জাতীয় জলপথ ১

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
জাতীয় জলপথ ১
A Ship in Hoogly River.jpg
বিস্তারিত
চালু হয়১৯৮৬
দৈর্ঘ্য১৬২০ কিলোমিটার
উত্তর প্রান্তএলাহাবাদ
দক্ষিণ প্রান্তহলদিয়া
টার্মিনালের সংখ্যা১৮ টি
মালিকানাভারতীয় জলপথ নিগম
পরিচালনাকারীভারতীয় অন্তর্দেশীয় জলপথ কর্তৃপক্ষ

জাতীয় জলপথ ১ (ইংরেজি: National Waterway 1) হল পণ্য ও যাত্রী পরিবহনের উদ্দেশ্যে ভারতের গঙ্গা নদী এবং তার শাখানদী ভাগীরথীহুগলি নদী নিয়ে গড়ে ওঠা একটি জলপথ। এটি হলদিয়া (সাগর) থেকে শুরু হয়ে এলাহাবাদ শহর পর্যন্ত চলেগেছে। জাতীয় জলপথ ১ মোট ১৬০০ কিলোমিটার দীর্ঘ। [১] এই জলপথ ভারতের চারটি রাজ্যের মধ্যদিয়ে গেছে। এই রাজ্য গুলি হল পশ্চিমবঙ্গ, ঝাড়খন্ড, বিহারউত্তর প্রদেশ। জলপথটিতে মোট ১৮ টি টার্মিনাল রয়েছে। হলদিয়া থেকে পাটনা পর্যন্ত পন্যবাহি বার্জ চলাচল করে। এই জলপথের গভীরতা ৩ মিটার রাখা সম্ভব হলে হলদিয়া থেকে এলাহাবাদ পর্যন্ত ১,৫০০ থেকে ২,০০০ টন পন্যবাহি বার্জ চলাচল করা সম্ভব হবে।

বর্তমানে এই জাতীয় জলপথে বার্জের দ্বারা ইন্দোনেশিয়া থেকে ফারাক্কা তাপবিদুৎ কেন্দ্রে কয়লা পৌঁছানো হয়।

চলাচল[সম্পাদনা]

আজও এনডব্লিউ-১ হিসেবে চিহ্নিত গঙ্গা নদীর অংশটি মালামাল পরিবহনের জন্য ব্যবহার করা হচ্ছে - বেশীরভাগ স্থানীয় উৎপাদন এবং পর্যটক শিল্পের জন্য। নৌপরিবহণ মন্ত্রণালয়ের প্রকল্প হিসাবে এনডব্লিউ-১ বা "জাতীয় জলপথ ১" বেশিরভাগ বাল্ক পণ্য বহন করবে। এই পণ্যগুলি হল সিমেন্ট, লোহা আকরিক, কয়লা এবং কয়লার জ্বলন পণ্য, খনিজ তেল এবং পেট্রোলিয়াম পণ্য, শিলা ফসফেট, কাঠ, পাথর চিপ, ম্যাঙ্গানিজ আকরিক এবং কৃষি থেকে উৎপাদিত পণ্য। [২] এই অঞ্চলে উপস্থিত ইস্পাত কারখানা থেকে পাপ্ত লোহার বা ইস্পাতের পণ্যগুলিও হবে এই রুট বা জলপথের একটি প্রধান পণ্যসম্ভার।

জাতীয় জলপথ ১- এ ট্র্যাফিকের (পণ্যসম্ভার) পূর্বাভাস[২]
টার্মিনাল নোড (নদী বন্দর) প্রস্তাবিত কার্গো
(মিলিয়ন টন প্রতি বছর)
২০১৫ ২০৩০ ২০৪৫
সাহেবগঞ্জ টার্মিনাল ২.২৪ ৪.৩৯ ৯.০০
বারাণসী টার্মিনাল ০.৫৪ ১.২২ ১.২২
হলদিয়া টার্মিনাল ৪.০৭ ৪.০৭ ৪.০৭

বিতর্ক[সম্পাদনা]

"জাতীয় জলপথ ১" একটি বিতর্ক এবং বিক্ষোভের মধ্যে অবতরণ করে, যখন ২০১৪ সালের জুলাই মাসে কেন্দ্রীয় জাহাজ মন্ত্রালয়ের মন্ত্রী নিতিন গডকড়ী ঘোষণা করে যে, সরকার গঙ্গা নদীর উপর প্রতি ১০০ কিলোমিটার (৬২ মাইল) অন্তর বাঁধ নির্মাণ করবে এবং নদীর চিহ্নিত অংশে ড্রেজিং কার্যক্রম পরিচালনা করবে গঙ্গা নদীর পথে বারাণসী ও হলদিয়ার মধ্যে যাত্রী এবং পণ্যগুলির পরিবহনের উন্নয়নের জন্য। প্রথম পর্যায়ে ড্রেজিং করে ৪৫ মিটার (১৪৮ ফুট) প্রস্থ এবং ৩ মিটার (৯.৮ ফুট) একটি গভীরতা প্রদান করা হবে জলপথটিকে। [৩][৪] প্রাথমিক প্রস্তাবটি ড্যানিশ জলবিদ্যুৎ ইনস্টিটিউটের একটি গবেষণার উপর ভিত্তি করে তৈরি করা হয়েছে, যা এলাহাবাদ ও বারাণসী এবং বারাণসী ও বক্সার মধ্যবর্তী দুটি অঞ্চলে রিপোর্ট প্রকাশ করেছে। [৫] কোনও নাগরিক পরামর্শ ছাড়াই প্রযুক্তিগত সহায়তা সহ বিশ্বব্যাপী ৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার অর্থায়নে সম্মত হওয়ার পর ঘোষণাটি করা হয়। বেনারস হিন্দু বিশ্ববিদ্যালয়ের নদী কর্মী ও অধ্যাপকেরা এই কর্মকান্ডের সমালোচনা করেছিলেন। [৬]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Union Government launched National Waterway-4 project in Tamil Nadu", JagranJosh, ২৫ জানুয়ারি ২০১৪ 
  2. "Consolidated Environmental Impact Assessment Report for National Waterways-1" (pdf)report। Ministry of Shipping, Government of India। মে ২০১৬। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৬ 
  3. "A Waterway from Varanasi to Kolkata?"। The Times of India। ২০১৪-০৬-০৭। 
  4. "Centre Plans to Develop Ganga as a Major Water Corridor, Tourism Destination"। International Business Times। ২০১৪-০৭-০৯। 
  5. "World Bank yet to decide on funding Clean Ganga"। Deccan Herald। ২০১৪-১১-০৪। 
  6. "Inland waterways project will 'kill' the Ganga, warn activists"। The Hindu। ৭ আগস্ট ২০১৪। 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

official website CIWTC[স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]