গিজা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
গিজা
الجيزة
ϯⲡⲉⲣⲥⲓⲥ, ϯⲡⲉⲣⲥⲓⲟⲓ
ϯⲡⲉⲣⲥⲓⲥ ⲙ̀ⲃⲁⲃⲩⲗⲱⲛ
শহর
Giza-Nile.JPG
Smartvillagelandscape.JPG
All Gizah Pyramids.jpg
Great Sphinx of Giza 0912.JPG
CairoUniv.jpg
উপর থেকে ঘড়ির কাটার দিকে:
গিজার পরিদৃশ্য, গিজার পিরামিড, কায়রো বিশ্ববিদ্যালয়, গিজার মহান স্ফিংক্স, স্মার্ট ভিলেজ
গিজার পতাকা
পতাকা
গিজার অফিসিয়াল সীলমোহর
সীলমোহর
গিজা মিশর-এ অবস্থিত
গিজা
গিজা
মিশরে গিজার অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২৯°৫৯′১৩″ উত্তর ৩১°১২′৪২″ পূর্ব / ২৯.৯৮৭০° উত্তর ৩১.২১১৮° পূর্ব / 29.9870; 31.2118স্থানাঙ্ক: ২৯°৫৯′১৩″ উত্তর ৩১°১২′৪২″ পূর্ব / ২৯.৯৮৭০° উত্তর ৩১.২১১৮° পূর্ব / 29.9870; 31.2118
দেশ মিশর
গভর্নরেটগিজা
স্থাপিত৬৪২ খ্রিস্টাব্দ
সরকার
 • মেয়রফাউদ আল মুহাম্মেদ সিসি
আয়তন
 • মোট১,৫৭৯.৭৫ বর্গকিমি (৬০৯.৯৪ বর্গমাইল)
উচ্চতা১৯ মিটার (৬২ ফুট)
জনসংখ্যা (অক্টোবর ২০১৮[১])
 • মোট৮৮,০০,০০০
 • জনঘনত্ব৫,৬০০/বর্গকিমি (১৪,০০০/বর্গমাইল)
 • Demonymগিজান গিজান্নে
সময় অঞ্চলমিশর মান সময় (ইউটিসি+২)
এলাকা কোড(+২০) ২
ওয়েবসাইটGiza.gov.eg

গিজা (/ˈɡzə/; কখনও কখনও গিযাহ বা জিযাহ হিসেবে উচ্চারিত হয়; আরবি: الجيزة‎‎ al-Jīzah, মিশরীয় আরবি: el ˈgiːze) হচ্ছে মিশরের তৃতীয় বৃহত্তম শহর এবং গিজা প্রদেশের রাজধানী। এটি নীল নদের পশ্চিম তীরে অবস্থিত, মধ্য কায়রো থেকে এটি ৪.৯ কিলোমিটার (৩ মাইল) দক্ষিণ-পশ্চিমে। এছাড়া এটি বৃহত্তর কায়রো মহানগরীর একটি মূল শহর।

গিজা মেম্পিস (মেন-নেফার) থেকে ২০ কিলোমিটার (১২.৪৩ মাইল) উত্তরে অবস্থিত, যা প্রথম ফারাও নারমারের সময় থেকে প্রথম ঐক্যবদ্ধ মিশরীয় রাষ্ট্রের রাজধানী ছিল।

গিজা, গিজা মালভূমির জন্য সবচেয়ে বেশি বিখ্যাত। গিজা মালভূমিতে বিশ্বের সবচেয়ে চিত্তাকর্ষক কিছু প্রাচীন স্মৃতিস্তম্ভ রয়েছে, যার মধ্যে রয়েছে প্রাচীন মিশরীয় রাজকীয় মর্গ এবং পবিত্র কাঠামোর একটি কমপ্লেক্স। কমপ্লেক্সটির ভিতরে আছে মহান স্ফিংক্স[২], গিজার মহান পিরামিড, এবং আরও বেশ কিছু বড় পিরামিড এবং মন্দির। গিজা সবসময় মিশরের ইতিহাসের একটি কেন্দ্রবিন্দু ছিল। কারণ এর অবস্থান পুরাতন রাজ্যের প্রাচীন রাজধানী মেম্ফিসের কাছাকাছি। এর সেন্ট জর্জ ক্যাথিড্রাল, গিজার কপ্ট ক্যাথলিক ইপারচির এপিস্কোপাল নিদর্শন।

ভূগোল[সম্পাদনা]

গিজা শহর গিজা প্রদেশের রাজধানী, এবং এই প্রদেশের উত্তর-পূর্ব সীমান্তের কাছে অবস্থিত। ২০০৬ সালের জাতীয় আদমশুমারিতে শহরের জনসংখ্যা ছিল ২,৬৮১,৮৬৩ জন,[৩][৪] যখন কোন শহর তা উল্লেখ না করেই গভর্নরেটের একই আদমশুমারিতে জনসংখ্যা ছিল ৬,২৭২,৫৭১ জন। পূর্বের হিসাবটি গভর্নরেটের ৯ টি কিজমের জনসংখ্যার যোগফলের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ।

কৌশলগতভাবে, গিজা একটি সমন্বিত পৌর ইউনিট (এবং তাই এটি শহর নয়) নাও হতে পারে। একটি সাধারণ মিশরীয় পদ্ধতিতে, গভর্নরেটের মধ্যে দুটি জেলা একই নামে বিদ্যমান: একটি কিসম বা কাসম এবং অন্যটি সংশ্লিষ্ট মার্কিজ। গিজা প্রদেশের প্রায় ৯টি শহুরে কিসম সম্মিলিতভাবে কায়রো থেকে নীল নদের বিপরীত দিকে ৯৮.৪ বর্গ কিলোমিটার এলাকা গঠন করে এবং ২০১৭ সালের আদমশুমারি গণনায় ৪,১৪৬,৩৪০ জন মানুষ প্রাথমিক গণনায় নথিবদ্ধ হয়,[৫] গিজা মারকিজ থেকে পৃথককৃত আল হাওয়ামিদিয়া কিসম এর অন্তর্ভুক্ত নয়। এটি অস্পষ্ট যে ৯টি শহুরে কিসম একটি একক সত্তার প্রতিনিধিত্ব করে কিনা; কাঠামোটি টোকিওর ২৩টি ওয়ার্ডের অনুরূপ হতে পারে যে সকল স্থানীয় ইউনিট কোন অন্তর্বর্তী পৌর কাঠামো ছাড়াই টোকিও জেলার অধীনস্থ।

গিজার সবচেয়ে বিখ্যাত ভূমিরূপ এবং প্রত্নতাত্ত্বিক স্থান হচ্ছে, গিজা মালভূমি। এখানে মিশরীয় ইতিহাসের কিছু প্রধান স্মৃতিস্তম্ভ আছে, এবং এটি মহান স্ফিংক্সের আবাসস্থল। কোনো এক সময় গিজা মালভূমির দিকে বহমান নীল নদের বর্ধিত অংশে প্রাচীন মিশরীয় রাজধানী মেম্ফিসকে উপেক্ষা করে গিজার পিরামিডগুলো নির্মিত হয়েছিল। এছাড়াও গিজা মালভূমিতে মিশরীয় স্মৃতিস্তম্ভ যেমন প্রথম রাজবংশের ফারাও ডিজেটের সমাধি, সেইসাথে দ্বিতীয় রাজবংশের ফারাও নিতেজারের সমাধি রয়েছে। গিজার মহান পিরামিডকে এক সময় প্রাইম মেরিডিয়ানের অবস্থান হিসেবে (১৮৮৪) উল্লেখ করা হয়, যা একটি বেস দ্রাঘিমাংশ নির্ধারণের জন্য ব্যবহৃত একটি রেফারেন্স পয়েন্ট।[৬]

জলবায়ু[সম্পাদনা]

গিজার মহান পিরামিড

গিজায় শুষ্ক জলবায়ুর মত একটি উষ্ণ মরুভূমির জলবায়ু অনুভুত হয় (কোপেন: বিডব্লিউএইচ)। কায়রোর নৈকট্যের কারণে, এর জলবায়ু কায়রোর অনুরূপ। বসন্তে মিশর জুড়ে ঝড়ো বাতাস ঘন ঘন হতে পারে, মার্চ এবং এপ্রিল মাসে শহরে সাহারার ধূলিকণা উড়ে আসে। শীতকালে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ১৬° থেকে ২০° সেলসিয়াস (৬১° থেকে ৬৮° ফারেনহাইট) পর্যন্ত, যখন রাতে সর্বনিম্ন ৭° সেলসিয়াসের (৪৫° ফারেনহাইট) নিচে নেমে আসে। গ্রীষ্মকালে, সর্বোচ্চ ৪০° সেলসিয়াস (১০৪° ফারেনহাইট), এবং সর্বনিম্ন প্রায় ২০° সেলসিয়াসে (৬৮° ফারেনহাইট) নেমে যেতে পারে। গিজায় ঘন ঘন বৃষ্টি হয়; তুষার এবং হিমায়িত তাপমাত্রা অত্যন্ত বিরল।

আগস্ট ২০১৩ পর্যন্ত, সর্বোচ্চ তাপমাত্রার রেকর্ড ছিল, ১৩ জুন ১৯৬৫ সালের ৪৬° সেলসিয়াস (১১৫° ফারেনহাইট), যখন সর্বনিম্ন রেকর্ড তাপমাত্রা হচ্ছে ৮ জানুয়ারি ১৯৬৬ সালের ২° সেলসিয়াস (৩৬° ফারেনহাইট)।[৭]

Giza-এর আবহাওয়া সংক্রান্ত তথ্য
মাস জানু ফেব্রু মার্চ এপ্রিল মে জুন জুলাই আগস্ট সেপ্টে অক্টো নভে ডিসে বছর
সর্বোচ্চ রেকর্ড °সে (°ফা) ২৮
(৮২)
৩০
(৮৬)
৩৬
(৯৭)
৪১
(১০৬)
৪৩
(১০৯)
৪৬
(১১৫)
৪১
(১০৬)
৪৩
(১০৯)
৩৯
(১০২)
৪০
(১০৪)
৩৬
(৯৭)
৩০
(৮৬)
৪৬
(১১৫)
সর্বোচ্চ গড় °সে (°ফা) ১৯.৩
(৬৬.৭)
২০.৯
(৬৯.৬)
২৪.২
(৭৫.৬)
২৮.৪
(৮৩.১)
৩২.০
(৮৯.৬)
৩৪.৯
(৯৪.৮)
৩৪.৫
(৯৪.১)
৩৪.৪
(৯৩.৯)
৩২.৪
(৯০.৩)
৩০.২
(৮৬.৪)
২৫.৪
(৭৭.৭)
২১.১
(৭০.০)
২৮.১
(৮২.৬)
দৈনিক গড় °সে (°ফা) ১৩.০
(৫৫.৪)
১৪.০
(৫৭.২)
১৭.২
(৬৩.০)
২০.৫
(৬৮.৯)
২৪.০
(৭৫.২)
২৭.১
(৮০.৮)
২৭.৫
(৮১.৫)
২৭.৫
(৮১.৫)
২৫.৬
(৭৮.১)
২৩.৫
(৭৪.৩)
১৯.২
(৬৬.৬)
১৫.০
(৫৯.০)
২১.২
(৭০.১)
সর্বনিম্ন গড় °সে (°ফা) ৬.৮
(৪৪.২)
৭.২
(৪৫.০)
১০.৩
(৫০.৫)
১২.৭
(৫৪.৯)
১৬.১
(৬১.০)
১৯.৩
(৬৬.৭)
২০.৬
(৬৯.১)
২০.৭
(৬৯.৩)
১৮.৯
(৬৬.০)
১৬.৮
(৬২.২)
১৩.০
(৫৫.৪)
৮.৯
(৪৮.০)
১৪.৩
(৫৭.৭)
সর্বনিম্ন রেকর্ড °সে (°ফা)
(৩৬)

(৩৯)

(৪১)

(৪৬)
১১
(৫২)
১৬
(৬১)
১৭
(৬৩)
১৭
(৬৩)
১৬
(৬১)
১১
(৫২)

(৩৯)

(৩৯)

(৩৬)
অধঃক্ষেপণের গড় মিমি (ইঞ্চি)
(০.২)

(০.১)

(০.১)

(০.০)

(০)

(০)

(০)

(০)

(০)

(০)

(০.১)

(০.২)
১৭
(০.৭)
উৎস ১: Climate-Data.org[৮]
উৎস ২: Voodoo Skies[৭] for record temperatures

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "الجهاز المركزي للتعبئة العامة والإحصاء"www.capmas.gov.eg। ১ অক্টোবর ২০১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ অক্টোবর ২০১৮ 
  2. স্ফিংক্স হচ্ছে গ্রীক পুরাণে উল্লেখিত সিংহের মতো দেহবিশিষ্ট নারীর মাথার ভাষ্কর্য।
  3. Anthony Appiah; Henry Louis Gates (Jr.) (২০১০)। Encyclopedia of Africa। Oxford University Press। পৃষ্ঠা 403। আইএসবিএন 978-0-19-533770-9 
  4. "Archived copy"। ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 
  5. "Archived copy"। ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১১ আগস্ট ২০১৮ 
  6. "The Canary Islands and the Question of the Prime Meridian: The Search for Precision in the Measurement of the Earth", Wilcomb E. Washburn. link ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ২৯ মে ২০০৭ তারিখে
  7. "El-Giza, Egypt"। Voodoo Skies। ২৯ অক্টোবর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৬ আগস্ট ২০১৩ 
  8. "Climate: Giza – Climate graph, Temperature graph, Climate table"। Climate-Data.org। ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৬ আগস্ট ২০১৩