বিষয়বস্তুতে চলুন

রামমোহন রায়: সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

2401:4900:104F:872C:0:71:1F65:C401-এর সম্পাদিত সংস্করণ হতে বাক্যবাগীশ-এর সম্পাদিত সর্বশেষ সংস্করণে ফেরত
(→‎রামমোহন রায়: কিছু তথ্য যোগ করা হয়েছে)
ট্যাগ: পুনর্বহালকৃত মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল অ্যাপ সম্পাদনা অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ সম্পাদনা
(2401:4900:104F:872C:0:71:1F65:C401-এর সম্পাদিত সংস্করণ হতে বাক্যবাগীশ-এর সম্পাদিত সর্বশেষ সংস্করণে ফেরত)
ট্যাগ: পুনর্বহাল
|signature= [[File:Ram Mohan Roy Signature.svg|150px]]
|footnotes=
}}
}}রাম মোহন রায় এক জন বিরল প্রতিভাধর মানুষ যাকে আমরা সচরাচর '''রাজা রামমোহন রায়''' বলে চিনি, তাকে তাঁর এই "রাজা"উপাধি টা মোগল সম্রাট দ্বিতীয় আকবর দিয়েছিলেন। ([[২২ মে]], [[১৭৭২]] – [[সেপ্টেম্বর ২৭]], [[১৮৩৩]]) [[বাংলার নবজাগরণ|বাংলার নবজাগরণের]] আদি পুরুষ। তিনি প্রথম [[ভারত|ভারতীয়]] যিনি ধর্মীয়-সামাজিক পুনর্গঠন আন্দোলন [[ব্রাহ্মসমাজ]] প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.indiatoday.in/education-today/gk-current-affairs/story/remembering-raja-ram-mohan-roy-brahmo-samaj-founder-and-india-s-first-feminist-1238517-2018-05-22|শিরোনাম=Remembering Raja Ram Mohan Roy, Brahmo Samaj founder and India's first feminist|শেষাংশ=May 22|প্রথমাংশ=India Today Web Desk New|শেষাংশ২=September 27|প্রথমাংশ২=2018|ওয়েবসাইট=India Today|ভাষা=en|সংগ্রহের-তারিখ=2021-08-29|শেষাংশ৩=Ist|প্রথমাংশ৩=2018 11:37}}</ref><ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.telegraphindia.com/opinion/rammohun-roy-the-radical-raja/cid/1823020|শিরোনাম=The radical Raja|শেষাংশ=Chanda|প্রথমাংশ=Sukalyan|তারিখ=2019-07-21|ওয়েবসাইট=www.telegraphindia.com|সংগ্রহের-তারিখ=2021-08-29}}</ref> তিনি একজন [[বাঙালি]] [[দার্শনিক]]। তৎকালীন [[রাজনীতি]], [[জনপ্রশাসন]], [[ধর্ম]] এবং [[শিক্ষা]] ক্ষেত্রে তিনি উল্লেখযোগ্য প্রভাব রাখতে পেরেছিলেন। তিনি সবচেয়ে বেশি বিখ্যাত হয়েছেন [[সতীদাহ]] প্রথা বিলুপ্ত করার প্রচেষ্টার জন্য। ভারতে দীর্ঘ কাল যাবৎ [[বৈষ্ণব]] [[বিধবা]] [[নারী]]দের [[স্বামী]]র চিতায় [[সহমরণ]] যেতে বা আত্মাহুতি দিতে বাধ্য করা হত।
 
}}রাম মোহন'''রামমোহন রায়''', এক জন বিরল প্রতিভাধর মানুষ যাকে আমরাযিনি সচরাচর '''রাজা রামমোহন রায়''' বলে চিনিঅভিহিত, তাকে তাঁর এই "রাজা"উপাধি টা মোগল সম্রাট দ্বিতীয় আকবর দিয়েছিলেন। ([[২২ মে]], [[১৭৭২]] – [[সেপ্টেম্বর ২৭]], [[১৮৩৩]]) [[বাংলার নবজাগরণ|বাংলার নবজাগরণের]] আদি পুরুষ। তিনি প্রথম [[ভারত|ভারতীয়]] যিনি ধর্মীয়-সামাজিক পুনর্গঠন আন্দোলন [[ব্রাহ্মসমাজ]] প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.indiatoday.in/education-today/gk-current-affairs/story/remembering-raja-ram-mohan-roy-brahmo-samaj-founder-and-india-s-first-feminist-1238517-2018-05-22|শিরোনাম=Remembering Raja Ram Mohan Roy, Brahmo Samaj founder and India's first feminist|শেষাংশ=May 22|প্রথমাংশ=India Today Web Desk New|শেষাংশ২=September 27|প্রথমাংশ২=2018|ওয়েবসাইট=India Today|ভাষা=en|সংগ্রহের-তারিখ=2021-08-29|শেষাংশ৩=Ist|প্রথমাংশ৩=2018 11:37}}</ref><ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.telegraphindia.com/opinion/rammohun-roy-the-radical-raja/cid/1823020|শিরোনাম=The radical Raja|শেষাংশ=Chanda|প্রথমাংশ=Sukalyan|তারিখ=2019-07-21|ওয়েবসাইট=www.telegraphindia.com|সংগ্রহের-তারিখ=2021-08-29}}</ref> তিনি একজন [[বাঙালি]] [[দার্শনিক]]। তৎকালীন [[রাজনীতি]], [[জনপ্রশাসন]], [[ধর্ম]] এবং [[শিক্ষা]] ক্ষেত্রে তিনি উল্লেখযোগ্য প্রভাব রাখতে পেরেছিলেন। তিনি সবচেয়ে বেশি বিখ্যাত হয়েছেন [[সতীদাহ]] প্রথা বিলুপ্ত করার প্রচেষ্টার জন্য। ভারতে দীর্ঘ কাল যাবৎ [[বৈষ্ণব]] [[বিধবা]] [[নারী]]দের [[স্বামী]]র চিতায় [[সহমরণ]] যেতে বা আত্মাহুতি দিতে বাধ্য করা হত।
 
রামমোহন রায় কলকাতায় [[২০ আগস্ট]], [[১৮২৮]] সালে [[ইংল্যান্ড]] যাত্রার আগে [[দ্বারকানাথ ঠাকুর|দ্বারকানাথ ঠাকুরে]] সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে [[ব্রাহ্মসমাজ]] স্থাপন করেন। পরবর্তীকালে এই ব্রাহ্মসমাজ এক [[সামাজিক আন্দোলন|সামাজিক ও ধর্মীয় আন্দোলন]] এবং বাংলার পুনর্জাগরণের পুরোধা হিসাবে কাজ করে।