ভাইবার্ট উইট

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ভাইবার্ট উইট
ভাইবার্ট উইট.jpg
১৯২৮ সালের সংগৃহীত স্থিরচিত্রে ভাইবার্ট উইট
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামক্লদ ভাইবার্ট উইট
জন্ম(১৯০২-০৭-২৮)২৮ জুলাই ১৯০২
জর্জটাউন, ব্রিটিশ গায়ানা
মৃত্যু৪ অক্টোবর ১৯৬৯(1969-10-04) (বয়স ৬৭)
জর্জটাউন, গায়ানা
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি (অজানা)
সম্পর্কলেসলি উইট (ভাইপো)
পিটার উইট (কাকাতো ভাই)
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক১১ আগস্ট ১৯২৮ বনাম ইংল্যান্ড
শেষ টেস্ট২১ ফেব্রুয়ারি ১৯৩০ বনাম ইংল্যান্ড
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
১৯২৫–১৯৩৮ব্রিটিশ গায়ানা
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ৪০
রানের সংখ্যা ৬৭ ১,৫৪৭
ব্যাটিং গড় ২২.৩৩ ৩০.৯৪
১০০/৫০ ০/০ ৩/৩
সর্বোচ্চ রান ২৩ ১৩০
বল করেছে ৩০ ৩৪২
উইকেট
বোলিং গড় ৬৯.৬৬
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ০/৬ ১/১৮
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ০/– ২০/–
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ২১ মে ২০১৯

ক্লদ ভাইবার্ট উইট (ইংরেজি: Vibart Wight; জন্ম: ২৮ জুলাই, ১৯০২ - মৃত্যু: ৪ অক্টোবর, ১৯৬৯) ব্রিটিশ গায়ানার জর্জটাউনে জন্মগ্রহণকারী প্রথিতযশা ওয়েস্ট ইন্ডিয়ান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ছিলেন।[১][২][৩] ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন। ১৯২৮ থেকে ১৯৩০ সময়কালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছিলেন। ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ওয়েস্ট ইন্ডিয়ান ক্রিকেটে গায়ানা দলের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলতেন। এছাড়াও ডানহাতে বোলিং করতেন ভাইবার্ট উইট

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

১৯২৫ সালে ব্রিটিশ গায়ানার জর্জটাউনে জন্মগ্রহণকারী ভাইবার্ট উইটের প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে। মাঝারিসারির কার্যকরী ব্যাটিংয়ের পারদর্শিতা দেখিয়েছেন। এছাড়াও মাঝে-মধ্যে বোলার হিসেবে নিজেকে আবির্ভূত করতেন।

ফেব্রুয়ারি, ১৯২৬ সালে সফরকারী এমসিসি দলের বিপক্ষে ব্রিটিশ গায়ানার সদস্যরূপে অংশগ্রহণ করেন। এর কিছুদিন বাদেই তৎকালের টেস্টবিহীন ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের পক্ষে খেলেন। সফরকারী একই প্রতিপক্ষীয় দলের বিপক্ষে খেলার সুযোগ লাভ করেন। তন্মধ্যে দ্বিতীয় খেলায় ৯০ রানের ইনিংস খেলেছিলেন। এ পর্যায়ে স্নাফি ব্রাউনের সাথে সপ্তম উইকেট জুটিতে ১৭৩ রান তুলেছিলেন তিনি।

সকল প্রথম-শ্রেণীর খেলায় অংশ নিয়ে ৩০.৯৪ গড়ে ১৫৪৭ রান তুলেন। তন্মধ্যে, তিনটি শতরানের ইনিংস ছিল তার। জানুয়ারি, ১৯২৮ সালে বার্বাডোসের ব্রিজটাউনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বাদ-বাকী একাদশের সদস্যরূপে ব্রিটিশ জন্ম দলের অপরাজিত ১১৯, সেপ্টেম্বর, ১৯৩৪ সালে বোর্দায় ব্রিটিশ গায়ানার সদস্যরূপে বার্বাডোসের বিপক্ষে ১৩০ ও ৭৬ রান এবং অক্টোবর, ১৯৩৭ সালে আবারও বোর্দায় ব্রিটিশ গায়ানার সদস্যরূপে ত্রিনিদাদ ও টোবাগোর বিপক্ষে ১২৭ রান তুলে হিট উইকেটের শিকারে পরিণত হন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

১৯২০-এর দশক থেকে ১৯৩০-এর দশক পর্যন্ত মোটে দুইটি টেস্টে অংশগ্রহণ ছিল ভাইবার্ট উইটের। ১১ আগস্ট, ১৯২৮ তারিখে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার।

অধিনায়কত্বের কোনরূপ অভিজ্ঞতার ছাঁপ না থাকা সত্ত্বেও ১৯২৮ সালে ইংল্যান্ড গমনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সহঃঅধিনায়কের দায়িত্বপ্রাপ্ত হন। ব্যক্তিগতভাবে এ সফরটি তেমন ভালো হয়নি তার। মাত্র ২০.১৭ গড়ে ৩৪৩ রান তুলেছিলেন। তবে, ওভালে সিরিজের তৃতীয় টেস্টে অভিষেক খেলায় তিনি ২৩ ও অপরাজিত ১২ রানের ইনিংস খেলেছিলেন।

নিজ শহর ব্রিটিশ গায়ানার বোর্দায় ফেব্রুয়ারি, ১৯৩০ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয় খেলায় অপর টেস্টটি খেলেছিলেন তিনি। দূর্ভাগ্যজনকভাবে দলের বিজয়ে তিনি মাত্র ১০ ও ২২ রান তুলেছিলেন।

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

১৯৬৯ সালে জর্জটাউনের কিংস্টনে ভাইবার্ট উইটের দেহাবসান ঘটে। মৃত্যুর বিষয়টি রেকর্ডবিহীন অবস্থায় ছিল ও ঐ সময়ে উইজডেনে উল্লেখ করা হয়নি।

ভাইবার্ট উইটের ভাইপো লেসলি উইট ওয়েস্ট ইন্ডিজের পক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন। অন্যদিকে তার অন্য আট আত্মীয় প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে অথবা গুরুত্বপূর্ণ খেলায় অংশ নিয়েছেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. List of West Indies Test Cricketers
  2. "West Indies – Test Batting Averages"। ESPNCricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জুলাই ২০১৬ 
  3. "West Indies – Test Bowling Averages"। ESPNCricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জুলাই ২০১৬ 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

আরও পড়ুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]