ভারতে মৌলিক অধিকার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Emblem of India.svg

এই নিবন্ধটি
ভারতীয় সংবিধান ধারাবাহিকের অংশ

Constitution of India.jpg
প্রস্তাবনা


ভারতের মৌলিক অধিকার ভারতের প্রকৃত গনতান্ত্রিক শাসনব্যবস্থার অন্যতম প্রধান লক্ষ্য, সবরকম অর্থনৈতিক, সামাজিক ও রাজনৈতিক বৈষম্যের অবসান ঘটানো। ভারতের সংবিধান -এর প্রস্তাবনায় সমতার আদর্শ ঘোষিত হয়েছে।প্রস্তাবনায় সমমর্যাদা ও সমান সুযোগের নীতি স্বীকৃতি পেয়েছে। এই অধিকার অনুযায়ী ভারতীয় ভূখন্ডের মধ্যে কোন ব্যক্তিকে আইনের দৃষ্টিতে সমতা অথবা আইনের দ্বারা সমানভাবে সংরক্ষিত হবার অধিকার অস্বীকার করবে না।

নাগরিক ও রাজনৈতিক অধিকার ভোগে সর্বজনের সুযোগ থাকবে ।

ভারতের সংবিধানে তৃতীয় অধ্যায়ের ১২ নং থেকে ৩৫ নং অনুচ্ছেদের  মধ্যে মৌলিক অধিকার লিপিবদ্ধ রয়েছে .ভারতের মৌলিক অধিকার মোট ৬টি (১৯৭৮ সালে ৪৪ তম সংবিধান সংশোধন  এর মাধ্যমে সম্পত্তির অধিকার সংবিধানের মৌলিক অধিকারের অংশ থেকে  বাদ দেওয়া হয়েছে )

সংবিধানের মৌলিক অধিকার গুলি হলো :

১) আইনের চোখে সমতা-র অধিকার (১৪ নং থেকে ১৮ নং অনুচ্ছেদ)

২)স্বাধীনতার অধিকার (১৯ নং থেকে ২২ নং অনুচ্ছেদ)

৩)শোষণের বিরুদ্ধে অধিকার  (২৩ নং ও ২৪ নং অনুচ্ছেদ)

৪)ধর্মীয় স্বাধীনতার অধিকার  (২৫ নং থেকে ২৮ নং অনুচ্ছেদ)

৫)সংস্কৃতি ও শিক্ষা-বিষয়ক অধিকার  (২৯ নং ও ৩০ নং অনুচ্ছেদ)

৬)সংবিধানের প্রতিবিধানের অধিকার  (৩২ নং  অনুচ্ছেদ ও ২২৬নং অনুচ্ছেদ)