তোমা সঁকারা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
তোমা সঁকারা
Thomas-sankara-dessin.jpg
১ম বুর্কিনা ফাসোর রাষ্ট্রপতি
কাজের মেয়াদ
৪ঠা আগস্ট, ১৯৮৩ – ১৫ই অক্টোবর, ১৯৮৭
পূর্বসূরীজঁ-বাতিস্ত উয়েদ্রাওগো
উত্তরসূরীব্লেজ কোঁপাওরে (সামরিক অভ্যুত্থান)
৫ম ঊর্ধ্ব ভোল্টার প্রধানমন্ত্রী
কাজের মেয়াদ
১০ই জানুয়ারি, ১৯৮৩ – ১৭ই মে, ১৯৮৩
রাষ্ট্রপতিজঁ-বাতিস্ত উয়েদ্রাওগো
পূর্বসূরীসে জেরবো
উত্তরসূরীপদ অবলুপ্ত
তথ্যমন্ত্রী
কাজের মেয়াদ
৯ই সেপ্টেম্বর, ১৯৮১ – ২১শে এপ্রিল, ১৯৮২
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্মতোমা ইজিদর নোয়েল সঁকারা
(১৯৪৯-১২-২১)২১ ডিসেম্বর ১৯৪৯
ইয়াকো, ঊর্ধ্ব ভোল্টা
মৃত্যু১৫ অক্টোবর ১৯৮৭(1987-10-15) (বয়স ৩৭)
ওয়াগাদুগু, বুর্কিনা ফাসো
মৃত্যুর কারণপরিকল্পিত হত্যা
সমাধিস্থলওয়াগাদুগু
রাজনৈতিক দলআফ্রিকান স্বাধীনতা দল (বুর্কিনা ফাসো)
দাম্পত্য সঙ্গীমারিয়ম সঁকারা
সন্তান
স্বাক্ষর
সামরিক পরিষেবা
আনুগত্যটেমপ্লেট:দেশের উপাত্ত ঊর্ধ্ব ভোল্টা ঊর্ধ্ব ভোল্টা
 বুর্কিনা ফাসো
কাজের মেয়াদ১৯৬৬–১৯৮৭
পদBurkinabe Army 1983 OF-2.svg ক্যাপ্টেন
যুদ্ধআগাশে ভূখণ্ড যুদ্ধ

তোমা ইজিদর নোয়েল সঁকারা (ফরাসি: Thomas Isidore Noël Sankara; আ-ধ্ব-ব: [tɔma izidɔʁ nɔɛl sɑ̃kaʁa]; ২১শে ডিসেম্বর, ১৯৪৯ - ১৫ই অক্টোবর, ১৯৮৭) আফ্রিকার রাষ্ট্র বুর্কিনা ফাসো-র একজন সামরিক কর্মকর্তা, মার্কসবাদী বিপ্লবী ও ১৯৮০-র দশকে দেশটির একজন সর্ব-আফ্রিকাবাদী রাষ্ট্রপতি ছিলেন। তিনি ১৯৮৩ সালে একটি সামরিক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতায় আরোহণ করেন এবং ১৯৮৭ সালে আরেকটি বিরুদ্ধ সামরিক অভ্যুত্থানে নিহত হবার আগ পর্যন্ত দেশটির রাষ্ট্রপতি ছিলেন। সমর্থকদের কাছে তিনি এক মনোমুগ্ধকর ও প্রবাদপ্রতিম বিপ্লবী নেতা হিসেবে গণ্য হন। তাঁকে প্রায়শই "আফ্রিকার চে গেভারা" নামে ডাকা হয়।[১][২][৩]

১৯৮৩ সালে প্রধানমন্ত্রী পদে নিযুক্ত হবার পরে ক্ষমতাসীন সরকারের সাথে বিবাদে জড়ানোর সূত্র ধরে সঁকারা কারাবন্দী হন। তিনি যখন গৃহবন্দী ছিলেন, তখন তাঁর নামে একদল বিপ্লবী বছরের শেষভাগে দেশের জনগণের সমর্থন নিয়ে এক সামরিক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতা দখল করে।[৪][৫] ৩৩ বছর বয়সে সঁকারা ঊর্ধ্ব ভোল্টা প্রজাতন্ত্রের রাষ্ট্রপতিতে পরিণত হন। অনতিবিলম্বে তিনি সামাজিক, অর্থনৈতিক ও পরিবেশগত পরিবর্তনের বিভিন্ন কর্মসূচি চালু করেন এবং দেশটির ফরাসি ঔপনিবেশিক নাম বদলে বুর্কিনা ফাসো রাখেন, যার অর্থ "দুর্নীতিগ্রস্ত হয় না, এমন জাতির দেশ"। দেশটির জনগণের জাতীয়তার নাম দেওয়া হয় বুর্কিনাবে ("ঋজু বা অকপট জাতি")[৬][৭] সঁকারা-র বৈদেশিক নীতি ছিল উপনিবেশবাদ-বিরোধী। তিনি আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলসহ এইরূপ অন্যান্য সাহায্য সংস্থাগুলির কাছ থেকে আর্থিক সাহায্য প্রত্যাখ্যান করেন। তিনি অন্যান্য উৎস থেকে বৈদেশিক সাহায্য গ্রহণ করলেও অভ্যন্তরীণ আয় বৃদ্ধির মাধ্যমে ও সাহায্যের উৎসগুলির বৈচিত্র্যায়নের মাধ্যমে সাহায্যের উপরে নির্ভরশীলতা কমানোর চেষ্টা করেন।[৮]

তাঁর অভ্যন্তরীণ নীতিগুলির লক্ষ্য ছিল কৃষিখাতে স্বনির্ভরতা ও ভূমি সংস্কারের মাধ্যমে দুর্ভিক্ষ প্রতিরোধ করা, দেশব্যাপী সাক্ষরতা অভিযানের মাধ্যমে শিক্ষাকে অগ্রাধিকার প্রদান করা এবং আনুমানিক ২০ লক্ষ শিশুকে মস্তিকঝিল্লিপ্রদাহ (ম্যানিঞ্জাইটিস), পীতজ্বরহামের টিকা প্রদানের মাধ্যমে জনস্বাস্থ্য জোরদার করা, যার ফলে প্রতি বছর ১৮ হাজার থেকে ৫০ হাজার শিশু মৃত্যুর হাত থেকে রক্ষা পায়।[৯][১০][১১] তাঁর সরকার কোনও বৈদেশিক সাহায্য ছাড়াই বহুসংখ্যক বিদ্যালয়, স্বাস্থ্যকেন্দ্র, জলাধার, ও প্রায় ১০০ কিলোমিটার দীর্ঘ রেলপথ নির্মাণ করে। ১৯৮৩ থেকে ১৯৮৬ সালের মধ্যে খাদ্যশস্যের উৎপাদন ৭৫% বৃদ্ধি পায়।[৪][১২] সঁকারা-র জাতীয় কর্মতালিকার অন্যান্য উপাদানগুলির মধ্যে ছিল সহিল অঞ্চলের ক্রমবর্ধমান মরুভবন প্রতিহত করতে ১ কোটির বেশি বৃক্ষরোপণ, ব্যক্তিগত ভূস্বামীদের ভূমি পুনর্বিতরণ, গ্রামীণ স্থির কর ও গৃহস্থালি ভাড়া মুলতবিকরণ এবং সড়ক ও রেলপথ নির্মাণ প্রকল্প প্রতিষ্ঠাকরণ।[১৩][১১][১৪] স্থানীয় পর্যায়ে সঁকারা প্রতিটি গ্রামে একটি ঔষধালয় নির্মাণের আহ্বান জানান এবং বুর্কিনা ফাসোর ৭৫০০টি গ্রামের মধ্যে ৫৩৮৪টি গ্রামে ঔষধালয় নির্মাণ করান।[১৫] ১৯৮২ সাল থেকে ১৯৮৪ সালের মধ্যে নবজাতক শিশু মৃত্যুহার প্রতি হাজারে ২০৮ থেকে ১৪৫-এ নেমে আসে।[১৫] সঁকারা সরকারের অধীনে বিদ্যালয়ে উপস্থিতির হার ৬% থেকে বেড়ে ২২% হয়।[১৪] অধিকন্তু, তিনি নারীর যৌনাঙ্গ কর্তন, জোরপূর্বক বিবাহবহুবিবাহ প্রথা নিষিদ্ধ করেন।[১৬] তিনি সরকারি উচ্চপদে নারীদের নিয়োগদান করেন এবং নারীদেরকে (অন্তঃসত্ত্বা হলেও) ঘরের বাইরে কাজ করতে ও বিদ্যালয়ে যেতে উৎসাহ প্রদান করেন।[১৭][১৪]

সঁকারা কিউবার বিপ্লবকে প্রশংসার চোখে দেখতেন। তিনি কিউবার মতো বিপ্লব প্রতিরক্ষা সমিতি গড়ে তোলেন।[১] এভাবে তিনি লৈঙ্গিক সমতাকে অগ্রাধিকার প্রদান করেন, তার শীর্ষ কর্মকর্তাদের বেতন হ্রাস করেন এবং রাজনৈতিক অপরাধ ও দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত সরকারি কর্মকর্তা, প্রতিবিপ্লবী ও "অলস শ্রমিক"দের বিচারের জন্য বিপ্লবী জনতার আদালতগুলি প্রতিষ্ঠা করেন।[১৪][১৮] শেষোক্ত কর্মসূচিটিকে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল ও অন্যান্য বেসরকারী সংস্থাগুলি মানবাধিকার লংঘনের কারণে নেতিবাচক সমালোচনা করে এবং তারা দাবী করে যে রাজনৈতিক প্রতিপক্ষদের বিচারবহির্ভূত হত্যা করা হয়েছে ও যথেচ্ছ শাস্তি প্রদান করা হয়েছে।[১৯] বিরোধী দল ও সংঘগুলি নিষিদ্ধ করা হয় এবং সংবাদমাধ্য্মের স্বাধীনতা খর্ব করা হয়। ধর্মঘটরত শিক্ষকদেরকে চাকরি থেকে বরখাস্ত করে দেওয়া হয় এবং তাদেরকে অভিজ্ঞতাহীন তরুণদের দ্বারা প্রতিস্থাপন করা হয়।[১৪] আফ্রিকান স্বনির্ভরতাকামী সঁকারা-র বিপ্লবী কর্মসূচিগুলি আফ্রিকার বহু দরিদ্র মানুষের কাছে তাঁকে এক নায়কে পরিণত করে,[১৭] এবং নিজ দেশের নাগরিকদের বেশিরভাগের কাছে তিনি জনপ্রিয়তা ধরে রাখেন।[২০][২১] কিন্তু তার নীতিগুলি অনেকগুলি গোষ্ঠীকে দূরে ঠেলে দেয় ও শত্রুভাবাপন্ন করে তোলে, যাদের মধ্যে ছিল বুর্কিনা ফাসোর ক্ষুদ্র কিন্তু শক্তিশালী মধ্যবিত্ত শ্রেণী, গোত্রপ্রধানগণ (যাদের ঐতিহ্যবাহী জোরপূর্বক শ্রম করানো ও কর আদায়ের প্রাধিকার খর্ব হয়), আফ্রিকার ঔপনিবেশিক শক্তি ফ্রান্সের সরকার এবং ফ্রান্সের মিত্ররাষ্ট্র কোত দিভোয়ার (আইভরি কোস্ট বা হস্তীদন্ত উপকূল)।[১][২২].১৯৮৭ সালের ১৫ই অক্টোবর তারিখে ব্লেজ কোঁপাওরে-র নেতৃত্বে একদল সেনা সঁকারা-কে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে এবং এর অব্যবহিত পরে কঁপাওরে দেশটির রাষ্ট্রক্ষমতা দখল করেন।

২০২১ সালে সঁকারা হত্যার ৩৪ বছর পরে তাঁর হত্যাকারীদের বিচার শুরু হয় এবং ৬ মাস বিচারের পরে ২০২২ সালের ৬ই এপ্রিল তারিখে বুর্কিনা ফাসোর একটি সামরিক আদালত প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি ব্লেজ কোঁপাওরে-কে সঁকারাকে হত্যার দায়ে দোষী সাব্যস্ত করে তাকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড প্রদান করে।[২৩] এর আগে কোঁপাওরে ২০১৪ সালে ক্ষমতাচ্যুত হয়ে কোত দিভোয়ারে পলায়ন করেন এবং সেখানকার নাগরিকত্ব লাভ করেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Bonkoungou, Mathieu (১৭ অক্টোবর ২০০৭)। "Burkina Faso Salutes "Africa's Che" Thomas Sankara"Reuters 
  2. Sankara, Thomas (২০০৭)। Prairie, Michel, সম্পাদক। Thomas Sankara Speaks: the Burkina Faso Revolution: 1983–87। Pathfinder। পৃষ্ঠা 11। 
  3. "Thomas Sankara, Africa's Che Guevara"Radio Netherlands Worldwide। ১৫ অক্টোবর ২০০৭। ২ জুলাই ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। 
  4. Keita, Mohamed। "Why Burkina Faso's late revolutionary leader Thomas Sankara still inspires young Africans"Quartz Africa (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-১২-৩১ 
  5. McGuffin, Sean। "Revolution in the Land of the Incorruptible: Burkina Faso in 1984" (PDF)। সংগ্রহের তারিখ ৬ জানুয়ারি ২০২১ 
  6. Hubert, Jules Deschamps। "Burkina Faso"Encyclopædia Britannica। Encyclopædia Britannica, Inc.। ৯ এপ্রিল ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৯ এপ্রিল ২০১৯ 
  7. Molly, John। "What Do the Colors and Symbols of the Flag of Burkina Faso Mean?"World Atlas। ১৭ মে ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৭ মে ২০১৯ 
  8. Murrey 2018, পৃ. 171।
  9. "Vaccination commando: Burkina Faso"Salubritas8 (4): 1। অক্টোবর ১৯৮৫। আইএসএসএন 0191-5789পিএমআইডি 12340574 
  10. Kessler, Susi (১৯৮৭)। "Speeding up child immunization" (PDF) 
  11. Murrey, Amber (২০২০), Oloruntoba, Samuel Ojo; Falola, Toyin, সম্পাদকগণ, "Thomas Sankara and a Political Economy of Happiness", The Palgrave Handbook of African Political Economy, Palgrave Handbooks in IPE (ইংরেজি ভাষায়), Cham: Springer International Publishing, পৃষ্ঠা 193–208, আইএসবিএন 978-3-030-38922-2, এসটুসিআইডি 226439167, ডিওআই:10.1007/978-3-030-38922-2_10, সংগ্রহের তারিখ ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ 
  12. Harsch, Ernest (১ নভেম্বর ২০১৪)। Thomas Sankara: An African Revolutionary (ইংরেজি ভাষায়)। Ohio University Press। পৃষ্ঠা 38। আইএসবিএন 978-0-8214-4507-5 
  13. ""Our stomachs will make themselves heard": What Sankara can teach us about food justice today | Pambazuka News"www.pambazuka.org (ইংরেজি ভাষায়)। ৫ মে ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ 
  14. Smith, David (৬ মার্চ ২০১৫)। "Burkina Faso's revolutionary hero Thomas Sankara to be exhumed"The Guardian (ইংরেজি ভাষায়)। আইএসএসএন 0261-3077। সংগ্রহের তারিখ ৩১ ডিসেম্বর ২০২০Under Sankara the government also prioritised gender quality, working towards the end of female genital mutilation, forced marriages and polygamy. [...] But Sankara was in power long enough to make enemies and sow doubts about his political philosophy. He set up "revolutionary people's tribunals" to try former public officials charged with political crimes, and stripped traditional chiefs of their rights and privileges. 
  15. Murrey 2018, পৃ. 73।
  16. Mayanja, Namakula (২০১৮)। A Certain Amount of Madness: The Life, Politics and Legacies of Thomas Sankara (ইংরেজি ভাষায়)। Pluto Press। পৃষ্ঠা 236। আইএসবিএন 978-0-7453-3757-9 
  17. "Thomas Sankara: The Upright Man" by California Newsreel.
  18. Kasuka, Bridgette (৮ ফেব্রুয়ারি ২০১২)। Prominent African Leaders Since Independence (ইংরেজি ভাষায়)। Bankole Kamara Taylor। পৃষ্ঠা 296। আইএসবিএন 978-1-4700-4358-2 
  19. Amnesty International, Burkina Faso: Political Imprisonment and the Use of Torture from 1983 to 1988 (London: Amnesty International, 1988).
  20. Shillington, Kevin (৪ জুলাই ২০১৩)। Encyclopedia of African History 3-Volume Set (ইংরেজি ভাষায়)। Routledge। পৃষ্ঠা 184। আইএসবিএন 978-1-135-45670-2 
  21. "Burkina Faso: Remembering Sankara, rebel who renamed a country"www.yahoo.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ৬ জানুয়ারি ২০২১ 
  22. "Burkina commemorates slain leader"। news.bbc.co.uk। ১৫ অক্টোবর ২০০৭। সংগ্রহের তারিখ ১৫ অক্টোবর ২০১৪ 
  23. "Life sentence for Burkinabe ex-leader Compaoré for Sankara murder"। ৬ এপ্রিল ২০২২। সংগ্রহের তারিখ ১৪ এপ্রিল ২০২২