বিষয়বস্তুতে চলুন

"স্থিতিস্থাপকতা (পদার্থবিজ্ঞান)" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

→‎পূর্ণ দৃঢ় বস্তু: বিষয়বস্তু যোগ করে
(→‎অবসিত স্থিতিস্থাপকতা (Elastic Fatigue): বিষয়বস্তু যোগ করে)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
(→‎পূর্ণ দৃঢ় বস্তু: বিষয়বস্তু যোগ করে)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
===পূর্ণ দৃঢ় বস্তু ===
বল প্রয়োগ করেও যদি কোন বস্তুকে বিকৃত করা না যায়, তবে তাকে পূর্ণ দৃঢ় বস্তু বলে। পূর্ণ দৃঢ় বস্তু বাস্তবে পাওয়া যায় না। বস্তু যত শক্তই হোক না কেন প্রযুক্ত বলের পরিমাণ বৃদ্ধির কারণে কোন এক পর্যায়ে বস্তুর বিকৃতি ঘটে।
ধরি কোনো বস্তুর পীড়ন,x
বস্তুটির বিকৃতি, y
 
যেহেতু হুকের সূত্রমতে,
(পীড়ন/বিকৃতি)= স্থিতিস্থাপক গুনাঙ্ক
 
আর পূর্ণদৃঢ় বস্তুর বিকৃতির মান 0 বলে
y=0
 
সুতরাং, স্থিতিস্থাপক গুনাঙ্ক = (x/0)
= অসীম
প্রকৃতপক্ষে পূর্ণদৃঢ় বস্তু পাওয়া যায় না।
 
======'''স্থিতিস্থাপক ক্লান্তি'''======
কোনো বস্তু বা তারের ওপর ক্রমাগত পীড়নের হ্রাস-বৃদ্ধি করলে স্থিতিস্থাপক ধর্ম হ্রাস পায়। এর ফলে বল অপসারণের সাথে সাথে বস্তু আগের অবস্থা ফিরে পায় না,কিছুটা দেরী হয়।বস্তুর এই অবস্থাকে স্থিতিস্থাপক ক্লান্তি বলে।
৬টি

সম্পাদনা