ডেনিস গ্যামসি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ডেনিস গ্যামসি
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নামডেনিস গ্যামসি
জন্ম (1940-02-17) ১৭ ফেব্রুয়ারি ১৯৪০ (বয়স ৮১)
গ্ল্যানউড, নাটাল, দক্ষিণ আফ্রিকা
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
ভূমিকাউইকেট-রক্ষক-ব্যাটসম্যান
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ২৩২)
২২ জানুয়ারি ১৯৭০ বনাম অস্ট্রেলিয়া
শেষ টেস্ট৫ ফেব্রুয়ারি ১৯৭০ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
১৯৫৮/৫৯ - ১৯৭২/৭৩নাটাল
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ৯৩
রানের সংখ্যা ৩৯ ৩১০৬
ব্যাটিং গড় ১৯.৫০ ২৩.৭০
১০০/৫০ ০/০ ২/১৮
সর্বোচ্চ রান ৩০* ১৩৭
বল করেছে
উইকেট
বোলিং গড়
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৫/- ২৭৮/৩৩
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ১৮ এপ্রিল, ২০২০

ডেনিস গ্যামসি (ইংরেজি: Dennis Gamsy; জন্ম: ১৭ ফেব্রুয়ারি, ১৯৪০) নাটালের গ্ল্যানউড এলাকায় জন্মগ্রহণকারী সাবেক দক্ষিণ আফ্রিকান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার। দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯৭০ সালে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে দক্ষিণ আফ্রিকার পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটে নাটাল দলের প্রতিনিধিত্ব করেন। দলে তিনি মূলতঃ উইকেট-রক্ষক-ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলতেন। ডানহাতে ব্যাটিংয়ে পারদর্শী ছিলেন তিনি।

প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট[সম্পাদনা]

১৯৫৮-৫৯ মৌসুম থেকে ১৯৭২-৭৩ মৌসুম পর্যন্ত ডেনিস গ্যামসি’র প্রথম-শ্রেণীর খেলোয়াড়ী জীবন চলমান ছিল। সবটুকু সময়ই নাটাল দলের পক্ষে খেলেছিলেন।

দূর্ভাগ্যজনকভাবে ডেনিস গ্যামসি’র দক্ষিণ আফ্রিকা দলে অংশগ্রহণ শুভ হয়নি। অংশগ্রহণের পরপরই দক্ষিণ আফ্রিকা দল আন্তর্জাতিক পর্যায়ে নিষেধাজ্ঞার কবলে পড়ে। চমৎকার উইকেট-রক্ষক হিসেবে আবির্ভূত হয়েছিলেন। ১৯ বছর বয়সে প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে তার অভিষেক ঘটে। অভিষেক খেলায় আট ক্যাচ ও একটি স্ট্যাম্পিং করেছিলেন। এর পরপরই নিজেকে নাটালের প্রথম পছন্দের উইকেট-রক্ষক হিসেবে পরিচিতি ঘটান।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট[সম্পাদনা]

সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে দুইটিমাত্র টেস্টে অংশগ্রহণ করেছেন ডেনিস গ্যামসি। ২২ জানুয়ারি, ১৯৭০ তারিখে কেপ টাউনে সফরকারী অস্ট্রেলিয়া দলের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। এরপর, ৫ ফেব্রুয়ারি, ১৯৭০ তারিখে ডারবানে একই দলের বিপক্ষে সর্বশেষ টেস্টে অংশ নেন তিনি।

খেলার সংখ্যা কম থাকায় আন্তর্জাতিক অঙ্গনে তার অংশগ্রহণ কম ছিল। এছাড়াও, ডেনিস লিন্ডসে’র উপস্থিতি থাকা সত্ত্বেও ১৯৬৫ সালে দক্ষিণ আফ্রিকা দলের সাথে ইংল্যান্ড গমনের সুযোগ পান। অবশেষে, ১৯৬৯-৭০ মৌসুমে বিল লরি’র নেতৃত্বাধীন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজের প্রথম দুই টেস্ট খেলেন। তবে, ডেনিস লিন্ডসেকে অগ্রাধিকার দেয়ায় তাকে এ স্থান ত্যাগ করতে হয়।

পরবর্তী তিন মৌসুম কয়েকটি খেলায় অংশ নিয়েছিলেন। এরপর, তিনি খেলার জগৎকে বিদেয় জানান। বর্ণবাদের বিপক্ষে অবস্থান নেন ও জোড়ালো ভূমিকা রাখেন।

অবসর[সম্পাদনা]

১৯৭০ সালে প্রথমদিকে দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটারদের অন্যতম হিসেবে মিশ্র ক্রীড়া আয়োজনের স্বপক্ষে জোড়ালো ভূমিকা পালন করেছিলেন।[১] এর অল্প কিছুদিন পর দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট ক্লাব গঠন করেন। এ ক্লাবটি দক্ষিণ আফ্রিকার অন্যতম প্রথম মিশ্র বর্ণ নিয়ে গঠিত দল।[২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Jon Gemmell, The Politics of South African Cricket, Routledge, London, 2004, p. 93-94.
  2. Gemmell, p. 96.

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]