জর্জ আলেকজান্ডার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
জর্জ আলেকজান্ডার
George Alexander Australian cricketer.jpg
১৮৮৪ সালের সংগৃহীত স্থিরচিত্রে জর্জ আলেকজান্ডার
ব্যক্তিগত তথ্য
জন্ম(১৮৫১-০৫-২২)২২ মে ১৮৫১
ফিৎজরয়, ভিক্টোরিয়া, অস্ট্রেলিয়া[১]
মৃত্যু৬ নভেম্বর ১৯৩০(1930-11-06) (বয়স ৭৯)
রিচমন্ড, ভিক্টোরিয়া, অস্ট্রেলিয়া[১]
ব্যাটিংয়ের ধরনডানহাতি
বোলিংয়ের ধরন-
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ১৮)
৬ সেপ্টেম্বর ১৮৮০ বনাম ইংল্যান্ড
শেষ টেস্ট১২ ডিসেম্বর ১৮৮৪ বনাম ইংল্যান্ড
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ২৪
রানের সংখ্যা ৫২ ৪৬৬
ব্যাটিং গড় ১৩.০০ ১৫.৫৩
১০০/৫০ ০/০ ০/২
সর্বোচ্চ রান ৩৩ ৭৫
বল করেছে ১৬৮ ১৭৫৪
উইকেট ৩৪
বোলিং গড় ৪৬.৫০ ১৭.৮৫
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ২/৬৯ ৬/৫৭
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ২/০ ১৬/০
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ১৯ জানুয়ারি ২০১৯

জর্জ আলেকজান্ডার (ইংরেজি: George Alexander; জন্ম: ২২ এপ্রিল, ১৮৫১ - মৃত্যু: ৬ নভেম্বর, ১৯৩০) অক্সফোর্ডশায়ারের ব্রিটওয়েল স্যালোম এলাকায় জন্মগ্রহণকারী ও ইংরেজ বংশোদ্ভূত প্রথিতযশা অস্ট্রেলীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ছিলেন। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৮৮০ থেকে ১৮৮৪ সময়কালে অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছেন।

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটে ভিক্টোরিয়ান বুশর‍্যাঞ্জার্স দলের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। দলে তিনি মূলতঃ ডানহাতি ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলতেন।

খেলোয়াড়ী জীবন[সম্পাদনা]

আক্রমণাত্মক ভঙ্গীমায় ব্যাটিংসহ ফাস্ট বোলিং করতেন জর্জ আলেকজান্ডার। ১৮৮০ ও ১৮৮৪ সালে বিলি মারডকের নেতৃত্বাধীন অস্ট্রেলিয়া দলের ইংল্যান্ড সফর ব্যবস্থাপনার সার্বিক দায়িত্বে ছিলেন তিনি। এছাড়াও, ১৮৮২-৮৩ মৌসুমে ইভো ব্লাইয়ের নেতৃত্বাধীন ইংরেজ দলের ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে ছিলেন। এ সফরেই ইংল্যান্ড দল অস্ট্রেলিয়া থেকে অ্যাশেজ পুণরুদ্ধার করতে সমর্থ হয়েছিল।

১৮৮০ সালে ব্যবস্থাপকের দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি জর্জ আলেকজান্ডার দলের অন্যতম বোলার হিসেবে যুক্ত ছিলেন। বিভিন্ন উপনিবেশে গমনের পাশাপাশি ইংল্যান্ডও গমন করেন। সামগ্রিকভাবে ঐ সফরে নয় রান গড়ে ১০৯ উইকেট পেয়েছিলেন। ইংরেজ ভূমিতে অনুষ্ঠিত ওভালের প্রথম টেস্টে তিনি খেলেছিলেন। খেলায় তিনি দুই উইকেট পান ও নবম উইকেট জুটিতে দলীয় অধিনায়কের সাথে ৫২ রান তুলেন। ফলে সফরকারী দল কোনক্রমে ইনিংস পরাজয় এড়াতে সমর্থ হয়। চার বছর বাদে অ্যাডিলেড ওভালে নিজস্ব দ্বিতীয় টেস্টে অংশগ্রহণের সুযোগ পান। তবে, এবার অবশ্য কোন উইকেটের সন্ধান পাননি তিনি।[২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. George Alexander. espncricinfo.com
  2. "Alexander, George (Australia)"। howstat। 

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]