মঙ্গল গ্রহের প্রাকৃতিক উপগ্রহ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Colour image of Phobos (MRO, 23 March 2008)
Colour image of Deimos (MRO, 21 February 2009)

মঙ্গলের দুইটি উপগ্রহ আছে; ফোবোস ও ডেইমোস। দুইটি চাঁদের মধ্যে ফোবোস বৃহত্তম এবং এর কক্ষপথ মঙ্গলের নিকটতম । ফোবোস নামকরনটি করা হয়েছে গ্রীক ভয়ের(phobia) দেবতা phobos এর নামে। phobos হল ares(মঙ্গল) ও Aphrodite(বুধ) এর সন্তান।একে মঙ্গলের ভয় নামেও ডাকা হয়।ফোবোস এর অতি অল্প ভরের কারনে এটি গোলাকার আকৃতি পাওয়ার জন্য যথেষ্ট নয়, যে কারনে এই উপগ্রহটি অনিয়মিত আকৃতির। এর গড় ব্যাসার্ধ মাত্র ১১ কিলোমিটার। এটি মঙ্গলের পৃষ্ঠ থেকে মাত্র ৩৭০০ মাইল দূর থেকে লাল গ্রহকে প্রদক্ষিণ করছে। উচ্চতা হিসেবে সৌরজগতে কোন গ্রহের নিকটতম উপগ্রহ এটি। ফোবোস প্রতি ৭ ঘণ্টা ৩৯ মিনিটে একবার মঙ্গলকে প্রদক্ষিণ করে। তার মানে মঙ্গলে দিনে তিনবার পশ্চিম আকাশে ফোবোসের উদয় দেখা যায়। উল্লেখ্য মঙ্গলের দিন ২৪ ঘণ্টা ৪০ মিনিট।তবে উপগ্রহটি সৌরজগতের অন্যতম ঝাপসা বস্তুও বটে। অর্থাৎ এটি এর উপর আপতিত আলো খুব কম প্রতিফলিত করে। এর প্রতিফলের হার মাত্র ০.০৭১। সূর্যের আলো যে দিকে আপতিত হয় সেই অংশের তাপমাত্রা -৪° সেলসিয়াস এবং অপর পাশের তাপমত্রা -১১২° সেলসিয়াস। এতে বেশ কয়েকটি গভীর খাত লক্ষ্য করা গিয়েছে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]