বিষয়বস্তুতে চলুন

পিছনের গল্প

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
চোখের সামনে পিতামাতা খুন হওয়ার মানসিক আঘাত ব্রুস ওয়েন কে পরবর্তীতে ব্যাটম্যান করে তোলে, যা কাল্পনিক জগতের খুবই জনপ্রিয় একটি পিছনের গল্প

বিনোদনের ভাষায় পিছনের গল্প হচ্ছে ওইসব ঘটনা বা পরিস্থিতি যার ফলে বোঝা যায় একটি চরিত্র কিংবা কিছু লোকজন কীভাবে গল্পের নায়ক এবং শত্রুতে পরিণত হয়েছে। এটি গল্পের মধ্যে একটি আগ্রহ এবং জটিলতা তৈরি করে যা চরিত্রের লক্ষ্য উদ্দেশ্য কে ফুটিয়ে তোলে।

আমেরিকান কমিক বইয়ে এটি দেখানো হয় যে কীভাবে কোন পরিস্থিতিতে একজন সুপারহিরো বা সুপারভিলেন তার সুপারপাওয়ার পেয়ে থাকে বা কীভাবে সে সুপারহিরো/ভিলেনে রূপান্তর হয়। তাদের চরিত্র গুলো চলমান রাখার জন্য কমিক বই প্রতিষ্ঠান, কার্টুন প্রতিষ্ঠান, বাচ্চাদের অনুষ্ঠান প্রচার করা প্রতিষ্ঠান এবং খেলনা প্রতিষ্ঠান তাদের পুরনো চরিত্র গুলোর পিছনের ঘটনা পুনরায় বারবার লিখতে থাকে। এসব বর্ণনা যোগ করার ফলে এগুলো একটি নতুন গল্প পায় যার ফলে তাদের চরিত্রকে ভিন্ন চরিত্রের মতো দেখায়। একটি তাৎপর্যপূর্ণ ঘটনা যা পিছনের গল্প বা মূল ঘটনা হিসেবেও ধরা হয়, এটি পৌরাণিক কাহিনীর ক্ষেত্রেও ব্যবহৃত হয়। যেখানে বলা হয় কীভাবে পৃথিবীর শুরু হয়েছে, মানুষ কীভাবে অস্তিত্বে এসেছে এসব বিষয়ে।

এটি চরিত্র এবং অন্যান্য উপাদানের ইতিহাস যা মূল বর্ণনার শুরুতে বিদ্যমান পরিস্থিতিকে অন্তর্নিহিত করে। এমনকি একটি বিশুদ্ধ ঐতিহাসিক কাজ দর্শকদের কাছে পিছনের গল্প প্রকাশ করে।[১][২]

ব্যবহার[সম্পাদনা]

একটি সাহিত্যিক যন্ত্র হিসাবে, মূল গল্পের গভীরতা বা বিশ্বাসযোগ্যতা প্রদানের জন্য প্রায়ই পিছনের গল্প ব্যবহার করা হয়।

পিছনের গল্পগুলো সাধারণত প্রকাশ করা হয়, আংশিক বা সম্পূর্ণভাবে, কালানুক্রমিকভাবে বা নাহলে, মূল গল্প বা ঘটনা শুরু হওয়ার সাথে সাথে। যাইহোক, একজন গল্পকার পিছনের গল্পের কিছু অংশ বা একটি সম্পূর্ণ গল্পও তৈরি করতে পারেন যা শুধুমাত্র তাদের চরিত্রকে তুলে ধরে।[৩]

পিছনের ঘটনা গুলো ফ্ল্যাশব্যাক, কথোপকথন, সরাসরি বর্ণনা, সংক্ষিপ্তসার, স্মৃতিচারণ এবং প্রকাশ সহ বিভিন্ন উপায়ে বলা যেতে পারে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]