পেনাং ভাসমান মসজিদ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পেনাং ভাসমান মসজিদ
মসজিদ তেরপাং পুলাউ পেনাং
Penang Malaysia Sunrise at Tanjong Bungah Mosque-04and (4461552447).jpg
ধর্ম
অন্তর্ভুক্তিইসলাম
অবস্থান
অবস্থানজর্জ টাউন, পেনাং
মালয়েশিয়া মালয়েশিয়া
স্থাপত্য
ধরনমসজিদ
ভূমি খনন২০০৩
মিনারসমূহ

পেনাং ভাসমান মসজিদ (মালয়: মসজিদ তেরপাং পুলাউ পেনাং), বা তানজং বুঙ্গাহ ভাসমান মসজিদ (মালয়: মসজিদ তেরাপুং তানজং বুঙ্গাহ) হলো মালয়েশিয়ার পেনাংয়ের জর্জ টাউনের নিকটে তানজং বুঙ্গায় অবস্থিত একটি ভাসমান মসজিদ।[১][২]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

১৯৬৭ সালে প্রথমে এই অঞ্চলে একটি ছোট মসজিদ নির্মিত হয় এবং পরবর্তীতে ৫০০ জন উপাসক জায়গা দেওয়ার জন্য এটি ১৯৭৭ সালে প্রসারিত করা হয়। তবে ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার কারণে স্থানীয় মুসলিম সম্প্রদায়ের পক্ষে তা ছোট হয়ে যায়। সম্প্রসারণের জন্য সীমিত জমির কারণে মসজিদটি সমুদ্র পর্যন্ত তৈরি করার প্রস্তাব করা হয়। নতুন মসজিদটির নির্মাণ কাজ ২০০৩ সালে শুরু হয় এবং এটি নির্মাণে ব্যয় হয়েছে ১৫ মিলিয়ন রিংগিত।[৩] ১৬ মার্চ ২০০৭-এ মালয়েশিয়ার পঞ্চম প্রধানমন্ত্রী দাতুক সেরি আবদুল্লাহ আহমদ বাদাউই এর উদ্বোধন করেন।[৪]

আকৃতি[সম্পাদনা]

মসজিদের অভ্যন্তর

যদিও এটি একটি ভাসমান মসজিদ বলা হয়, মসজিদটি আসলে কাঠের উপর নির্মিত। কেবলমাত্র উচ্চ জোয়ারে এটি জলে ভাসমান অবস্থায় দেখাবে। এটি মধ্য প্রাচ্যের এবং স্থানীয় স্থাপত্য শৈলীর মিশ্রণে নির্মিত এবং মসজিদে একটি বিশিষ্ট মিনার রয়েছে। মসজিদে ১,৫০০ উপাসক একসাথে জায়গা দেওয়া যাবে।[৫]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Floating Mosque of Tanjung Bungah"Time Out 
  2. "Floating Mosque, Toy Museum, and 8 Other Must-See Attractions in Penan"24seven to Anywhere [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  3. Zuhainy Zulkiffli (১৮ আগস্ট ২০১৭)। "Pernah dibadai tsunami"My Metro 
  4. "Bid to undermine Islam Hadhari won't shake government says Abdullah"Star Online। ১৭ মার্চ ২০০৭। 
  5. Philip Mathews (সম্পাদক)। Chronicle of Malaysia: Fifty Years of Headline News, 1963-2013। Didier Millet Sdn. Bhd.। পৃষ্ঠা 312। আইএসবিএন 978-9671061749