বিষয়বস্তুতে চলুন

খার্তুম আন্তর্জাতিক কুরআন পুরস্কার

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
খার্তুম আন্তর্জাতিক পবিত্র কুরআন পুরস্কার
পুরস্কারের লোগো
পৃষ্ঠপোষক
  • সুদান সরকার
  • সুদান স্কলারস অ্যাসোসিয়েশন
  • সুদান পবিত্র কোরআন সোসাইটি
তারিখ২০০৭; ১৭ বছর আগে (2007)
দেশসুদান
প্রথম পুরস্কৃত২০০৭
ওয়েবসাইটsunniaffairs.gov.iq/ar/khartoum_competition_for_quran

খার্তুম আন্তর্জাতিক পবিত্র কোরআন পুরস্কার ২০০৭ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল।[১] এটি সুদানের রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্তে পবিত্র কুরআন শিক্ষার প্রতি মনোযোগ দেওয়ার লক্ষ্যে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছিলো।তরুণ মুসলমানদের সর্বশক্তিমান আল্লাহর কিতাব পবিত্র কুরআন মুখস্থ, উপলব্ধি এবং কর্ম বাস্তবায়নের পাশাপাশি ইসলামের দিকে কীভাবে ফিরে নিয়ে যাওয়া যায়, সেটা সংকল্প ও পরিকল্পনা করেছিলেন। অধ্যায় 21-এর ব্যাখ্যা সহ সম্পূর্ণ পবিত্র কুরআন মুখস্থ করার জন্য উভয় লিঙ্গের জন্য প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। প্রতিযোগিতাটি সুদান স্কলারস অ্যাসোসিয়েশনের তত্ত্বাবধানে এবং প্রজাতন্ত্রের প্রেসিডেন্সির পৃষ্ঠপোষকতায় পবিত্র কোরআন সোসাইটির মাধ্যমে আয়োজন করা হয়।

পাঠ্যধারাগুলি[সম্পাদনা]

প্রথম অধিবেশন

নবম অধিবেশন:

কুরআনের মানুষকে সুদানের উষ্ণ অভ্যর্থনা শিরোনামে [২]

মরক্কোর আহমেদ আল-ওয়াহেদ আহমেদ আশেরি প্রথম স্থান অধিকার করেন। [৩]

পুরস্কার শাখা[সম্পাদনা]

  • প্রথম শাখাঃ অংশের অর্থ সহ সম্পূর্ণ কুরআনের
  • দ্বিতীয় শাখাঃ সাতটি পাঠ
  • তৃতীয় শাখাঃ পর্যায়ক্রমিক বিভাগ
  • চতুর্থ শাখাঃ, শেষ অর্ধেক
  • শেষ পঞ্চম শাখাটি পুরুষ
  • শেষ ষোলতম অধ্যায়
  • সপ্তম অধ্যায়, চাচা এবং আশীর্বাদ (সংশোধনমূলক ঘর)
  • অষ্টম ধারা, সঠিক তেলাওয়াত
  • দশম শাখা।[৪]

আরো দেখুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

২০১৮ খার্তুম পুরস্কার বিজয়ীরা

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]