টোকেলাউ

স্থানাঙ্ক: ০৯°১০′ দক্ষিণ ১৭১°৫০′ পশ্চিম / ৯.১৬৭° দক্ষিণ ১৭১.৮৩৩° পশ্চিম / -9.167; -171.833
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
টোকেলাউ
টোকেলাউয়ের জাতীয় পতাকা
পতাকা
টোকেলাউয়ের প্রতীক
প্রতীক
নীতিবাক্য: 'Tokelau mo te Atua
জাতীয় সঙ্গীত: 'God Save the Queen
টোকেলাউয়ের অবস্থান
রাজধানীআতাফু
বৃহত্তম নগরীফাকাওফো (Fakaofo)
জাতীয়তাসূচক বিশেষণটোকেলাউয়ান
সরকারসাংবিধানিক
দ্বিতীয় এলিযাবেথ
• শাসক
রাজা জোনাথান
খরিসা নাসাও (Kuresa Nasau)
নিউজিল্যান্ড অঞ্চল
• টোকেলাউ সরকারের কাজ
১৯৪৮
আয়তন
• মোট
১০ কিমি (৩.৯ মা) (২৩৩ তম)
জনসংখ্যা
• অক্টোবর, ২০১১ আদমশুমারি
১,৪১১ (২৩৭তম)
• ঘনত্ব
১১৫ /কিমি (২৯৭.৮ /বর্গমাইল)
জিডিপি (পিপিপি)১৯৯৩ আনুমানিক
• মোট
$১.৫ মিলিয়ন (২২৭তম)
সময় অঞ্চলইউটিসি+১৩:০০
কলিং কোড+৬৯০
আইএসও ৩১৬৬ কোডTK
ইন্টারনেট টিএলডি.tk
  1. Each utoll has its own administrative centre, but Atafu will host the General Fono in 2012
  2. ফেব্রুয়ারি ২০১১ থেকে
  3. ২০১১ থেকে

টোকেলাউ (/ˈtoʊkəlaʊ/; আক্ষরিক অর্থ: 'উত্তর-উত্তরপূর্ব' বা উত্তরে হাওয়া দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগর এ নিউজিল্যান্ডের অঞ্চল। এটি তিনটি ক্রান্তীয় প্রবাল প্রাচীর: আটাফু, নুকুনোনু এবং ফোকাওফো নিয়ে গঠিত, একত্রে যা মাত্র ১০ বর্গকিলোমিটার এলাকা। দেশটির রাজধানী এই তিনটি দ্বীপের মধ্যে বার্ষিক ভাবে ঘোরাফেরা করে।

এছাড়াও এটির উত্তরে সয়াইন্স (Swains) দ্বীপ রয়েছে, যা এখন বিবাদিত এবং আমেরিকার সামোয়া অংশ পরিচালিত হয়।



ব্যুৎপত্তি[সম্পাদনা]

টোকেলাউ একটি পলিনেশীয় শব্দ, যার অর্থ "উত্তর বায়ু"। এক অজানা সময়ে ইউরোপীয় ইউনিয়নের অভিযাত্রীদল দ্বীপটি আবিষ্কার করেন। তখন এটি ইউরোপীয় দ্বীপপুঞ্জ এবং ইউনিয়ন গ্রুপ নামে পরিচিত হয়। ১৯৪৬ সালে[তথ্যসূত্র প্রয়োজন] টোকেলাউ নাম গৃহীত হয়।

ভৌগোলিক অবস্থান[সম্পাদনা]

পরিমন্ডল[সম্পাদনা]

ইতিহাস[সম্পাদনা]

আবিষ্কার এবং যোগাযোগ[সম্পাদনা]

সময় জোন[সম্পাদনা]

সরকার[সম্পাদনা]

রাজনীতি[সম্পাদনা]

অর্থনীতি[সম্পাদনা]

ইন্টারনেট ডোমেইন নাম[সম্পাদনা]

সৌরশক্তি[সম্পাদনা]

জনসংখ্যার উপাত্ত[সম্পাদনা]

খেলাধুলা[সম্পাদনা]

শিক্ষা ও স্বাস্থ্য[সম্পাদনা]

তথসূত্র[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]


টীকা[সম্পাদনা]