বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ হল বাংলাদেশের একটি ধর্মীয় রাজনৈতিক দল, যা বর্তমান ক্ষমতাশীন আওয়ামী লীগের অঙ্গসংগঠন বলে নিজেদের দাবি করে।[১] যদিও মুল দল বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ তাদের অঙ্গসংগঠন হিসাবে ওলামা লীগের কার্যক্রম স্থগিত করেছিল।[২]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

আওয়ামী ওলামা লীগ অফিসিয়ালি ১৯৯৬ সালে তৎকালীন আওয়ামীলীগ সভানেত্রী এবং পরবর্তীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত হয়। 

বিতর্ক[সম্পাদনা]

২০১৬ সালে ওলামা লীগ বাংলাদেশ সরকার গৃহীত জাতীয় উৎসব পহেলা বৈশাখকে ইসলাম বিরোধী ও অনৈসলামিক আখ্যায়িত আয়োজন বন্ধের দাবি করে।

২০১৭ সালের জানুয়ারিতে বাংলাদেশে স্টার জলসা, স্টার প্লাস ও জি বাংলাসহ ভারতীয় সব টিভি চ্যানেল সম্প্রচার বন্ধেরও দাবি করে।[৩] একই বছর ওলামা লীগ সুপ্রীম কোর্টের সামনে থেকে গ্রীক বিচারের দেবী থিমিসের মুর্তি সরানোর দাবি করেছিল। 

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "ওলামা লীগ বঙ্গবন্ধুর প্রতিষ্ঠিত স্বাধীন সার্বভৌম সংগঠন-ওলামা লীগ নেতৃবৃন্দ"দৈনিক ইনকিলাব। ২৮ মে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ১৮ জুন ২০১৮ 
  2. জাকির হোসেন লিটন (২৩ মে ২০১৭)। "ওলামা লীগ আর থাকছে না"www.dailynayadiganta.comদৈনিক নয়া দিগন্ত। ১৮ জুন ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ জুন ২০১৮ 
  3. "ভারতীয় টিভি চ্যানেল বন্ধের দাবি"। ১৭ জানুয়ারি ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ জুন ২০১৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]