মন্ডে জনডেকি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
মন্ডে জনডেকি
Monde Zondeki.jpg
ব্যক্তিগত তথ্য
জন্ম (১৯৮২-০৭-২৫) ২৫ জুলাই ১৯৮২ (বয়স ৩৫)
কিং উইলিয়ামস টাউন, কেপ প্রদেশ, দক্ষিণ আফ্রিকা
ব্যাটিংয়ের ধরন ডানহাতি
বোলিংয়ের ধরন ডানহাতি ফাস্ট
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছর দল
২০০০-২০০৪ বর্ডার
২০০৪ ইস্টার্ন কেপ
২০০৫ ওয়ারিয়র্স
২০০৫- কেপ কোবরাস
২০০৮ ওয়ারউইকশায়ার
২০০৯-২০১০ ওয়েস্টার্ন প্রভিন্স
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই
ম্যাচ সংখ্যা ১১
রানের সংখ্যা ৮২
ব্যাটিং গড় ২০.৫০ ৪.০০
১০০/৫০ ০/১ ০/০
সর্বোচ্চ রান ৫৯ ৩*
বল করেছে ৬৯২ ৪৫৬
উইকেট ১৬
বোলিং গড় ২৭.৩৭ ৫১.৭৫
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট -
সেরা বোলিং ৬/৩৯ ২/৪৬
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ১/- ৩/-
উৎস: ক্রিকইনফো, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৬

মন্ডে জনডেকি (ইংরেজি: Monde Zondeki; জন্ম: ২৫ জুলাই, ১৯৮২) কেপ প্রদেশের কিংস উইলিয়ামস টাউনে জন্মগ্রহণকারী প্রথিতযশা সাবেক দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটার। দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। পাঁচটি টেস্ট, সাতটি একদিনের আন্তর্জাতিক ছাড়াও আফ্রিকান একাদশের পক্ষে তিন খেলায় অংশ নিয়েছেন। ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে কেপ কোবরাস ও ওয়েস্টার্ন প্রভিন্সের প্রতিনিধিত্ব করেন। দলে তিনি মূলতঃ ফাস্ট বোলার হিসেবে অংশ নেন তিনি।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

২০০৩ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তার টেস্ট অভিষেক ঘটে। কিন্তু কয়েক ওভার পরই আঘাতের কারণে বোলিং থেকে দূরে চলে আসেন। তবে ব্যাট হাতে প্রথম ইনিংসে ৫৯ রান তোলেন। গ্যারি কার্স্টেনের সাথে অষ্টম উইকেট জুটিতে মহামূল্যবান ১৫০ রান তুলে দলকে ১৪২/৭ থেকে ২৯২/৮-এ নিয়ে যান।[১] ২০০৪-০৫ মৌসুমে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে নিজস্ব দ্বিতীয় টেস্টে অংশ নেন। ঐ খেলায় তিনি ৩/৬৬ ও ৬/৩৯ লাভ করেন। এরফলে দক্ষিণ আফ্রিকা ইনিংস ব্যবধানে জয় পায় ও তিনি ম্যান অব দ্য ম্যাচ নির্বাচিত হন।[২]

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

২০০৭-০৮ দক্ষিণ আফ্রিকান মৌসুমের ঘরোয়া ক্রিকেটে শীর্ষস্থানীয় উইকেট সংগ্রাহক হন। ১৯.১৭ রান খরচায় ৬২ উইকেট পান তিনি।[৩] ২০০৮ মৌসুমের শুরুর দিকে ওয়ারউইকশায়ারের সদস্য ছিলেন। সেখানে দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক ফাস্ট বোলার অ্যালান ডোনাল্ড দলটিকে পরিচালনা করতেন। কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশীপের খেলায় ৪/৯৫ পেলেও এজবাস্টনে তেমন সফলতা পাননি। চ্যাম্পিয়নশীপের চারটি খেলায় ৪২.৩৩ গড় ৯ উইকেট এবং চারটি লিস্ট এ খেলায় ১/১৫৮ পেয়েছিলেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]