নুসরাত ইমরোজ তিশা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
নুসরাত ইমরোজ তিশা
Nusrat Imrose Tisha, 7th Annual Asia Pacific Screen Awards (APSA) 2013 Winner.jpg
৭ম এশিয়া প্যাসিফিক স্ক্রিন পুরস্কারে তিশা, ২০১৩
জন্ম (১৯৮৬-০২-২০) ২০ ফেব্রুয়ারি ১৯৮৬ (বয়স ৩২)
রাজশাহী, বাংলাদেশ
জাতীয়তাবাংলাদেশী
নাগরিকত্ব বাংলাদেশ
পেশামডেল অভিনেত্রী
কার্যকাল২০০৩–বর্তমান
টেলিভিশননতুন কুঁড়ি
উপাধিপ্রথম স্থান (১৯৯৫)
দাম্পত্য সঙ্গীমোস্তফা সরয়ার ফারুকী (বি. ২০১০)
পুরস্কারমেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার

নুসরাত ইমরোজ তিশা (জন্ম: ২০ ফেব্রুয়ারি ১৯৮৬)[১] বাংলাদেশের একজন জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী। টিভি নাটকের মাধ্যমে তিনি তার অভিনয় জীবন শুরু করেন। তবে গান দিয়েই শুরু হয়েছিল তিশার পথচলা। খুব অল্প সময়ের মধ্যে তিনি সকল শ্রেণীর দর্শকদের কাছে অত্যন্ত জনপ্রিয় হয়ে উঠেন। তিনি বিভিন্ন টিভি বিজ্ঞাপন ও নাটকে নিয়মিত অভিনয় করছেন। পাশাপাশি কিছু চলচ্চিত্রেও কাজ করেছেন। তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রসমূহ হল নাট্যধর্মী থার্ড পারসন সিঙ্গুলার নাম্বার (২০০৯), টেলিভিশন (২০১২), ক্রীড়া নাট্যধর্মী অস্তিত্ব (২০১৬), নাট্যধর্মী ডুব (২০১৭) এবং হালদা (২০১৭)। অস্তিত্ব চলচ্চিত্রে অভিনয় করে তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন।[২] এছাড়া তিনি ১০টি মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার অর্জন করেছেন।

প্রাথমিক জীবন[সম্পাদনা]

১৯৯৫ সালে নতুন কুঁড়ি প্রতিযোগিতায় প্রথম স্থান পাওয়া তিশার মিডিয়া জগতে পদার্পণ টেলিভিশনের মাধ্যমেই। শিশুশিল্পী হিসেবে মূলত গান করতেন। ১৯৯৭ সালে অনন্ত হীরার সাতপেড়ে কাব্য নামে একটি নাটকে শিশুশিল্পী হিসেবে শখের বশে অভিনয়ের মাধ্যমে অভিনয় জগতে পদার্পণ করেন। ২০০৩ সাল থেকে অভিনয় ও মডেলিং ব্যস্ত হয়ে পড়েন তিনি। তিশা এঞ্জেল ফোর নামের একটি ব্যান্ড দলও গঠন করেছিলেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

১৯৯৮ সালে সাত প্রহরের কাব্য নাটক দিয়ে তিশার টেলিভিশন পর্দায় অভিষেক হয়। নাটকটি রচনা করেন অনন্ত হীরা এবং পরিচালনা করেন আহসান হাবীব।

২০১৪ সালে তিনি দীর্ঘ ৬ বছর পর টেলিভিশন বিজ্ঞাপনে কাজ করেন। তাকে স্কয়ারের একটি পণ্যের বিজ্ঞাপনে সঙ্গীতশিল্পী তাহসানের বিপরীতে দেখা যায়।[৩] ২০১৬ সালে তার অভিনীত দুটি মূলধারার বাণিজ্যিক চলচ্চিত্র মুক্তি পায়। ৬ই মে মুক্তি পাওয়া অস্তিত্ব চলচ্চিত্রে তিনি একজন বুদ্ধি প্রতিবন্ধী কিশোরী চরিত্রে অভিনয় করেন। অনন্য মামুন পরিচালিত এই ছবিতে তার বিপরীতে ছিল আরিফিন শুভ[৪] শুভর সাথে তিনি পূর্বে ফারুকী পরিচালিত ওয়েটিং রুম টেলিছবিতে অভিনয় করেছিলেন।[৫] অন্যদিকে অপর চলচ্চিত্র রানা পাগলা: দ্য মেন্টাল-এ তিনি শাকিব খানের বিপরীতে অভিনয় করেন।[৬] অস্তিত্ব চলচ্চিত্রে তার কাজের জন্য ৪১তম জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার আয়োজনে তিনি কুসুম শিকদারের সাথে যৌথভাবে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর পুরস্কার অর্জন করেন।[৭] ২০১৭ সালে মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর বহুল আলোচিত ডুব চলচ্চিত্রে একজন স্বনামধন্য পরিচালকের কন্যা চরিত্রে কাজ করে তিনি প্রশংসিত হন। এতে তার বাবার চরিত্রে অভিনয় করেন ইরফান খান। একই বছর তিনি হালদা নদী নিয়ে সচেতনতামূলক হালদা চলচ্চিত্রে হাসু চরিত্রে অভিনয় করে প্রশংসা অর্জন করেন।

২০১৮ সালে ভালোবাসা দিবস উপলক্ষ্যে সাগর জাহান নির্মিত একটি মধ্যবিত্ত ফ্রিজের গল্প নাটকে তাকে তাহসানের বিপরীতে দেখা যায়।[৮] তিনি ফারুকী নির্মিত ডাবর মেথি আমলা হেয়ার অয়েলের বিজ্ঞাপনে কাজ করেন।[৯] এই বছর সেপ্টেম্বর মাসে তিনি ও অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী মুঠোফোন সেবাদানকারী কোম্পানি রবি আজিয়াটা লিমিটেডের শুভেচ্ছাদূত হন এবং আটটি বিজ্ঞাপন চিত্রে কাজের জন্য চুক্তিবদ্ধ হন।[১০]

ব্যক্তিগত জীবন[সম্পাদনা]

বাংলাদেশের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা তিশা ও স্বামী মোস্তফা সরয়ার ফারুকী

ব্যক্তিগত জীবনে তিশা ২০১০ সালের ১৬ জুলাই টিভি ও চলচ্চিত্র পরিচালক মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন।[১১][১২] ২০১৪ সালের অক্টোবরে ঢাকার স্কয়ার হাসপাতালে তিশার অ্যাপেনডিসাইটিসের অস্ত্রোপচার হয়।[১৩]

তিশা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম থেকে বিচ্যুত ছিলেন। এতে তার ভুয়া অ্যাকাউন্ট থেকে ভক্তরা প্রতারিত হচ্ছিল। তাই তিনি ২০১৬ সালের নভেম্বরে তার একটি ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খোলেন। অ্যাকাউন্টটি পরিচালনা করে পপকর্ন ডিজিটাল।[১৪][১৫]

তিশা চলচ্চিত্র দেখতে পছন্দ করেন। তার প্রিয় চলচ্চিত্র হল ন্যাটালি পোর্টম্যান অভিনীত ব্ল্যাক সোয়ান। এছাড়া স্টিল অ্যালিস চলচ্চিত্রে জুলিঅ্যান মুরের করা চরিত্রটি তার পছন্দের চরিত্র।[১৬]

অভিনীত অনুষ্ঠান[সম্পাদনা]

চলচ্চিত্রের তালিকা[সম্পাদনা]

বছর চলচ্চিত্র চরিত্র পরিচালক টীকা
২০০৯ থার্ড পারসন সিঙ্গুলার নাম্বার রুবা হক মোস্তফা সরয়ার ফারুকী বিজয়ী: শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র অভিনেত্রীর জন্য মেরিল-প্রথম আলো সমালোচক পুরস্কার
২০১০ রানওয়ে সেলিনা তারেক মাসুদ
২০১১ বাহাত্তর ঘন্টা সুমনা মাকসুদ হোসেন
২০১২ টেলিভিশন কোহিনুর মোস্তফা সরয়ার ফারুকী
২০১৪ ডুবোশহর মোস্তফা সরয়ার ফারুকী
২০১৬ অস্তিত্ব পরী অনন্য মামুন
রানা পাগলা: দ্য মেন্টাল শামীম আহমেদ রনি
২০১৭ ডুব সাবেরী মোস্তফা সরয়ার ফারুকী
হালদা হাসু তৌকীর আহমেদ
২০১৮ শনিবার বিকেল মোস্তফা সরয়ার ফারুকী
ফাগুন হাওয়া তৌকীর আহমেদ
হলুদবনি[১৭] অণু তাহের শিপন ও মুকুল রায় চৌধুরী নির্মাণাধীন

নাটকসমূহ[সম্পাদনা]

রিয়াজ, তিশা শুটিং ইউনিটের সাথে ২০১৪ সালে।

এক-পর্বের নাটক[সম্পাদনা]

  • নুরুল হুদা একদা ভালবেসেছিল
  • অরন্যে জ্যোৎস্না
  • লাইফ
  • পূর্ণ দৈর্ঘ্য
  • এলো মেলো মন
  • মুনিরা মফস্বলে
  • ঈদের টিকেট
  • মিথ্যুক
  • অপারেশান ইনানি রয়্যাল রিসোর্ট
  • প্রযত্নে ভালবাসা
  • ডারউইন
  • গোল্ডেন রেশিও
  • ক্যারাম প্রথম পত্র
  • ক্যারাম দ্বিতীয় পত্র
  • নিশি যাপন গেস্ট হাউস
  • রাত্রি ও নখত্তের মাঝখানে
  • সেভেন ডেইস
  • আজকের দেবদাস
  • একটি প্র্যভাটে নাম্বার
  • এপার্টমেন্ট লেটার
  • বৃষ্টি অথবা কান্না
  • বৃষ্টি তোমাকে দিলাম
  • ছোট্ট শহরের স্বপ্ন
  • দুরের মানুষ
  • ঈদের টিকেট
  • একুশের চিঠি
  • ফেলু কাজল
  • ফিরে আসো সুন্দরিতমা
  • ফরথ সাবজেক্ট
  • হয়তোবা
  • জল সাপে
  • কারিগর
  • খসরু প্লাস ময়না
  • কবি ও যন্তর মন্তর
  • লেট নাইট শো
  • লস্ট অ্যান্ড ফাউন্ড
  • লাইফ
  • ময়না তদন্ত
  • নিলাঞ্জনা
  • নিলঅরজনা
  • নাট বল্টু
  • অবশেষে
  • অন্য আলোয় মানুষ গুলো
  • পাঞ্জা
  • পল্টিবাজ
  • পূর্ণদৈর্ঘ্য বাঙ্গলা নাটক
  • সাদা মন ধুসুর পৃথিবী
  • সবুজ নক্ষত
  • সম্পুরনা
  • সরি
  • দ্যা রেইন
  • তনু
  • টাই ব্রেকার
  • তিন পৃথিবীর মানুষ
  • তবুও বসন্ত
  • উন মানুষ
  • ভালবাসার উল্টো পিঠ
  • ভালবাসি তাই
  • ভূত গাড়ি
  • ভোরের শিশির
  • আকাশী রঙের দোলনা
  • কমলা রাঙা রোদ

ধারাবাহিক নাটক[সম্পাদনা]

  • ৪২০
  • গ্র্যাজুয়েট
  • পুতুল খেলা
  • এম ইন লাইফ
  • ধান শালিকের গাঁও
  • বাবার হোটেল
  • ইট কাঠের খাঁচা
  • মাইক
  • মুকিম ব্রাদার্স
  • নিথুয়া পাথরে

সিরিজ নাটক[সম্পাদনা]

  • আরমান ভাই
  • আরমান ভাই কয়া পারছে
  • আরমান ভাই ফাইস্যা গেছে
  • আরমান ভাই বিরাট টেনশনে
  • আরমান ভাই দি জেন্টেলম্যান
  • আরমান ভাই হানিমুনে
  • সিকান্দার বক্সের হাওয়াই গাড়ি

পুরস্কার ও সম্মাননা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "নুসরাত ইমরোজ তিশা"দৈনিক যায় যায় দিন। ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ১৫ মে ২০১৬ 
  2. "জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ২০১৬ সেরা অভিনেতা চঞ্চল, সেরা অভিনেত্রী তিশা এবং কুসুম শিকদার"আনন্দ আলো। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০১৮ 
  3. "Tisha back in TV ads"দ্য ডেইলি স্টার (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ মার্চ ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  4. "তিশা-শুভর 'অস্তিত্ব' ৬ মে মুক্তি পাচ্ছে"দৈনিক জনকণ্ঠ। ২২ এপ্রিল ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ১৫ মে ২০১৬ 
  5. মিলু, কামরুজ্জামান (২৩ এপ্রিল ২০১৬)। "নতুন রূপে তিশা"দৈনিক মানবজমিন। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  6. আলমগীর কবির (১১ অক্টোবর ২০১৫)। "মেন্টাল নিয়ে ব্যস্ত তিশা"দৈনিক নয়া দিগন্ত। সংগ্রহের তারিখ ১৫ মে ২০১৬ 
  7. সুজন, ওয়াহিদ (৫ এপ্রিল ২০১৮)। "জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ২০১৬ : অভিনয়ে সেরা চঞ্চল-তিশা-কুসুম"পরিবর্তন। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০১৮ 
  8. "ভালোবাসা দিবসের নাটকে তাহসান-তিশা"দৈনিক যুগান্তর। ৯ জানুয়ারি ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  9. "আবারো ফারুকীর বিজ্ঞাপনে তিশা"দৈনিক ভোরের কাগজ। ১৫ মার্চ ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  10. "রবির শুভেচ্ছাদূত চঞ্চল ও তিশা"দৈনিক প্রথম আলো। ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮। সংগ্রহের তারিখ ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ 
  11. "Tisha-Farooki wedding photo album"দৈনিক প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ১৭ নভেম্বর ২০১২ 
  12. মাহফুজ রহমান (জুলাই ২৬, ২০১৪)। "মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর কাছে তিশার ৭ প্রশ্ন"দৈনিক প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ১৫ মে ২০১৬ 
  13. "তিশা হাসপাতালে"দৈনিক কালের কণ্ঠ। ২৮ অক্টোবর ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  14. "ফেসবুকে পেজ খুললেন তিশা!"এনটিভি অনলাইন। ৩ নভেম্বর ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  15. "ফেসবুকে তিশার অভিষেক"বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম। ৩ নভেম্বর ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  16. সাইফুল, তুহিন (২০ মার্চ ২০১৮)। "'কখনো ফিরে আসলে এই জীবনটাই চাইবো'"সারাবাংলা.নেট। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মার্চ ২০১৮ 
  17. "হলুদবনি নিয়ে এবার তিশার কলকাতা মিশন" 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]