বিষয়বস্তুতে ঝাঁপ দিন

"ইব্রাহিমীয় ধর্ম" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

নাই
(নেই)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা দৃশ্যমান সম্পাদনা
(নাই)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা দৃশ্যমান সম্পাদনা
'''ইসলাম ''' অর্থ আত্মসমর্পণ করা। যিনি নিজের ইচ্ছাকে স্রষ্টার কাছে আত্মসমর্পণ করে দেন এবং নিজের ইচ্ছায় জীবন পরিচালিত না করে স্রষ্টার দেয়া বিধি-নিষেধ মেনে চলেন তিনিই [[ইসলাম]] ধর্মের অনুসারী। আর ইসলামের অনুসারীদেরকে আরবীতে বলা হয় [[মুসলিম]]।
 
পৃথিবীর প্রথম মানব [[আদম|হযরত আদম (আঃ)]] হতেই ইসলাম ধর্মের শুরু। হযরত আদম (এডাম) ইসলামের প্রথম [[নবী]] । আল্লাহ মানবজাতিকে পথপ্রদর্শনের জন্য যুগে যুগে অসংখ্য [[নবী]] ও [[রাসূল]] (বার্তাবাহক) প্রেরণ করেছেন। আর ইসলামী ইতিহাসবেত্তাদের মতানুযায়ী এসব বার্তাবাহকের সংখ্যা প্রায় এক লক্ষ চব্বিশ হাজার।
 
এরই ধারাবাহিকতায় ৫৭০ খ্রিষ্টাব্দে জন্ম নেয়া এই ধর্মের সর্বশেষ ও চূড়ান্ত নবী হলেন [[মুহাম্মাদ|হযরত মুহাম্মদ (সঃসা:)]]।
 
ইসলাম ধর্মের মূল বিশ্বাস হলো: আল্লাহ'র কোনো অংশীদার নেই এবং মুহাম্মদ (সা:) হলেন আল্লাহর বান্দা ও একজন [[রাসূল]]। এই ধর্মের মূল ধর্মগ্রন্থ হলো [[কুরআন]], আর কুরআনে আল্লাহ মানবজাতির চলার পথকে সংক্ষেপে ব্যক্ত করেছেন। আর তাই কুরআন হলো পৃথিবীর বুকে সবচেয়ে অনুবাদ অযোগ্য বই। তাই এই কুরআনের ব্যাখ্যায় দ্বারস্থ হতে হয় সহীহ বা যাচাইকৃত [[হাদিস]] সংকলনসমূহের উপর।
এই ধর্মের উল্লেখযোগ্য দিক হলো পবিত্র কুরআনে মানবজীবনের সমস্ত দিকনির্দেশনা দেয়া হয়েছে। পারিবারিক, রাজনৈতিক, সামাজিক ও অর্থনৈতিক জীবন থেকে শুরু করে সমস্ত সমস্যার সমাধান দেয়া হয়েছে এই গ্রন্থে এবং পরবর্তীতে উদ্ভূত সমস্যা সমাধানের মানদন্ডও দিয়ে দেয়া হয়েছে এই ধর্মে।ইসলাম ধর্মের প্রবর্তক হজরত মুহাম্মদ (সঃসা:)। ইসলাম ধর্ম হচ্ছে শান্তির ধর্ম। ইসলাম ধর্মের অনুসারীদের মুসলমান বলা হয়। মুসলমানদের ধর্মীয় অনুষ্ঠান সাধারণত দুইটি।
 
==== বাহাই ধর্ম ====
বেনামী ব্যবহারকারী