ঝাড়খণ্ডী উপভাষা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ঝাড়খণ্ডী বাংলা
মানভূমি বাংলা
দেশোদ্ভবভারত
অঞ্চলঝাড়গ্রাম জেলা, পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা, পুরুলিয়া জেলা, বাঁকুড়া জেলা, পশ্চিম বর্ধমান জেলা
মাতৃভাষী

বাংলা বর্ণমালা
ভাষা কোডসমূহ
আইএসও ৬৩৯-৩

ঝাড়খণ্ডী উপভাষা, ঝাড়খণ্ডী বাংলা বা মানভূমি বাংলা হলো মূলত ভারতের পশ্চিমবঙ্গের পশ্চিমাংশে, ঝাড়খণ্ড এবং ওড়িশার কিছু জেলায় প্রচলিত বাংলা ভাষার একটি উপভাষা। এটি পশ্চিমবঙ্গে প্রচলিত বাংলা উপভাষাগুলোর মধ্যে একটি প্রধান উপভাষাসুকুমার সেন, পরেশচন্দ্র মজুমদার সহ বহু ভাষাবিদ এই বাংলা উপভাষাকে শ্রেণীবিভাগ করেছিলেন।

ভৌগোলিক সীমানা[সম্পাদনা]

প্রধানত পশ্চিমবঙ্গের পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, বীরভূম, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুরপশ্চিম বর্ধমান জেলা, ঝাড়খণ্ডের বোকারো, ধানবাদ, সড়াইকেলা, পূর্বপশ্চিম সিংভূম জেলা, এবং ওড়িশার ময়ূরভঞ্জ জেলায় এই বাংলা উপভাষার প্রচলন লক্ষ্য করা যায়।

বৈশিষ্ট্য[সম্পাদনা]

১। প্রায় সর্বত্র 'ও'-কার লুপ্ত হয়ে 'অ'-কারে পরিণত হয়েছে।

  • যেমন- লোক >লক, মোটা >মটা, ভালো >ভাল, অঘোর >অঘর।

২। ক্রিয়াপদে স্বার্থিক 'ক' প্রত্যয়ের প্রচুর প্রয়োগ।

  • যেমন- যাবেক, খাবেক, করবেক।

৩। নামধাতুর প্রচুর ব্যবহার লক্ষ করা যায়।

  • যেমন- জাড়াচ্ছে, গঁধাচ্ছে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]