খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনী

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনী
খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনী.png
অপারেশন তারিখ১৯৮৮-বর্তমান
নেতারঞ্জিত সিং নীতা
উদ্দেশ্যপাঞ্জাব ও প্রতিবেশী রাজ্যের কয়েকটি জেলা নিয়ে খালিস্তান নামক একটি শিখ স্বাধীন রাষ্ট্র সৃষ্টি।
সক্রিয় অঞ্চলভারত
অধিবিদ্যাশিখ জাতীয়তাবাদ
অবস্থাসক্রিয়[১]

খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনী সংক্ষেপে (KZF) একটি সংগ্রামী দল, এবং খালিস্তান আন্দোলনের অংশ, যারা সশস্ত্র সংগ্রামের মাধ্যমে খালিস্তান নামে শিখ জাতির স্বদেশ গঠনের জন্য আন্দোলনরত সংগ্রামী বাহিনী।

সংগঠন এবং সক্রিয়তা[সম্পাদনা]

খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনীর প্রধান কর্মকর্তা রণজিৎ সিং নীতা, যিনি একজন কাশ্মীরি শিখ[১] ২০০৮ সালে ভারত সরকার তাঁকে ভারতের প্রথম ২০ জন দাগী আসামি হিসেবে ঘোষণা করে।[২]

বহিনীর শক্তি এবং স্ট্রাইকিং ক্ষমতা এখনও অজানা, কিন্তু বলা হয় যে খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনীটি কাশ্মীরের অন্যান্য জঙ্গি গোষ্ঠীগুলোকে সহায়তার জন্য গঠন করা হয়।[১] ২০০৫ সালের ডিসেম্বরে ইউরোপীয় সংঘ ও সংঘের ২৫টি সদস্য রাষ্ট্র খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনীটিকে একটি সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেব শ্রেণীভুক্ত করে।[৩] এক প্রতিবেদনে বলা হয় যে, "খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনী ২০০৮ সাল পর্যন্ত সক্রিয় ছিল"।[১]

মে, ২০০৯ সালে অস্ট্রিয়ার ভিয়েনায় গুরুদুয়ারা নানাকসরে পরিচালিত আক্রমণে খালিস্তান জিন্দাবাদ বাহিনীর সম্পৃক্ততার বিষয়ে দাবী করার পাশাপাশি[৪][৫] অস্বীকার করা হয়।[৪][৬] এতে ডেরা সাচ খন্দের নেতা রামা নন্দ নিহত হন ও ১৭জন আহত হয়।[৭][৮] এ ঘটনার প্রেক্ষিতে ভারতের উত্তরাংশে ব্যাপক দাঙ্গা ছড়িয়ে পড়েছিল।[৯][১০][১১][১২][১৩]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Ranjit Singh Neeta (Khalistan Zindabad Force)" (ইংরেজি ভাষায়)। The Indian Express। ডিসেম্বর ৪, ২০০৮। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৬-১৮ 
  2. "10) Ranjit Singh Neeta" (ইংরেজি ভাষায়)। rediff.com। জুন ২৪, ২০০৮। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৬-১৯ 
  3. http://eur-lex.europa.eu/LexUriServ/site/en/oj/2005/l_340/l_34020051223en00640066.pdf
  4. "KZF takes responsibility for Vienna temple massacre" (ইংরেজি ভাষায়)। Austriantimes.at। ২৯ মে ২০০৯। ২০০৯-০৬-০৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৫-৩১ 
  5. "Sikh: Alarm vor Tag der offenen Tür in Wien" (জার্মান ভাষায়)। Die Presse। ২০০৯-০৫-২৮। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৬-০২ 
  6. Sanjeev Singh Bariana (May 28, 2009)। "KZF denies involvement in attack"। The Tribune। সংগ্রহের তারিখ 2009-05-31language=ইংরেজি  এখানে তারিখের মান পরীক্ষা করুন: |সংগ্রহের-তারিখ= (সাহায্য)
  7. "KZF takes responsibility for Vienna temple massacre – General News – Austrian Times" (ইংরেজি ভাষায়)। Austriantimes.at। ২০০৯-০৬-০৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৮-০৯ 
  8. "Suspects in Sikh temple attack identified: Austria - India - NEWS - The Times of India" (ইংরেজি ভাষায়)। The Times of India। ২৯ মে ২০০৯। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৮-০৯ 
  9. "South Asia | Punjab riots after Vienna killing" (ইংরেজি ভাষায়)। BBC News। ২০০৯-০৫-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৮-০৯ 
  10. "From Vienna To Jalandhar" (ইংরেজি ভাষায়)। www.outlookindia.com। ২০০৯-০৫-২৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৮-০৯ 
  11. "সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি" (ইংরেজি ভাষায়)। ৬ জুন ২০০৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ মে ৩০, ২০০৯ 
  12. "Europe | Preacher dies after Vienna clash" (ইংরেজি ভাষায়)। BBC News। ২০০৯-০৫-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০৮-০৯ 
  13. "KZF claims responsibility for Vienna attack; Babbar Khalsa condemns killing"The Indian Government (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৫