বুদ্ধদেব দাশগুপ্ত

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বুদ্ধদেব দাশগুপ্ত
জন্ম১১ ফেব্রুয়ারী১৯৪৪
জাতিসত্তাবাঙালি
নাগরিকত্বভারত ভারতীয়
যে জন্য পরিচিতকবি ও চলচ্চিত্র নির্মাতা

বুদ্ধদেব দাশগুপ্ত (জন্ম: ১৯৪৪ বয়স ৭৫) একজন ভারতীয় কবি এবং বিখ্যাত চলচ্চিত্র নির্মাতা। তার নির্মিত চলচ্চিত্রগুলোতেও কবিতার ছোঁয়া বিদ্যমান ছিল।তার বিখ্যাত কয়েকটি ছবি হল বাঘ বাহাদুর, তাহাদের কথা,চারাচার ও উত্তরা। শ্রেষ্ঠ পাঁচটি চলচ্চিত্র বাঘ বাহাদুর (১৯৮৯)চারাচার (১৯৯৩), লাল দরজা (১৯৯৭), মন্দ মেয়ের উপাখ্য়‌ান (২০০২) , কালপুরুষ (২০০৮), দৌরাতওয়া (১৯৭৮)এর জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার, এবং তাহাদের কথা (১৯৯৩) বাংলাতে শ্রেষ্ঠ ফিচার ফিল্মের জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জিতেছেন। পরিচালক হিসেবে তিনি উত্তরা (২০০০) এবং স্বপনের দিন (২০০৫) এর জন্য দুইবার সেরা নির্দেশনার জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জিতেছেন। বছরের পর বছর ধরে তিনি গভীর আরালে, কফিন কিম্বা সুটকেস, হিমজগ, ছাতা কাহিনি, রোবটের গান, শ্রেষ্ঠ কবিতা, ভোম্বোলের আশ্চর্য কাহিনি ও অন্যান্য কবিতা সহ কবিতার বিভিন্ন রচনা প্রকাশ করেছেন[১]

জন্ম ও শিক্ষাজীবন[সম্পাদনা]

তিনি ১৯৪৪ সালে পশ্চিমবঙ্গের দক্ষিণ পুরুলিয়ার নিকটবর্তী আনারাতে একটি বৈদিক পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন, এবং নয় জন ভাইবোন ছিলেন। তার বাবা তারকান্ত দাশগুপ্ত ভারতীয় রেলওয়ের একজন ডাক্তার ছিলেন, এইভাবে তিনি শৈশবের প্রথম অংশ অতিবাহিত করেছিলেন। বারো বছর বয়সে তিনি হাওড়া দিনাবন্ধু স্কুলে পড়াশোনা করার জন্য কলকাতায় যান।[২] স্বাধীনতার পর তাঁর পিতা প্রথমে পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার খড়গপুর এবং মানেন্দ্রগড় (এখন ছত্তিশগড়ে) বদলি হন । [২]

তিনি সম্মানিত স্কটিশ চার্চ কলেজ এবং কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে অর্থনীতি অধ্যয়ন করেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

বুদ্ধদেব অর্থনীতির অধ্যাপক হিসেবে তাঁর কর্মজীবন শুরু করেন, বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের শ্যামসুন্দর কলেজে এবং কলকাতার সিটি কলেজের পাশে। ১৯৭৬ সালে যখন তিনি এই ফাঁক থেকে বিচ্ছিন্ন হয়েছিলেন তখন তিনি অর্থনৈতিক তত্ত্ব ও সামাজিক-রাজনৈতিক বাস্তবতার মধ্য দিয়ে উপলব্ধি করেছিলেন, যা তিনি চলচ্চিত্র নির্মাণের জন্য গ্রহণ করেছিলেন। [১] এদিকে, কলকাতা ফিল্ম সোসাইটির সঙ্গে তাঁর সদস্যপদ, যেখানে তিনি প্রথম তার কাকার সাথে সিনিয়র হাই স্কুলে থাকা অবস্থা‌য় যাচ্ছিলেন,তা তাকে চার্লি চ্যাপলিন, ইঙ্গমার বার্গম্যান, আকিরা কুরোসাওয়া, ভিত্তরিও দে সিকা, রবার্টো রোসেলিনি এবং মাইকেল এনজেলো আন্তোনিওনির মত পরিচালকের কাজের সাথে পরিচয় করিয়েছিল। । যা পরবর্তীতে, তাকে অভিব্যক্তির একটি পদ্ধতি হিসাবে ফিল্ম তৈরি করতে অনুপ্রাণিত করে। [২] তিনি ১৯৬৮ সালে ১০ মিনিটের একটি ডকুমেন্টারি দ্য় কন্তিনেন্ত অব লাভ দিয়ে চলচ্চিত্র ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন,অবশেষে তিনি ১৯৭৮ সালে তার প্রথম সম্পূর্ণ দৈর্ঘ্যের ফিচার ফিল্ম, দোরাতওয়া (দূরত্ব) তৈরি করেছিলেন।

তাঁর গীতসংহিতাও চলচ্চিত্রের সাথে বর্ধিত হয়। তাঁর চলচ্চিত্রের কর্মজীবনের প্রাথমিক পর্যায়ে, দাশগুপ্ত সত্যজিৎ রায়ের বাস্তবসম্মত চলচ্চিত্রগুলির দ্বারা অনুপ্রাণিত চলচ্চিত্রগুলি তৈরি করেছিলেন এবং পরবর্তীতে অন্যান্য রূপে অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন। বাঘ বাহাদুর, তাহাদের কঠা, চারচার ও উত্তরা হল তাঁর বেশিরভাগ প্রশংসিত চলচ্চিত্র।

চলচ্চিত্রপঞ্জি[সম্পাদনা]

ফিচার ফিল্ম[সম্পাদনা]

তথ্যচিত্র ও টিভিকর্ম[সম্পাদনা]

  • দ্য় কন্তিনেন্ত অব লাভ (১৯৬৮)
  • ধোলার রাজা খিরোড নত্ত (১৯৭৩)
  • ফিশারম্যান অব সুন্দরবন (১৯৭৪)
  • সারাচন্দ্র (১৯৭৫)
  • রিদম অব ষ্টিল(১৯৮১)
  • ইন্ডিয়ান সায়েন্স মার্চে অ্যাহেড (১৯৮৪)
  • বিজ্ঞান ও তার আবিস্কার (১৯৮০)
  • গ্লাস স্টোরি (১৯৮৫)
  • ভারত অন দ্য মুভ (১৯৮৫)
  • সিরামিকস (১৯৮৬)
  • আরণ্যক (১৯৯৬)
  • কন টেম্পোরারি ইন্ডিয়ান স্ক্‌লাপচার (১৯৮৭)
  • হিস্ট্রি অব ইন্ডিয়ান জুট(১৯৯০)

পুরস্কার ও সম্মাননা[সম্পাদনা]

  • ২০০৮ সালের ২৭ মে স্পেনের মাদ্রিদ আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে বুদ্ধদেব দাশগুপ্তকে জীবনকালের কৃতিত্বের সম্মাননা প্রদান করা হয়। [১]
  • ২০০৭ সালে এথেন্স আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে গোল্ডেন এথেনা পুরস্কার
  • জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার
    • সেরা চলচ্চিত্র
      • ১৯৮৯: বাঘ বাহাদুর
      • ১৯৯৩: চারাচার
      • ১৯৯৭: লাল দরজা
      • ২০০২: মন্দ মেয়ের উপাখ্য়‌ান
      • ২০০৮: কালপুরুষ
    • সেরা নির্দেশনা
      • ২০০০: উত্তরা
      • ২০০৫: স্ব‌প্‌নের দিন
    • সেরা চিত্রনাট্য
      • ১৯৮৭: ফেরা
    • বাংলাতে সেরা ফিচার ফিল্ম
      • ১৯৭৮: দোরাতওয়া
      • ১৯৮৭: ফেরা
      • ১৯৯৩: তাহের কথা
    • শ্রেষ্ঠ আর্টস / সাংস্কৃতিক ফিল্ম
      • ১৯৯৮: এল পেইন্টার অফ ইলোকেন্ট সাইলেন্স: গণেশ পাইন
  • ভেনিস ফিল্ম ফেস্টিভাল
    • ১৯৮২: এফআইপিআরএসসিআই পুরস্কার: গৃহযুদ্ধ
    • ২০০০: শ্রেষ্ঠ পরিচালক জন্য সিলভার লায়ন: উত্তরা
    • ১৯৮২: গোল্ডেন লায়ন মনোনয়ন: গৃহযুদ্ধ
    • ২০০০: গোল্ডেন লায়ন মনোনয়ন: উত্তরা
  • বার্লিন আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব
    • ১৯৮৮: গোল্ডেন বিয়ার মনোনয়ন: ফেরা[৫]
    • ১৯৯৪: গোল্ডেন বিয়ার মনোনয়ন: চারাচার [৬]
  • লোকার্নো ফিল্ম ফেস্টিভাল
    • সমালোচকদের পুরস্কার: দোরাতওয়া
    • বিশেষ জুরি পুরস্কার: নিম অন্নপূর্ণা
  • এশিয়া প্যাসিফিক চলচ্চিত্র উৎসব
    • সেরা চলচ্চিত্র: জানালা
  • কার্লোভি ভারি ফিল্ম ফেস্টিভাল
    • বিশেষ জুরি পুরস্কার: নিম অন্নপূর্ণা
  • দামাস্কাস আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব
    • গোল্ডেন প্রাইজ: নিম অন্নপূর্ণা
    • ব্যাংকক আন্তর্জাতিক ফিল্ম ফেস্টিভাল
      • সেরা এশিয়ান ফিল্ম অ্যাওয়ার্ড (২০০৩): মন্দ মেয়ের উপাখ্য়‌ান

পরিবার[সম্পাদনা]

তাঁর বড় কন্যা, অলকানন্দ দাশগুপ্ত, একজন প্রশিক্ষিত শাস্ত্রীয় পিয়ানোবাদী, তাঁর ২০১৩ সালের চলচ্চিত্র, আনোয়ার কা আজিব কিসসার জন্য পটভূমি স্কোর রচনা করেছিলেন।

আরও পড়ার জন্য[সম্পাদনা]

  • বুদ্ধদেব দাশগুপ্ত: ছাপাপন্থী প্রিন্স বিশ্বাসের চিত্র। অররা ফিল্ম চলচ্চিত্র, ১৯৯৯
  • বুদ্ধদেব দাশগুপ্তের চলচ্চিত্র, জন ড ওরিয়েন্ট ব্ল্যাকসোয়ান, ২০০৫। আইএসবি 81-250-2802-1।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "The Tribune - Magazine section - Saturday Extra"www.tribuneindia.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০২-২৬ 
  2. Hood, John W. (২০০৫)। Films of Buddhadeb Dasgupta (ইংরেজি ভাষায়)। Orient Blackswan। আইএসবিএন 9788125028024 
  3. Filmography The New York Times.
  4. "Sniffer (Anwar Ka Ajab Kissa) | Film | The Guardian"www.theguardian.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০২-২৬ 
  5. "Programme 1988"www.berlinale.de (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০২-২৬ 
  6. "Programme 1994"www.berlinale.de (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০২-২৬