গনসালো গেজেস

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
গনসালো গেজেস
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম গনসালো মানুয়েল গানচিনয়ো গেজেস
জন্ম (1996-11-29) ২৯ নভেম্বর ১৯৯৬ (বয়স ২২)
জন্ম স্থান বেনাভেঞ্চে, পর্তুগাল
উচ্চতা ১.৭৯ মিটার (৫ ফুট ১০  ইঞ্চি)
মাঠে অবস্থান আক্রমণভাগের খেলোয়াড়
ক্লাবের তথ্য
বর্তমান ক্লাব ভ্যালেন্সিয়া
(প্যারিস সেন্ট জার্মেই হতে ধারে)
জার্সি নম্বর
যুব পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন
২০০৫–২০১৪ বেনফিকা
জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের খেলোয়াড়ী জীবন*
বছর দল উপস্থিতি (গোল)
২০১৪–২০১৬ বেনফিকা বি ৩৮ (১১)
২০১৪–২০১৭ বেনফিকা ৩৯ (৫)
২০১৭– প্যারিস সেন্ট জার্মেই (০)
২০১৭–ভ্যালেন্সিয়া (ধার) ৩১ (৪)
জাতীয় দল
২০১১ পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-১৫ (০)
২০১১–২০১২ পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-১৬ ১৪ (১)
২০১২–২০১৩ পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-১৭ ১৫ (২)
২০১৩–২০১৪ পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-১৮ (৩)
২০১৪ পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-১৯ (২)
২০১৫ পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-২০ (০)
২০১৫– পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-২১ ১২ (৫)
২০১৫– পর্তুগাল অনূর্ধ্ব-২৩ (০)
২০১৫– পর্তুগাল (১)
  • পেশাদারী ক্লাবের উপস্থিতি ও গোলসংখ্যা শুধুমাত্র ঘরোয়া লিগের জন্য গণনা করা হয়েছে এবং ৮ মে ২০১৮ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

† উপস্থিতি(গোল সংখ্যা)।

‡ জাতীয় দলের হয়ে খেলার সংখ্যা এবং গোল ২৬ মার্চ ২০১৮ তারিখ অনুযায়ী সঠিক।

গনসালো মানুয়েল গানচিনয়ো গেজেস (জন্ম: ২৯ নভেম্বর ১৯৯৬) হলেন একজন পর্তুগিজ পেশাদার ফুটবলার, যিনি ফরাসি ক্লাব প্যারিস সেন্ট জার্মেই হতে স্পেনীয় লা লিগা ক্লাব ভ্যালেন্সিয়ায় ধারে এবং পর্তুগাল জাতীয় দলের হয়ে একজন আক্রমণভাগের খেলোয়াড় হিসেবে খেলেন।

২০১৪ সালের এপ্রিল মাসে, তিনি বেনফিকার হয়ে খেলার মাধ্যমে তার পেশাদার ক্যারিয়ার শুরু করেন, এর ৬ মাস পর তিনি প্রথম দলের হয়ে অভিষেক করেন। সকল প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৬৩টি ম্যাচে ১১ গোল, ৫টি শীর্ষ ট্রফি জয়লাভ করার পর ২০১৭ সালের জানুয়ারি মাসে, তিনি ফরাসি ক্লাব প্যারিস সেন্ট জার্মেইয়ে যোগদান করেন।

গেজেস পর্তুগালের বয়সভিত্তিক দলের হয়ে সর্বমোট ৫০টি ম্যাচ খেলছেন। তিনি পর্তুগালের অনূর্ধ্ব-১৫ হতে অনূর্ধ্ব-২৩ পর্যন্ত সকল দলের হয়ে খেলেছেন। ২০১৫ সালের নভেম্বর মাসে, মাত্র ১৮ বছর বয়সে তিনি পর্তুগাল জাতীয় দলের হয়ে খেলার মাধ্যমে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অভিষেক করেন।

ক্যারিয়ার পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

আন্তর্জাতিক[সম্পাদনা]

২৬ মার্চ ২০১৮ পর্যন্ত হালনাগাদকৃত।[১]
জাতীয় দল সাল উপস্থিতি গোল
পর্তুগাল ২০১৫
২০১৬
২০১৭
২০১৮
মোট

আন্তর্জাতিক গোল[সম্পাদনা]

স্কোর এবং ফলাফলের কলামে পর্তুগালের গোলসংখ্যা প্রথমে উল্লেখ করা হয়েছে।[১]
নং. তারিখ ভেন্যু প্রতিপক্ষ স্কোর ফলাফল প্রতিযোগিতা
১. ১০ নভেম্বর ২০১৭ এস্তাদিও দো ফন্তেলো, ভিজেও, পর্তুগাল  সৌদি আরব –০ ৩–০ প্রীতি ম্যাচ

সম্মাননা[সম্পাদনা]

ক্লাব[সম্পাদনা]

বেনফিকা[২]
প্যারিস সেন্ট জার্মেই

ব্যক্তিগত[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Guedes, Gonçalo"। National Football Teams। সংগ্রহের তারিখ ৭ অক্টোবর ২০১৭ 
  2. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; sw নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  3. Cunha, Pedro Jorge (১৭ মে ২০১৫)। "Benfica bicampeão: 28 com as faixas e dois à espera" [Benfica back-to-back champion: 28 with the sashes and two await] (Portuguese ভাষায়)। Maisfutebol। সংগ্রহের তারিখ ১৯ মে ২০১৫ 
  4. "Campeão à distância também celebra o tetracampeonato" (Portuguese ভাষায়)। O Jogo। ১৩ মে ২০১৭। সংগ্রহের তারিখ ২৯ মে ২০১৭ 
  5. "'Proud' Benfica hold heads high after final defeat"UEFA। ১৪ এপ্রিল ২০১৪। সংগ্রহের তারিখ ৯ সেপ্টেম্বর ২০১৪ 
  6. উদ্ধৃতি ত্রুটি: অবৈধ <ref> ট্যাগ; awards 2015 নামের সূত্রের জন্য কোন লেখা প্রদান করা হয়নি
  7. "Gonçalo Guedes do Benfica eleito Melhor Jogador do mês de Outubro" [Benfica's Gonçalo Guedes voted Best Player of October]। ligaportugal.pt (Portuguese ভাষায়)। LPFP। ১৯ নভেম্বর ২০১৪। ৬ অক্টোবর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২১ নভেম্বর ২০১৪ 
  8. "Gonçalo Guedes eleito melhor jogador da Segunda Liga (dezembro)" [Gonçalo Guedes elected best player of Segunda Liga (December)]। ligaportugal.pt (Portuguese ভাষায়)। LPFP। ২৬ জানুয়ারি ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ ২৮ জানুয়ারি ২০১৫ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:Valencia CF squad