বরানগর মেট্রো স্টেশন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Kolkata Metro Logo.svg
বরানগর মেট্রো স্টেশন
কলকাতা মেট্রো স্টেশন
BaranagarMetro.jpg
অবস্থানবরানগর, কলকাতা
স্থানাঙ্ক২২°৩৯′১১″ উত্তর ৮৮°২২′৫০″ পূর্ব / ২২.৬৫৩০৮৯৪° উত্তর ৮৮.৩৮০৬০৩৪° পূর্ব / 22.6530894; 88.3806034
মালিকানাধীনকলকাতা মেট্রো রেল
লাইনকলকাতা মেট্রো লাইন ১
প্ল্যাটফর্ম২ টি পার্শ্ব প্ল্যাটফর্ম
রেলপথ
সংযোগসমূহবরানগর রোড রেলওয়ে স্টেশন
নির্মাণ
গঠনের ধরনউত্তোলিত
প্ল্যাটফর্মের স্তর
পার্কিংহ্যাঁ
সাইকেলের সুবিধানা
অন্য তথ্য
অবস্থাচালু
ভাড়ার স্থানকলকাতা মেট্রো লাইন ১
ইতিহাস
চালু২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ [১]
পরিষেবা
পূর্ববর্তী স্টেশন   কলকাতা মেট্রো   পরবর্তী স্টেশন
শেষ স্টেশন
লাইন ১
সামনে কবি সুভাষ
অবস্থান

বরানগর মেট্রো স্টেশন হল কলকাতা মহানগর অঞ্চলে অবস্থিত একটি মেট্রো স্টেশন। স্টেশনটি কলকাতা মেট্রোর ১নং লাইন বা নীল লাইনের ২৬ টি স্টেশনের মধ্যে একটি। স্টেশনটি বরানগর পৌরসভায় ডানলপ মোরের পাশেই বেলঘরিয়া এক্সপ্রেসওয়ের বিমানবন্দরগামী অংশ ও শিয়ালদহ-ডানকুনি শাখার রেলপথের মাঝে অবস্থিত। স্টেশনটি মোট ২ টি প্লাটফর্ম বিশিষ্ট। এই স্টেশনের দক্ষিণ দিকে রয়েছে নোয়াপাড়া মেট্রো স্টেশন এবং উত্তর দিকে রয়েছে দক্ষিণেশ্বর মেট্রো স্টেশন। এই স্টেশনটি ২০২১ সালের ২২শে ফেব্রুয়ারি চালু হয়েছিল।[২]

অবস্থান[সম্পাদনা]

এই স্টেশনটি বরানগর এলাকাতে অবস্থিত। স্টেশনের ভৌগোলিক অবস্থান হল ২২°৩৯′১১″ উত্তর ৮৮°২২′৫০″ পূর্ব / ২২.৬৫৩০৮৯৪° উত্তর ৮৮.৩৮০৬০৩৪° পূর্ব / 22.6530894; 88.3806034। স্টেশনটির পূর্ববর্তী স্টেশন হল ২.৩৭৯ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত নোয়াপাড়া মেট্রো স্টেশন এবং পরবর্তী স্টেশন হল ১.৭৬ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত দক্ষিণেশ্বর মেট্রো স্টেশন[৩][৪]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

পরিকল্পনা ও নির্মাণ[সম্পাদনা]

২০১৭ সালে নির্মাণাধীন স্টেশনের একটি অংশ।

২০১৯ সালের জুন মাস নাগাদ, নোয়াপাড়া ও দক্ষিণেশ্বরের মধ্যবর্তী উড়াল রেলপথের ৯৫ শতাংশেরও বেশি কাজ সম্পন্ন হয়েছিল এবং সিগন্যালিং ব্যবস্থা ও ট্র্যাক স্থাপনের কাজ শুরু হয়েছিল।

বিলম্ব[সম্পাদনা]

বরানগর মেট্রো স্টেশন সহ কলকাতা মেট্রোর লাইন১-এর নোয়াপাড়া-দক্ষিণেশ্ব অংশটি ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারি মাসের মধ্যে চালু হওয়ার কথা ২০১৯ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ঘোষণা করা হয়।[7][8] তবে, ২০১৯ সালের শেষের দিকে একটি সামান্য বিলম্বের সঙ্গে প্রকল্পটির উদ্বোধনের সময় ২০২০ সালের মার্চ মাসকে ঘোষণা করা হয়েছিল। কলকাতা মেট্রো কর্তৃপক্ষ ২০২০ সালের মার্চ মাসে বরানগর মেট্রো স্টেশন সহ নোয়াপাড়া-দক্ষিণেশ্ব অংশটি চালু করতে ব্যর্থ হয়। নতুন ভাবে ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে প্রকল্পটির উদ্বোধনের সময় হিসাবে ২০২০ সালের জুলাই মাসকে উল্লেখ করা হয়েছিল।

কার্যক্রম[সম্পাদনা]

স্টেশন বিন্যাস[সম্পাদনা]

এনভিআরএল দ্বারা দ্বারা নকশাকৃত আনুমানিক ফুট-লম্বা ( মিটার) স্টেশনে দুটি পার্শ্ব প্ল্যাটফর্ম রয়েছে, যাদের প্রতিটির সঙ্গে একটি করে রেল ট্র্যাক যুক্ত রয়েছে, পাশাপাশি নিম্ন মেজানাইন ও প্ল্যাটফর্মের মধ্যে টি সিঁড়ি রয়েছে। স্টেশনটি কলকাতা মেট্রোর সব চেয়ে উঁচু স্টেশন। এটির উচ্চতা ৫৫ ফুটের কিছু বেশি অর্থাৎ প্রায় ৫ তলা বাড়ির সমান। শিয়ালদহ উত্তর শাখার বরাহনগর রোড স্টেশনের যে টিকিট কাউন্টার, তার গা ঘেঁষে ২৮০ মিটার লম্বা নতুন রাস্তা পৌঁছে গিয়েছে প্ল্যাটফর্মের দরজা পর্যন্ত। রাস্তার বাঁ দিকে বেলঘরিয়া এক্সপ্রেসওয়ের বিমানবন্দরগামী অংশ আর ডান দিকে শিয়ালদহ শাখার রেলপথ।

ছবিতে স্টেশনের দুটি প্ল্যাটফর্ম দৃশ্যমান।

 লাইন ১ 

জি রাস্তার স্তর প্রস্থান/প্রবেশ

ভাড়া নিয়ন্ত্রণ, স্টেশন এজেন্ট, টিকেট/টোকেন, দোকান, ক্রসওভার

পি পার্শ্ব প্ল্যাটফর্ম দরজা বাম খুলবে Handicapped/disabled access
দক্ষিণদিকগামী দিকে →নোয়াপাড়া → →
উত্তরদিকগামী দিকে ←দক্ষিণেশ্বর← ←
পার্শ্ব প্ল্যাটফর্ম দরজা বাম খুলবে Handicapped/disabled access

নকশা[সম্পাদনা]

স্টেশনটি গঠনগতভাবে একটি উত্তোলিত মেট্রো স্টেশন। এটিকে মোট ৩ টি স্তরে নকশা হয়েছে। স্তর তিনটি হল প্রথম স্তর, দ্বিতীয় স্তর বা মধ্যবর্তী তল ও তৃতীয় স্তর বা প্ল্যাটফর্ম। প্রথম স্তর বা ভূমি স্তরে স্টেশনের প্রবেশ পথ ও প্রস্থান পথ শুরু বা শেষ হয়। দ্বিতীয় স্তর বা এল১ বা মধ্যবর্তী স্তরে স্টেশনের ভাড়া নিয়ন্ত্রণ, স্টেশন এজেন্ট, মেট্রো কার্ড ভেন্ডিং মেশিন, ক্রসওভার প্রভৃতি অবস্থিত। তৃতীয় স্তর বা এল২ বা অন্তিম স্তরে প্ল্যাটফর্ম ও রেল ট্র্যাক অবস্থিত।

প্রবেশ ও প্রস্থান[সম্পাদনা]

স্টেশনের সঙ্গে ব্যারাকপুর ট্র্যাঙ্ক রোডকে যুক্তকারী সড়ক, দূরে স্টেশনের প্রবেশ ও প্রস্থান পথ দৃশ্যমান।

প্রবেশ পথ ও প্রস্থান পথ প্রথম স্তর বা ভূমি স্তরে শুরু শুরু বা শেষ হয়। মূল প্রবেশ বা প্রস্থান পথ স্টেশনের প্রথম বা ভূমি স্তরে পশ্চিম প্রান্তে অবস্থিত। এটি ২৮০ মিটার লম্বা রাস্তা দ্বারা ব্যারাকপুর ট্রাঙ্ক রোডের সঙ্গে যুক্ত রয়েছে।

ট্র্যাক বিন্যাস[সম্পাদনা]

বরাহনগর স্টেশনের পশ্চিমে (দক্ষিণেশ্বরের দিক) দক্ষিণেশ্বরগামী লাইনের সঙ্গে কবি সুভাষগামী লাইনের মধ্যে সংযোগ বা ক্রসওভার রয়েছে। এটি ভবিষ্যতে ব্যারাকপুরগামী লাইনের কথা ভেবে তৈরি করা হয়। স্টেশনের পূর্ব দিকে দুটি রেল ট্র্যাক সমান্তরালভাবে নোয়াপাড়া স্টেশনের দিকে চলেগেছে।

বিতর্ক[সম্পাদনা]

কলকাতা মেট্রোর বরাহনগর ও দক্ষিণেশ্বর স্টেশনের উদ্বোধনের আগেই স্টেশনের নাম ফলকে বাংলা ভাষাকে ব্রাত্য করার অভিযোগ উঠেছিল। সংবাদ সামনে আসার পরে বিতর্ক দানা বেঁধেছিল। এর পরেই ফলক বদল করলেন মেট্রো কর্তৃপক্ষ। নতুন বসানো ফলকে যথাক্রমে বাংলা, হিন্দি এবং ইংরেজিতে স্টেশনের নাম সমান মাপের হরফে লেখা হয়েছিল।[৫]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. https://bengali.abplive.com/videos/news/states-noapara-dakshineswar-metro-piyush-goyal-visits-dakshineswar-metro-station-checks-preparation-802922
  2. "মেট্রোপথে জুড়ল বরাহনগর-দক্ষিণেশ্বর, উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী"। www.anandabazar.com। আনন্দবাজার পত্রিকা। ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ৮ মে ২০২২ 
  3. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি"। ১৬ জানুয়ারি ২০২০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 
  4. "Road Ahead….. Projects sanctioned"। সংগ্রহের তারিখ ২৭ নভেম্বর ২০১৯ 
  5. "নতুন মেট্রো স্টেশনে নামের ফলকে এগিয়ে এল বাংলা"। www.anandabazar.com। আনন্দবাজার পত্রিকা। ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ৮ মে ২০২২