ভের্না‌র ফন হেফটেন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ভের্না‌র ফন হেফটেন
জন্ম(১৯০৮-১০-০৯)৯ অক্টোবর ১৯০৮
বার্লিন, জার্মান সাম্রাজ্য
মৃত্যু২১ জুলাই ১৯৪৪(1944-07-21) (বয়স ৩৫)
বার্লিন, নাৎসি জার্মানি
৫২°৩০′২৮″ উত্তর ১৩°২১′৪৪″ পূর্ব / ৫২.৫০৭৮৯২° উত্তর ১৩.৩৬২১৯° পূর্ব / 52.507892; 13.36219 (Execution Site of Nazi Germany Resistance)
আনুগত্য নাৎসি জার্মানি (১৯৪৩ সাল পর্যন্ত)
জার্মান প্রতিরোধ (১৯৪৪ সাল পর্যন্ত)
সার্ভিস/শাখাভারমাক্ট
কার্যকাল১৯৩৯–১৯৪৪
পদমর্যাদালেফটেনেন্ট
যুদ্ধ/সংগ্রামদ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ
সম্পর্কওয়ালথার ফন ব্রাউকিতস (চাচা)
হেন্স বের্ন্ড‌ ফন হেফটেন (ভাই)

ভের্না‌র কার্ল ফন হেফটেন (৯ অক্টোবর ১৯০৮ – ২১ জুলাই ১৯৪৪[১]) ছিলেন জার্মান সশস্ত্র বাহিনীর একজন লেফটেনেন্টএডলফ হিটলারকে উৎখাত করার উদ্দেশ্যে সংঘটিত ২০ জুলাই পরিকল্পনায় তিনি অংশ নিয়েছিলেন।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

হেফটেন বার্লিনে জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা হেন্স ফন হেফটেন ছিলেন একজন সামরিক অফিসার এবং রাইখসআর্কাইভের প্রেসিডেন্ট। হেফটেন নিজ শহরে আইনের উপর পড়াশোনা করেছেন। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পূর্ব পর্যন্ত তিনি হামবুর্গের একটি ব্যাংকে কাজ করতেন। এরপর তিনি জার্মান সেনাবাহিনীতে যোগ দেন।

যুদ্ধকালীন কর্মকাণ্ড[সম্পাদনা]

আহত অবস্থা থেকে সুস্থ হওয়ার পর ১৯৪৩ সালে হেফটেন ক্লজ ফন স্টফেনবার্গের এডজুটেন্ট হিসেবে নিয়োগ পান। ১৯৪৪ সালের ২০ জুলাই তিনি স্টফেনবার্গ‌ের সাথে সামরিক হাই কমান্ডে যান। স্টফেনবার্গ‌ এখানে হিটলারকে হত্যার জন্য সম্মেলন কক্ষে একটি ব্রিফকেসে বোমা স্থাপন করেন। বোমা বিস্ফোরিত হওয়ার পর স্টফেনবার্গ‌ ও হেফটেন দ্রুত বার্লিনে ফিরে আসেন। হামলায় হিটলার নিহত না হলেও তারা সঠিক তথ্য জানতে পারেননি। এরপর তারা তাদের পূর্ব পরিকল্পিত অভ্যুত্থান সংঘটিত করেন। তবে দ্রুত অভ্যুত্থানের পতন হয়।

বান্ডলারব্লকে হেফটেনসহ নিহত চার পরিকল্পনাকারীর স্মরণে স্মৃতিফলক।

অভ্যুত্থান স্তিমিত হয়ে যাওয়ার পর হেফটেন, স্টফেনবার্গ‌সহ অভ্যুত্থানে জড়িত জেনারেল ফ্রেডরিক ওলব্রিক্টওবারস্ট আলব্রেক্ট মার্ত‌জ ফন কুইরনহেম গ্রেপ্তার হন। সামরিক আদালতে সংক্ষিপ্ত বিচার শেষে জেনারেল ফ্রেডরিক ফ্রম তাদের সবাইকে মৃত্যুদন্ড দেন। পরবর্তীতে জেনারেল ফ্রম সরকার কর্তৃক গ্রেপ্তার হন এবং তাকে মৃত্যুদন্ড দেয়া হয়েছিল। মধ্যরাতে উক্ত চার জড়িতকে যুদ্ধ মন্ত্রণালয়ের দপ্তর বান্ডলারব্লকের সামনে দশ সদস্য বিশিষ্ট ফায়ারিং স্কোয়াড গুলি করে তাদের মৃত্যুদন্ড কার্যকর করে।[২] স্টফেনবার্গ‌কে গুলি করার পূর্ব মুহূর্তে আনুগত্যের প্রকাশ হিসেবে হেফটেন এগিয়ে গিয়ে তার সামনে দাঁড়ান। এমতাবস্থায় স্টফেনবার্গ‌ের বদলে হেফটেনকে গুলি করা হয়।[৩]

হেফটেনের ভাই হেন্স বার্ন্ড‌ ফন হেফটেনও হিটলার বিরোধী পরিকল্পনায় জড়িত ছিলেন। ১৫ আগস্ট প্লটজেনসি কারাগারে তার মৃত্যুদন্ড কার্যকর করা হয়।

চলচ্চিত্রে প্রদর্শন[সম্পাদনা]

১৯৭১ সালের লিবারেশন:ডিরেকশন অব দ্য মেইন ব্লো চলচ্চিত্রে পূর্ব জার্মান অভিনেতা হেন্স-এডগার স্টেচার হেফটেনের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। ২০০৪ সালের স্টফেনবার্গ‌ চলচ্চিত্রে হার্ডি‌ ক্রুকার জুনিয়র হেফটেনের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। ২০০৮ সালের ভেলকুরে চলচ্চিত্রে ব্রিটিশ অভিনেতা জেমি পার্কার হেফটেনের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. (Fest, 1996) pp. 277–278 puts the date of the four executions as "after midnight" and so Werner's death was on 21 July.
  2. (Moorhouse, 2006) p. 207
  3. (Fest, 1996) p.278
  • Fest, Joachim (১৯৯৬), Plotting Hitler's Death (translation of 'Staatsstreich: Der lange Weg zum 20 Juli'), Weidenfeld & Nicolson, আইএসবিএন 0-297-81774-4 
  • Moorhouse, Roger (২০০৬), Killing Hitler, Jonathan Cape, আইএসবিএন 0-224-07121-1 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]