খালিদ সাইফুল্লাহ রহমানি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
মুফতি, মাওলানা

খালিদ সাইফুল্লাহ রহমানি
Khalid Saifullah Rahmani (2018).jpg
২০১৮ সালে রহমানি
ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক, অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ড
দায়িত্বাধীন
অধিকৃত কার্যালয়
২০২১
পূর্বসূরীওয়ালি রহমানি
সাধারণ সম্পাদক, ইসলামি ফিকহ একাডেমি, ভারত
ব্যক্তিগত
জন্মনভেম্বর ১৯৫৬
দ্বারভাঙা, বিহার, ভারত
ধর্মইসলাম
জাতীয়তাভারতীয়
আখ্যাসুন্নি
ব্যবহারশাস্ত্রহানাফি
আন্দোলনদেওবন্দি
প্রধান আগ্রহফিকহ
যেখানের শিক্ষার্থীদারুল উলুম দেওবন্দ
আত্মীয়মুজাহিদুল ইসলাম কাসেমি (চাচা)
ঊর্ধ্বতন পদ
ওয়েবসাইটkhalidrahmani.in

খালিদ সাইফুল্লাহ রহমানি (জন্ম: নভেম্বর ১৯৫৬) একজন ভারতীয় ইসলামি পণ্ডিত, ফকিহ ও লেখক। তিনি অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক এবং ইসলামি ফিকহ একাডেমি, ভারতের সাধারণ সম্পাদক।

জীবনী[সম্পাদনা]

খালিদ সাইফুল্লাহ রহমানি ১৯৫৬ সালের নভেম্বরে জন্মগ্রহণ করেন।[১] তিনি মুজাহিদুল ইসলাম কাসেমির ভাগ্নে।[১] পারিবারেই তার প্রাথমিক শিক্ষার হাতেখড়ি। এরপর মাদ্রাসা কাসেমুল উলুম হুসায়নিয়ায় দুই বছর অধ্যয়ন করেন। তিনি মুঙ্গেরের জামিয়া রাহমানি থেকে দাওরায়ে হাদিস (স্নাতক) সমাপ্ত করেন এবং ১৩৯৫ হিজরিতে দারুল উলুম দেওবন্দ থেকে পুনরায় দাওরায়ে হাদিস সমাপ্ত করেন।[২] পরবর্তীতে তিনি পাটনার ইমারাতে শরিয়াতে ফিকহশাস্ত্রে বিশেষায়িত হন। তার শিক্ষকদের মধ্যে আনজার শাহ কাশ্মীরি, মাহমুদ হাসান গাঙ্গুহী এবং মুহাম্মদ সালেম কাসেমি অন্যতম। তিনি তার চাচা মুজাহিদুল ইসলাম কাসেমি থেকেও উপকৃত হয়েছেন।[২]

তিনি ১৩৯৮ হিজরিতে মাদ্রাসা সাবিলুস সালামে শিক্ষকতা শুরু করেন, ১৩৯৯ হিজরিতে সেখানে প্রধান শিক্ষক নিযুক্ত হন। তিনি সেখানে ২২ বছর শিক্ষকতা করেন এবং হায়দ্রাবাদে আল মাহদুল আলি আল ইসলামি প্রতিষ্ঠা করেন।[৩] তিনি দ্বারভাঙার সাবিলুল ফালাহ এবং মাদ্রাসা আল ফালিহাত, অন্ধ্রপ্রদেশের মাদ্রাসা নুরুল উলুম এবং কর্ণাটকের মাদ্রাসা তালিমুল কুরআন লিল বানাত প্রতিষ্ঠায় সহায়তা করেছেন।[৪]

তিনি অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের লিগ্যাল কাউন্সিলের সদস্য এবং ইসলামি ফিকহ একাডেমি, ভারতের সাধারণ সম্পাদক।[৪] তিনি মুন্সেফের শুক্রবার সংস্করণের নিয়মিত কলাম লেখক এবং মুজাহিদুল ইসলাম কাসেমির প্রতিষ্ঠিত ত্রৈমাসিক বেহস ও নজরের সম্পাদক।[৫] ২০২১ সালে ওয়ালি রহমানির মৃত্যুর পর তিনি অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের অন্তর্বর্তীকালীন সাধারণ সম্পাদক নিযুক্ত হন।[৬]

সাহিত্যকর্ম[সম্পাদনা]

তার রচনাবলির মধ্যে রয়েছে:[৭]

  • আসান তাফসিরে কুরআন মজিদ
  • ফিকহে ইসলামি: তাদওয়িন ওয়া তারুফ
  • ইসলাম কা নিজাম উশর ওয়া যাকাত
  • খাওয়াতিন কে মালি হক্ব: শরিয়তে ইসলামি কি নজর মে
  • কিতাব আল ফাতওয়া
  • কামুস আল ফিকহ
  • কুরআন: এক ইলহামি কিতাব

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

উদ্ধৃতি[সম্পাদনা]

গ্রন্থপঞ্জি[সম্পাদনা]

  • গাজি কাসেমি, আফতাব; হাসিব কাসেমি, আব্দুল (২০১১)। ফুজালায়ে দেওবন্দ কি ফিকহি খিদমাত (উর্দু ভাষায়)। দেওবন্দ: কুতুবখানা নঈমিয়া। পৃষ্ঠা ৩৯৫–৪১০। 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]