটক্সিন মানুষের মধ্যে বা বিভিন্ন পশুপাখির মধ্যে প্রবেশ করতে পারে।

২০০৪ সালে, কেনিয়াতে ১২৫ জন মানুষ আফলাটক্সিন খেয়ে মৃত্যুবরণ করে। আরো ২০০ জন অসুস্থ হয়ে পড়ে। তারা গম খেয়েছিল। আর গমের মধ্যে ছিল আফলাটক্সিন।[৮] বিশেষ করে ঠিকভাবে কীটনাশক প্রয়োগ না করলে এবং সঠিকভাবে গম চাষ না করলে নানান ছত্রাক আক্রমণ করে। আর এর ফলে সেখানে নানারকম মাইকোটোক্সিন সৃষ্টি হওয়ার আশংকা থেকে যায়।

কিছু কিছু খাদ্যে প্রায়শই মাইকোটক্সিন পাওয়া যায়।[৯] লাল মরিচ, শুকনো আদা ইত্যাদিতে ছত্রাক আক্রমণ স্বাভাবিক ব্যাপার।[৯]

খাদ্যকে ছত্রাকের আক্রমণ থেকে বাড়াতে হলে কয়েকটি ব্যাপারের দিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। যেমন সঠিক আদ্রতা ও তাপমাত্রা।[১০] এছাড়া নানারকম রাসায়নিক পদার্থ ব্যবহার করেও মাইকোটক্সিন নির্মুল করা সম্ভব।[১০]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Harper, Douglas। "myco"Online Etymology Dictionary 
  2. Harper, Douglas। "toxin"Online Etymology Dictionary 
  3. Richard JL (২০০৭)। "Some major mycotoxins and their mycotoxicoses – an overview"। Int. J. Food Microbiol.119 (1–2): 3–10। ডিওআই:10.1016/j.ijfoodmicro.2007.07.019পিএমআইডি 17719115 
  4. Bennett, J. W.; Klich, M (২০০৩)। "Mycotoxins"Clinical Microbiology Reviews16 (3): 497–516। ডিওআই:10.1128/CMR.16.3.497-516.2003পিএমআইডি 12857779পিএমসি 164220অবাধে প্রবেশযোগ্য 
  5. Turner NW, Subrahmanyam S, Piletsky SA (২০০৯)। "Analytical methods for determination of mycotoxins: a review"। Anal. Chim. Acta632 (2): 168–80। ডিওআই:10.1016/j.aca.2008.11.010পিএমআইডি 19110091 
  6. Bennett, J. W.; Klich, M (২০০৩)। "Mycotoxins"Clinical Microbiology Reviews16 (3): 497–516। ডিওআই:10.1128/CMR.16.3.497-516.2003পিএমআইডি 12857779পিএমসি 164220অবাধে প্রবেশযোগ্য 
  7. Robbins CA, Swenson LJ, Nealley ML, Gots RE, Kelman BJ (২০০০)। "Health effects of mycotoxins in indoor air: a critical review"। Appl. Occup. Environ. Hyg.15 (10): 773–84। ডিওআই:10.1080/10473220050129419পিএমআইডি 11036728 
  8. Lewis L, Onsongo M, Njapau H, ও অন্যান্য (২০০৫)। "Aflatoxin contamination of commercial maize products during an outbreak of acute aflatoxicosis in eastern and central Kenya"Environ. Health Perspect.113 (12): 1763–67। ডিওআই:10.1289/ehp.7998পিএমআইডি 16330360পিএমসি 1314917অবাধে প্রবেশযোগ্য। ২০১২-০৬-২৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  9. Jeswal P, Kumar D (২০১৫)। "Mycobiota and Natural Incidence of Aflatoxins, Ochratoxin A, and Citrinin in Indian Spices Confirmed by LC-MS/MS"International Journal of Microbiology2015: 1–8। ডিওআই:10.1155/2015/242486পিএমআইডি 26229535পিএমসি 4503550অবাধে প্রবেশযোগ্য• The results of this study suggest that the spices are susceptible substrate for growth of mycotoxigenic fungi and further mycotoxin production.
    • Red chilli, black pepper, and dry ginger are the most contaminated spices in which AFs, OTA, and CTN were present in high concentration.
     
  10. Liu, Yue; Yamdeu, Joseph Hubert Galani; Gong, Yun Yun; Orfila, Caroline (২০২০)। "A review of postharvest approaches to reduce fungal and mycotoxin contamination of foods"। Comprehensive Reviews in Food Science and Food Safety (ইংরেজি ভাষায়)। 19 (4): 1521–1560। আইএসএসএন 1541-4337ডিওআই:10.1111/1541-4337.12562অবাধে প্রবেশযোগ্য