ঝোং-ব্লো-ব্জাং-ব্র্ত্সোন-'গ্রুস-থুব-ব্স্তান-র্গ্যাল-ম্ত্শান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ঝোং-ব্লো-ব্জাং-ব্র্ত্সোন-'গ্রুস-থুব-ব্স্তান-র্গ্যাল-ম্ত্শান

ঝোং-ব্লো-ব্জাং-ব্র্ত্সোন-'গ্রুস-থুব-ব্স্তান-র্গ্যাল-ম্ত্শান (ওয়াইলি: zong blo bzang brtson 'grus thub bstan rgyal mtshan) (১৯০৫-১৯৮৪) তিব্বতী বৌদ্ধধর্মের দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের একজন বৌদ্ধ পণ্ডিত ছিলেন যিনি ১৯৩৭ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৯৪৭ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত দ্গা'-ল্দান বৌদ্ধবিহারের শার-র্ত্সে মহাবিদ্যালয়ের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

প্রথম জীবন[সম্পাদনা]

ঝোং-ব্লো-ব্জাং-ব্র্ত্সোন-'গ্রুস-থুব-ব্স্তান-র্গ্যাল-ম্ত্শান ১৯০৫ খ্রিষ্টাব্দে তিব্বতের খাম্স অঞ্চলের মাং-সাং (ওয়াইলি: mang sang) নামক স্থানে একটি র্ন্যিং-মা বৌদ্ধধর্মসম্প্রদায়ভুক্ত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম ছিল ব্যাম্স-পা (ওয়াইলি: byams pa) এবং মাতার নাম ছিল ব্সোদ-নাম্স-দ্ব্যাংস-'দ্জোম্স (ওয়াইলি: bsod nams dbyangs 'dzoms)। শৈশবে তাকে ঝোং-স্প্রুল-ব্র্তান-পা-'ছোস-ফেল (ওয়াইলি: zong sprul brtan pa chos 'phel) নামক দ্গে-লুগ্স ধর্মসম্প্রদায়ের এক ভিক্ষুর পুনর্জন্ম রূপে চিহ্নিত করা হয়। ১৯১৬ খ্রিষ্টাব্দে তিনি দ্গা'-ল্দান বৌদ্ধবিহারের শার-র্ত্সে (ওয়াইলি: shar rtse) মহাবিদ্যালয়ে শিক্ষালাভের উদ্দেশ্যে ভর্তি হন। ব্লো-ব্জাং-য়ে-শেস-ব্স্তান-'দ্জিন-র্গ্যা-ম্ত্শো (ওয়াইলি: blo bzang ye shes bstan 'dzin rgya mtsho) নামক তৃতীয় খ্রি-ব্যাং রিন-পো-ছে (ওয়াইলি: khri byang rin po che) উপাধিধারী লামা তার প্রধান শিক্ষক ছিলেন। পরবর্তীকালে তিনি ত্রয়োদশ দলাই লামার নিকট ভিক্ষুর শপথ গ্রহণ করে গ্যুতো তন্ত্র মহাবিদ্যালয়ে তন্ত্রশিক্ষার উদ্দেশ্যে ভর্তি হন। ১৯৩৭ খ্রিষ্টাব্দে থুব-ব্স্তান-'জাম-দ্পাল-য়ে-শেস-র্গ্যাল-ম্ত্শান (ওয়াইলি: thub bstan 'jam dpal ye shes rgyal mtshan) নামক পঞ্চম র্বা-স্গ্রেং রিন-পো-ছে (ওয়াইলি: rwa-sgreng rin-po-che) উপাধিধারী লামা তাকে দ্গা'-ল্দান বৌদ্ধবিহারের শার-র্ত্সে মহাবিদ্যালয়ের প্রধানের দায়িত্ব প্রদান করেন এবং এই পদে তিনি দশ বছর ধরে থাকেন।[১]

পরবর্তী জীবন[সম্পাদনা]

১৯৫৯ খ্রিষ্টাব্দে চীন তিব্বত অধিগ্রহণ করলে তিনি চতুর্দশ দলাই লামার সঙ্গে ভারত পালিয়ে যান এবং অসমের বক্সা নামক স্থানে ধর্মশিক্ষা প্রদানে রত থাকেন। ১৯৬৫ খ্রিষ্টাব্দে তিনি চতুর্দশ দলাই লামার অনুরোধে মুসৌরি শহরে তিব্বতী বিদ্যালয় শিক্ষক প্রশিক্ষণ কার্যক্রমে অধিকর্তার দায়িত্ব দেন। ১৯৬৭ খ্রিষ্টাব্দে চতুর্দশ দলাই লামা তাকে বারাণসী শহরে নবনির্মিত কেন্দ্রীয় তিব্বতী অধ্যয়ন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম অধ্যক্ষের দায়িত্ব প্রদান করেন। এছাড়া তিনি তিন বার ইউরোপউত্তর আমেরিকা যাত্রা করে ধর্মশিক্ষা প্রদান করেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Repo, Joona (আগস্ট ২০১১)। "Zong Lobzang Tsondru Tubten Gyeltsen"The Treasury of Lives: Biographies of Himalayan Religious Masters। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-১১-০৩ 

আরো পড়ুন[সম্পাদনা]

  • জাসেপ তুলকু। 1981. কিয়াজে গান রিনপোচে: একটি জীবনী। মার্টিন উইলসন, ট্রান্স লন্ডন: প্রজ্ঞা প্রকাশনা।
  • কিয়াবে জং রিনপোচে। 2006. গাডেন ট্র্যাডিশনে ছাড: কিবাজে জং রিনপোচের মৌখিক নির্দেশনা। ডেভিড মোলক, এড। ইথাকা, নিউ ইয়র্ক: স্নো লায়ন পাবলিকেশনস।
  • কিয়াজে গান রিনপোচে। 1979. ড্রেলোমা, ড্রেপং লজলিং ম্যাগাজিনে "জন্ম, মৃত্যু এবং বার্ডো"। লোবজ্যাং নরবু তসনওয়া, মাইকেল রিচার্ডস এবং অন্যান্য।