মনিকা বেদী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মনিকা বেদী
Monica Bedi at the 8th Aap Ki Awaz Media Excellence Awards.jpg
৮ম "আপ কি আওয়াজ মিডিয়া এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ড", ২০১৩-এ বেদী
জন্ম (1975-01-18) ১৮ জানুয়ারি ১৯৭৫ (বয়স ৪৭)[১]
পেশাঅভিনেত্রী
কর্মজীবন১৯৯৫-বর্তমান
ওয়েবসাইটwww.monicabedi.co.in

মনিকা বেদী (জন্ম ১৮ জানুয়ারি ১৯৭৬) একজন অভিনেত্রী এবং টেলিভিশন উপস্থাপিকা। ১৯৯০ এর দশকের মাঝামাঝি সময়ে তিনি হিন্দি ছবিতে আত্মপ্রকাশ করেছিলেন। তার উল্লেখযোগ্য সিনেমা হল প্যার ইশক অর মহব্বত ও জোড়ি নম্বর ওয়ান (দুটোই ২০০১)। তিনি বিগ বস ২ এবং স্টার প্লাসের সরস্বতীচন্দ্র এ উপস্থিত হওয়ার জন্যও পরিচিত।

প্রাথমিক এবং ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

তিনি পাঞ্জাবের হোশিয়ারপুর জেলার চবওয়াল গ্রামে জন্মগ্রহণ করেছিলেন।তার পিতা মাতা যথাক্রমে প্রেম কুমার বেদী ও শকুন্তলা বেদী। তার বাবা-মা ১৯৭৯ সালে নরওয়ের নাট্যকারে চলে এসেছিলেন। ভারতে স্নাতক শেষ করার পরে তিনি সাহিত্য পড়ার জন্য যুক্তরাজ্যের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগদান করেছিলেন। তিনি ১৯৯৫ সালে দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ে অভিনয়ের উপর পড়াশোনা সম্পন্ন করেন।২০০২ সালের সেপ্টেম্বরে জাল নথিতে পর্তুগালে প্রবেশের জন্য বেদী ও আবু সালেমকে পর্তুগালের কারাগারে সাজা দেওয়া হয়েছিল[২]। ২০০৬ সালে একটি ভারতীয় আদালত একটি বেআইনি নামে পাসপোর্ট কেনার জন্য বেদীকে দোষী ঘোষণা করেছিল[৩]। ২০১০ সালের নভেম্বরে ভারতের সুপ্রিম কোর্ট তাকে দোষী সাব্যস্ত করে ।তবে কারাগারের মেয়াদ বেঁধে দেওয়া হয় সেই সময়ের মধ্যে যা ইতি মধ্যে ভোগ করেছেন[৪]

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

মনিকা বেদী

বেদী তেলুগু ভাষার চলচ্চিত্র তাজমহল (১৯৯৫) এ তিনি প্রথম অভিনয় করেন । যা ডি রামানিদু তৈরি করেছিলেন। রামায়ণু তাঁকে শিবায়া এবং স্পিড ড্য়‌ান্সারে ও নিয়েছিলেন[৫]। ১৯৯৫ সালে সুরক্ষার মাধ্যমে তিনি বলিউডে আত্মপ্রকাশ করেছিলেন। বেদী আপাতবাস্তব টেলিভিশন অনুষ্ঠান বিগ বস সিজন ২ তে অংশ নিয়েছিলেন[৬]। তিনি প্রতিযোগী ছিলেন ঝালক দিখলা জা ৩ ও দেশি গার্লে অংশ নেন।তিনি ইউনিভার্সা‌ল মিউজিকের আধ্যাত্মিক অ্যালবামের জন্য "একওঙ্কার" মন্ত্রটি গেয়েছিলেন[৭]।বেদী হরজিৎ সিং রিকি পরিচালিত পাঞ্জাবী চলচ্চিত্র সারফায়ার (২০১২) তে অভিনয় করেছিলেন।২০১৩ সালে বেদী স্টার প্লাসের শো সরস্বতীচন্দ্রে গুমানের নেতিবাচক চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "The tale of Monica Bedi"। Times of India। ১৬ জুলাই ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৩ 
  2. "The tale of Monica Bedi - Times of India"The Times of India (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-১৯ 
  3. "Top 10 Celebrities and Their Run-ins With the Law"The New Indian Express। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-১৯ 
  4. "Fake Passport Case: SC Upholds Bedi's Conviction"web.archive.org। ২০১৪-০২-০২। Archived from the original on ২০১৪-০২-০২। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-১৯ 
  5. Sep 24, TNN | Updated:; 2002; Ist, 2:00। "Monica Bedi makes Telugu producers wary | Hyderabad News - Times of India"The Times of India (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-১৯ 
  6. "Monica Bedi bids adieu to Bigg Boss"Sify (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৯-০৬-২২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-১৯ 
  7. "Monica Bedi turns singer! - Times of India"The Times of India (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-১১-১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]