বেইব্লেড

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Jump to navigation Jump to search
বেইব্লেড
বেইব্লেডের লোগো.png
বেইব্লেডের প্রথম ধারার লোগো
爆転シュートベイブレード
(বাকুতেন্ শুউত বেইবুরে-দ)
ধরন বৈজ্ঞানিক কল্পকাহিনি, কমেডি-নাট্য, ক্রীড়া
মাঙ্গা
লেখক তোকাও আওকি
প্রকাশক শোগাকুকান
ইংরেজি প্রকাশক
জনতাত্ত্বিক শোনেন
পত্রিকা করোকরো কমিক
আসল চলিত জানুয়ারি, ১৯৯৯ডিসেম্বর, ২০০৩
খন্ড ১৪
আনিমে
পরিচালক তোশিফুমি কাওয়াসে
প্রয়োজক মাসাও মারুয়ামা
জি-ইয়ং কিম
এউন-মি লী
লেখক কাযুহিকো সোমা
তাৎসুহিকো উরাহাতা
সঙ্গীত ইয়োশিহিসা হিরানো
চিত্রশালা ম্যাডহাউস
অনুমতিপ্রাপ্ত
মুক্তিপ্রাপ্ত ৮ জানুয়ারি ২০০১ডিসেম্বর ২৪, ২০০১
পর্ব ৫১ (পর্ব এর তালিকা)
আনিমে
বেইব্লেড ভি-ফোর্স
পরিচালক ইয়োশিও তাকেউচি
প্রয়োজক শিন'ইচি ইকেদা
সুসুমু মাৎসুয়ামা
কানেহিদে সাই
এউন-মি লী
লেখক ইয়োশিমু ফুকুশিমা
সঙ্গীত হিরোয়ুকি হায়াসে
চিত্রশালা নিহোন অ্যানিমিডিয়া
অনুমতিপ্রাপ্ত
মুক্তিপ্রাপ্ত জানুয়ারি ৭, ২০০২ডিসেম্বর ৩০, ২০০২
পর্ব ৫১ (পর্ব এর তালিকা)
আনিমে
বেইব্লেড: ফায়ার্স ব্যাটল
পরিচালক তাকুও সুযুকি
প্রয়োজক হিরোয়া নিশিমুরা
তাকাও মুরাকামি
লেখক ইয়োশিফুমি ফুকুশিমা
সঙ্গীত হিরুয়ুকি হায়াসে
চিত্রশালা নাহেন অ্যানিমিডিয়া
মুক্তিপ্রাপ্ত অগাস্ট ১৭, ২০০২
আনিমে
বেইব্লেড জি-রিভোল্যুশন
পরিচালক মিৎসুও হাশিমোতো
প্রয়োজক শিন'ইচি ইকেদা
সুসুমু মাৎসুয়ামা
মামিকো আওকি
শুনজু আওকি
লেখক জিরো তাকায়ামা
সঙ্গীত ইয়াসুহারু তাকানাশি
চিত্রশালা নিহোন অ্যানিমিডিয়া
অনুমতিপ্রাপ্ত
মুক্তিপ্রাপ্ত জানুয়ারি ৬, ২০০৩ডিসেম্বর ২৯, ২০০৩
পর্ব ৫২ (পর্ব এর তালিকা)
Related manga
Related anime
প্রবেশদ্বার আইকন আনিমে এবং মাঙ্গা প্রবেশদ্বার
বেইব্লেড টুর্নামেন্ট এর দৃশ্য। যেটিতে একটি লাটিম আরেকটি লাটিম কে আঘাত করছে।

বেইব্লেড জাপানে 爆転シュートベイブレード বাকুতেন্ শুউত বেইবুরে-দ, নামে পরিচিত। এটা জাপানের জনপ্রিয় মাঙ্গা। এটা লিখেছেন তাকাও আওকি। এটা আসল কোরোকোরো কমিকে জানুয়ারি ২০০০ সালে যাত্রা শুরু করে এবং ২০০৩ সালে ডিসেম্বরে যাত্রা শেষ করে। এবং এটা পরিবেশনা করেছিল সোগাকুকান। এই সময় বেইব্লেডের ১৪টি অধ্যায় পরিবেশনা করা হয়েছিল। এই সিরিজে ঘূর্ণায়ন লাটিমকে বেইব্লেড বলা হয়।এই সিরিজে কিছু যুবক বালকদের মধ্যে লাটিম নিয়ে যুদ্ধ হয়।

মাঙ্গা উত্তর আমেরিকায় ইংরেজিতে মুক্তির জন্য ভিজ মিডিয়া দ্বারা লাইসেন্স তৈরী করে। এটা আনিমে অবলম্বনে বেইব্লেড নামে জাপানের টোকিও তে জানুয়ারী ৮ ২০০১ সালোমে মুক্তি পায়। যেটিতে এর মোট পর্বের সংখ্যা ছিল ৫১টি। এটা যাত্রা শেষ করে ২৪ ডিসেম্বর ২০০১ এ।

কাহিনীসংক্ষেপ[সম্পাদনা]

একজন যুবক বালক নাম টাইসন জাপানে প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহন করতে আসে। যে প্রতিডোগীতায় সকলকে হারানোর পর অনেকই তার বন্ধু হলো। সে তার বন্ধুদের কাছে বেল্ড ব্রেকারস্ নামেও পরিচিত। কেনি ট্যাগস তাদের সাহায্যকারী। তারা জাপান থেকে চাইনাতে গিঢেছিলো প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহন করতে। তারা টাইগার দলের সামনে মুখোমুখি হলো।চাইনার প্রতিযোগীতা শেষ হয়ে গেল।

তারপর তারা চাইনা থেকে আমেরিকা পারি জমাল আরকে প্রতিযোগীতায় আংশ নিতে। তারা আমিরাকায় যখন প্রতিযোগীতায় জয়ী হলো তখন তার ইউরোপে গেলো।সে ইউরোপে তার বন্ধুদের সাথে দেখা করতে গেলো।

বেল্ড বেকারাস্ সব প্রতিযোগীতায় জয়ী হবার পর সে তাদের প্রধান হিসেবে নিযুক্ত হলো। তারটর সে রাশিয়া গেলে সর্বশেষ প্রতিযোগীতায় অংশ নিতে। রাশিয়ায় তারা বরিস এর দলের সামনে মুখোমুখি হলো। কাই প্রায় ভুলেই গিয়েছিলো সে তাদের সাথে বে বেল্ড অনুশীলন করত।যাই হোক সে তাড়াতাড়িই উপলব্ধি করতে পারল। পরে তারা বঝতে পারল বন্ধুত্বের শক্তিই বড় শক্তি।

মাঙ্গা[সম্পাদনা]

মাধ্যম[সম্পাদনা]

ইংরেজি সংস্করণ[সম্পাদনা]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]