টমাস ভের্মালেন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
টমাস ভের্মালেন
Vermaelen (cropped).jpg
বেলজিয়ামের হয়ে ২০১৮ ফিফা বিশ্বকাপ এ ভের্মালেন
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম টমাস ভের্মালেন
জন্ম (1985-11-14) ১৪ নভেম্বর ১৯৮৫ (বয়স ৩৪)
জন্ম স্থান কাপিলেন,বেলজিয়াম
উচ্চতা ১.৮২ মি (৬ ফু ০ ইঞ্চি)
মাঠে অবস্থান রক্ষণভাগের খেলোয়াড়
যুব পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন
১৯৯১–১৯৯৯ জার্মিনাল একেরেন
১৯৯৯–২০০০ জার্মিনাল বিরস্কট
২০০০–২০০৩ আয়াক্স
জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন*
বছর দল উপস্থিতি (গোল)
২০০৩–২০০৯ আয়াক্স ৯৯ (৮)
২০০৪–২০০৫ → ওয়ালউইজক (ধারে) ১৩ (২)
২০০৯–২০১৪ আর্সেনাল ১১০ (১৩)
২০১৪–২০১৯ বার্সেলোনা ৩৪ (১)
২০১৬–২০১৭ → রোমা (ধারে) (০)
জাতীয় দল
২০০২–২০০৩ বেলজিয়াম অনূর্ধ্ব-১৮ (০)
২০০৩–২০০৪ বেলজিয়াম অনূর্ধ্ব-১৯ (০)
২০০৪–২০০৭ বেলজিয়াম অনূর্ধ্ব-২১ ১৩ (১)
২০০৮ বেলজিয়াম অনূর্ধ্ব-২৩ (০)
২০০৬– বেলজিয়াম ৭০ (১)
  • পেশাদারী ক্লাবের উপস্থিতি ও গোলসংখ্যা শুধুমাত্র ঘরোয়া লিগের জন্য গণনা করা হয়েছে এবং ১ জুলাই ২০১৯ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

† উপস্থিতি(গোল সংখ্যা)।

‡ জাতীয় দলের হয়ে খেলার সংখ্যা এবং গোল ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

টমাস ভের্মালেন (জন্মঃ ১৪ নভেম্বর ১৯৮৫) একজন বেলজিয়ান ফুটবলার যিনি সেন্টার ব্যাক হিসেবে খেলেন।

ভের্মালেন জার্মিনাল একেরেনে তার ফুটবল ক্যারিয়ার শুরু করেন, যা পরে জার্মিনাল বিরস্কট নাম ধারণ করে। ২০০০ সালে তিনি আয়াক্স এর যুব প্রকল্পে যোগ দেন। ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০০৪ আয়াক্স মূল দলে তার অভিষেক হয়। ২০০৮-০৯ মৌসুমে তিনি আয়াক্সের অধিনায়ক হন। ২০০৯ সালে তিনি আয়াক্স থেকে আর্সেনাল এ যোগ দেন। ২০১২ সালে তিনি আর্সেনাল এর অধিনায়ক হিসেবে মনোনীত হন। ২০১৪ সালের অগাস্ট মাসে তিনি বার্সেলোনায় যোগদান করেন। বার বার ইঞ্জুরির কারণে ভের্মালেন বার্সেলোনায় নিয়মিত খেলোয়াড় হয়ে উঠতে পারেন নি। তিনি ২০১৬-১৭ মৌসুম বার্সেলোনা থেকে ধারে এ এস রোমায় কাটান। ২০১৯ সালের ১ জুলাই বার্সেলোনার সাথে তার চুক্তির মেয়াদ সমাপ্ত হয়।

মূলত একজন সেন্টার ব্যাক হলেও টমাস ভের্মালেন লেফট ব্যাক হিসেবেও খেলতে পারেন।

টমাস ভের্মালেন বেলজিয়াম অনূর্ধ্ব-১৮, অনূর্ধ্ব-১৯, অনূর্ধ্ব-২১ ও অনূর্ধ্ব-২৩ দলে খেলেছেন। ২০০৬ সালের মার্চে লুক্সেমবার্গ এর বিপক্ষে ২০ বছর বয়সে তার বেলজিয়াম জাতীয় দল এ তার অভিষেক হয়।তিনি বেলজিয়াম জাতীয় দলের হয়ে ২০১৪ ফিফা বিশ্বকাপ, ২০১৬ উয়েফা ইউরো এবং ২০১৮ ফিফা বিশ্বকাপ খেলেছেন।

ক্যারিয়ার পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

৪ মে ২০১৯ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।
ক্লাব মৌসুম লীগ কাপ ইউরোপ অন্যান্য মোট
উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল উপস্থিতি গোল
আয়াক্স ২০০৩-০৪
২০০৫-০৬ ২৪ ৩৩
২০০৬-০৭ ২৩ ৩৬
২০০৭-০৮ ১৮ ২১
২০০৮-০৯ ৩১ ৪২
মোট ৯৭ ১১ ২৩ ১৩৩
ওয়ালউইজক (ধারে) ২০০৪-০৫ ১৩ ১৪
আর্সেনাল ২০০৯-১০ ৩৩ ১০ ১০ ১১ ৪৫
২০১০-১১
২০১১-১২ ২৯ ৪০
২০১২-১৩ ২৯ ৩৯
২০১৩-১৪ ১৪ ২১
মোট ১১০ ১৩ ১৩ ২৭ ১৫০ ১৫
বার্সেলোনা ২০১৪-১৫
২০১৫-১৬ ১০ ২০
২০১৭-১৮ ১৪ ২০
২০১৮-১৯ ১২
মোট ৩৪ ১১ ৫৩
রোমা (ধারে) ২০১৬-১৭ ১২
সর্বমোট ২৬৩ ২৩ ৩৫ ৫৯ ৩৪৮ ২৭

আন্তর্জাতিক[সম্পাদনা]

১৪ জুলাই ২০১৮ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।
বছর উপস্থিতি গোল
২০০৬
২০০৭
২০০৮
২০০৯ ১১
২০১০
২০১১
২০১২
২০১৩
২০১৪
২০১৫
২০১৬
২০১৭
২০১৮
মোট ৭০

অর্জন[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

আয়াক্সে থাকাকালীন ইয়ান ভের্তোনেন এর সাথে ভের্মালেন (বামে)।
আয়াক্স
  • এরেদিভিসিয়ে: ২০০৩-০৪
  • কেএনভিবি কাপ: ২০০৫-০৬, ২০০৬-০৭
  • ইয়োহান ক্রুইফ শিল্ড: ২০০৬, ২০০৭
আর্সেনাল
বার্সেলোনা[১]

আন্তর্জাতিক[সম্পাদনা]

ব্যক্তিগত[সম্পাদনা]

  • পিএফএ প্রিমিয়ার লিগ বর্ষসেরা দল: ২০০৯-১০[২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Thomas Vermaelen ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ২৪ জানুয়ারি ২০১৫ তারিখে; Barcelona's official website
  2. "BBC Sport – Football – Rooney is PFA player of the year"bbc.co.uk