তৃতীয় পর্যায়ের মৌল

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

তৃতীয় পর্যায়ের মৌল বলতে সেই সকল মৌলিক পদার্থকে বুঝান‌ো হয় যেগুলো পর্যায় সারণীর তৃতীয় সারিতে (পর্যায়ে) রয়েছে। পর্যায় সারণীতে মৌলগুলো একাধিক সারিতে বিন্যস করা হয়েছে। প্রতিটি সারিতে মৌল সমূহের ইলেকট্রন সংখ্যা বৃদ্ধির সাথে সাথে এদের বৈশিষ্টগুলো ক্রমন্বয়ে পরিবর্তীত হতে থাকে। একই বৈশিষ্টের পুনরাবৃত্তির হলে নতুন সারিতে অন্তর্ভুক্ত করা হয় মৌলগুলোকে। একই কলামের মৌলগুলো সাধারণত একই ধরনের বৈশিষ্ট সম্পন্ন হয়ে থাকে। তৃতীয় শ্রেণীতে মোট আটটি মৌল রয়েছে, মৌলগুলো হল: সোডিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, অ্যালুমিনিয়াম, সিলিকন, ফসফরাস, সালফার, ক্লোরিন, এবং আর্গন। প্রথম দুটি মৌল সোডিয়াম এবং ম্যাসনেসিয়াম পর্যায় সারণীর এস-ব্লক এর মৌল, অন্যান্য মৌলগুলো পি-ব্লকের অন্তর্গত।

পর্যায়বৃত্ত প্রবণতা[উৎস সম্পাদনা]

মৌলসমূহ[উৎস সম্পাদনা]

মৌলিক পদার্থ শ্রেণী ইলেকট্রন বিন্যাস
১১ Na সোডিয়াম ক্ষার ধাতু [Ne] 3s1
১২ Mg ম্যাগনেসিয়াম মৃৎ ক্ষার ধাতু [Ne] 3s2
১৩ Al অ্যালুমিনিয়াম Post-transition metal [Ne] 3s2 3p1
১৪ Si সিলিকন Metalloid [Ne] 3s2 3p2
১৫ P ফসফরাস অধাতু [Ne] 3s2 3p3
১৬ S সালফার অধাতু [Ne] 3s2 3p4
১৭ Cl ক্লোরিন হ্যালোজেন [Ne] 3s2 3p5
১৮ Ar আর্গন নিষ্ক্রিয় গ্যাস [Ne] 3s2 3p6

সোডিয়াম[উৎস সম্পাদনা]

ম্যাগনেসিয়াম[উৎস সম্পাদনা]

অ্যালুমিনিয়াম[উৎস সম্পাদনা]

সিলিকন[উৎস সম্পাদনা]

ফসফরাস[উৎস সম্পাদনা]

সালফার[উৎস সম্পাদনা]

ক্লোরিন[উৎস সম্পাদনা]

আর্গন[উৎস সম্পাদনা]

মৌলসমূহের সারণী[উৎস সম্পাদনা]

তৃতীয় পর্যায়ের মৌল সমূহ
শ্রেণী ১০ ১১ ১২ ১৩ ১৪ ১৫ ১৬ ১৭ ১৮
#
নাম
১১
Na
১২
Mg
১৩
Al
১৪
Si
১৫
P
১৬
S
১৭
Cl
১৮
Ar
e--conf.

পর্যায় সারণীর রাসায়নিক শ্রেণীসমূহ

ধাতু Metalloid অধাতু অজানা
রাসায়নিক
বৈশিষ্ট
ক্ষার
ধাতু
মৃৎ
ক্ষার ধাতু
Inner transition metal অবস্থান্তর
ধাতু
Post-transition
metal
অন্যান্য
অধাতু
হ্যালোজেন নিষ্ক্রিয়
গ্যাস
ল্যান্থানাইড অ্যাক্টিনাইড

আরও দেখুন[উৎস সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[উৎস সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[উৎস সম্পাদনা]