গণ বিশ্ববিদ্যালয়

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(গণবিশ্ববিদ্যালয় থেকে পুনর্নির্দেশিত)
গণ বিশ্ববিদ্যালয়
Gono University Campus.jpg
ধরনবেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়
স্থাপিত১৯৯৮
আচার্যরাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ
অবস্থান
মির্জানগর
, ,
শিক্ষাঙ্গনশহুরে
অধিভুক্তিবিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন
ওয়েবসাইটwww.gonouniversity.edu.bd
গণবিশ্ববিদ্যালয় লোগো.jpg

গণ বিশ্ববিদ্যালয় ১৯৯৮ সালে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়।[১] বর্তমানে সাভারের নলামে বিশ্ববিদ্যালয়টি তাদের নিজস্ব ক্যাম্পাসে একাডেমিক এবং প্রশাসনিক কার্যক্রম পরিচালনা করছেন। ৪টি অনুষদে মোট ১৪টি বিভাগ নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়টি পরিচালিত হচ্ছে। এখানে রয়েছে সাংবাদিক সমিতি। যার সংক্ষিপ্ত নাম গবিসাস

ইতিহাস[সম্পাদনা]

১৯৯৮ সালের ১৪ জুলাই গণ বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠিত হয়। গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র নামের বেসকারি দাতব্য সংস্থা এটি প্রতিষ্ঠা করে।

গণ বিশ্ববিদ্যালয়, বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন কর্তৃক স্বীকৃত এবং বাংলাদেশ সরকারের শিক্ষা মন্ত্রণালয় কর্তৃক অনুমোদিত। এখানের স্বাস্থ্য সম্পর্কিত প্রধান কোর্সগুলি বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিল (বিএমডিসি) এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় কর্তৃক অনুমোদিত।

অনুষদ[সম্পাদনা]

  • স্বাস্থ্য বিজ্ঞান অনুষদ
  • কলা ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ
  • বিজ্ঞান ও প্রকৌশল অনুষদ
  • পশু চিকিৎসা ও পশু বিজ্ঞান অনুষদ
  • স্নাতকোত্তর অধ্যয়ন অনুষদ

বিভাগ[সম্পাদনা]

  • কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগ
  • মেডিকেল ফিজিক্স ও বায়োমেডিকেল প্রকৌশল বিভাগ
  • ফলিত গণিত বিভাগ
  • তড়িৎ ও ইলেকট্রনিক প্রকৌশল বিভাগ
  • রসায়ন ও পদার্থবিজ্ঞান বিভাগ
  • ফার্মাসি বিভাগ
  • ফিজিওথেরাপি বিভাগ
  • জৈব রসায়ন ও আণবিক জীববিজ্ঞান বিভাগ
  • রাজনীতি ও প্রশাসন বিভাগ
  • ইংরেজি বিভাগ
  • আইন বিভাগ
  • সমাজবিজ্ঞান ও সামাজকর্ম বিভাগ
  • ভাষা, যোগাযোগ ও সংস্কৃতি বিভাগ
  • নৈতিকতা ও সমদর্শিতা/দর্শন বিভাগ
  • পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগ
  • পশু ও প্রাণী বিজ্ঞান বিভাগ

অন্যান্য কার্যক্রম[সম্পাদনা]

ভাষা আন্দোলন এবং বাংলা ভাষার উন্নয়নের সঙ্গে সম্পর্কিত চারজন বিশিষ্ট ব্যক্তিকে সম্মাননা দিয়েছে গণ বিশ্ববিদ্যালয়। সম্মাননা প্রাপ্তরা হলেন ভাষাসৈনিক আব্দুল মতিন, বিচারপতি মুহাম্মদ হাবিবুর রহমান, বদরুদ্দীন উমর ও ড. হালিমা খাতুন। [২] এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪০ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে মুক্তিযুদ্ধে অনন্য অবদানের জন্য ৩৩ জন বিশিষ্ট ব্যক্তিকে সম্মাননা ও উপহার দেওয়া হয়। [৩]

চিত্রশালা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন"। ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ আগস্ট ২০১২ 
  2. দৈনিক কালের কন্ঠ
  3. "বাংলানিউজ ২৪ ডট কম"। ১৯ আগস্ট ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৭ মার্চ ২০১৩