চিকিৎসা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
সাবাহ, মালয়েশিয়ার একটি মেডিকেল স্কুল

চিকিৎসা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বলতে সেইসব উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে বোঝায়, যেখানে অধ্যয়ন শেষ করে ছাত্র-ছাত্রীরা পূর্ণাঙ্গ চিকিৎসকে পরিণত হয়। ইংরেজিতে এবং তার সরাসরি প্রতিবর্ণীকরণ, আংশিক অনুবাদ বা পূর্ণাঙ্গ অনুবাদ হিসেবে বাংলাতে এই প্রতিষ্ঠানগুলি মেডিকেল স্কুল, মেডিকেল কলেজ, মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, চিকিৎসা মহাবিদ্যালয়, ইত্যাদি বিভিন্ন নামে পরিচিত।

নিচে তালিকা আকারে বিভিন্ন দেশের চিকিৎসা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলির নাম দেয়া হল।

বাংলাদেশ[সম্পাদনা]

বাংলাদেশে চিকিৎসা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিকে "মেডিকেল কলেজ", "মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়", ইত্যাদি নামে ডাকা হয়। বাংলাদেশে মেডিকাল বিশ্ববিদ্যালয়গুলি হল চিকিৎসাশাস্ত্রীয় সর্বোচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান যাদের প্রতিটির অধীনে একাধিক মেডিকেল কলেজ থাকে।

বাংলাদেশের মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় তালিকা হিসাবে বাংলাদেশে সরাসরি সরকারের ব্যবস্থাপনাধীনে পরিচালিত মেডিকেল কলেজসমূহের তালিকাকে নির্দেশ করা হচ্ছে। ১৯৬৫ সালে ঢাকা নগরীর শাহবাগ এলাকাতে প্রতিষ্ঠিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় এদেশের প্রথম সরকারি পর্যায়ের চিকিৎসাশাস্ত্রীয় উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠান; পরবর্তীকালে আরও অনেকগুলি সরকারি মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠিত হওয়ায় বর্তমানে এই জাতীয় উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা চারটি।

নিচে বাংলাদেশের মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় সমূহের তালিকা প্রদান করা হলঃ

ভারত[সম্পাদনা]

পাকিস্তান[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "বিএসএমএমবি এর নতুন উপাচার্য"। ২৩ আগস্ট ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৯ মার্চ ২০২০ 
  2. ৩৪ জনকে নিয়োগ দেবে রাজশাহী মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় একুশে টেলিভিশন |প্রকাশিত : ২২ জুলাই ২০১৮ রবিবার
  3. প্রতিটি বিভাগে মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করে দেব: প্রধানমন্ত্রী যুগান্তর | ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, | অনলাইন সংস্করণ
  4. সিলেট মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় বিল পাস ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ তারিখে এনটিভি অনলাইন | ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮,
  5. আগামীতে ক্ষমতায় এলে প্রতিটি বিভাগে মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হবে একুশে টেলিভিশন | প্রকাশিত : ১২:৩৯ পিএম, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮ বৃহস্পতিবার | আপডেট: ০১:৫২ পিএম, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮ বৃহস্পতিবার