ক্যাথরিন হৌটন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ক্যাথরিন হৌটন
Katharine Houghton
Carl Betz Katharine Houghton Judd for the Defense.JPG
জুড ফর দ্য ডিফেন্স (১৯৬৮)-এ সহশিল্পী কার্ল বেট্‌জের সাথে অতিথি চরিত্রে হৌটন
জন্ম
ক্যাথরিন হৌটন গ্র্যান্ট

(1945-03-10) ১০ মার্চ ১৯৪৫ (বয়স ৭৬)
মাতৃশিক্ষায়তনসারাহ লরেন্স কলেজ
পেশাঅভিনেত্রী, নাট্যকার
কর্মজীবন১৯৬৬-বর্তমান
দাম্পত্য সঙ্গীকেন জেনকিন্স (বি. ১৯৭০)
পিতা-মাতাএলসওয়ার্থ গ্র্যান্ট (পিতা)
ম্যারিয়ন হেপবার্ন (মাতা)
আত্মীয়ক্যাথরিন মার্থা হৌটন হেপবার্ন (মাতামহী)
ক্যাথরিন হেপবার্ন (খালা)
শুইলার গ্র্যান্ট (ভাগ্নি)

ক্যাথরিন হৌটন (ইংরেজি: Katharine Houghton; জন্ম: ক্যাথরিন হৌটন গ্র্যান্ট, ১০ মার্চ ১৯৪৫) হলেন একজন মার্কিন অভিনেত্রী ও নাট্যকার। তিনি ১৯৬৭ সালের গেজ হুজ কামিং টু ডিনার চলচ্চিত্রে জোঅ্যানা 'জোই' ড্রেটন চরিত্রে অভিনয়ের জন্য সর্বাধিক প্রসিদ্ধ, এতে তিনি তার খালা ক্যাথরিন হেপবার্নের কন্যার চরিত্রে অভিনয় করেন। এই চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য তিনি বর্ষসেরা নবীন তারকা অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন। তিনি ব্রডওয়ে মঞ্চে ষাটের অধিক নাটকে অভিনয় করেন এবং অফ-ব্রডওয়ে মঞ্চে ১৯৬৯ সালে আ সেন্ট অব ফ্লাওয়ার্স নাটকে অভিনয় করে থিয়েটার ওয়ার্ল্ড পুরস্কার অর্জন করেন।

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

ক্যাথরিন হৌটন গ্র্যান্ট ১৯৪৫ সালের ১০ই মার্চ কানেটিকাটের হার্টফোর্ডে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা এলসওয়ার্থ গ্র্যান্ট ও মাতা ম্যারিয়ন হেপবার্ন। তিনি তাদের দ্বিতীয় সন্তান। ক্যাথরিন কিংসউড-অক্সফোর্ড স্কুল ও সারা লরেন্স কলেজে পড়াশোনা করেন এবং দর্শন ও কলা বিষয়ে স্নাতক সম্পন্ন করেন। ক্যাথরিনের নাম রাখা হয় তার মাতামহী কানেটিকাটের ভোটাধিকার আন্দোলনকর্মী ও সংস্কারক ক্যাথরিন মার্থা হৌটন হেপবার্নের নামানুসারে। তার খালা একাডেমি পুরস্কার বিজয়ী অভিনেত্রী ক্যাথরিন হেপবার্ন তার অভিনয় জীবন শুরুর পিছনে অবদান রাখেন।[১] তার ভাগ্নি অভিনেত্রী শুইলার গ্র্যান্টও তাদের পরিবারের এই ধারাবাহিকতা রক্ষা করেন।

কর্মজীবন[সম্পাদনা]

১৯৬৭ সালের গেজ হুজ কামিং টু ডিনার চলচ্চিত্রে দিয়ে তার অভিনয় জীবন শুরু হয়। এই ছবিতে তিনি তার খালা ক্যাথরিন হেপবার্ন অভিনীত চরিত্রের কন্যা জোঅ্যানা 'জোই' ড্রেটন ভূমিকা অভিনয় করেন, যে তার কৃষ্ণাঙ্গ বাগদত্তাকে তার পিতামাতার সাথে সাক্ষাৎ করানোর জন্য বাড়িতে নিয়ে আসে। এই চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য তিনি বর্ষসেরা নবীন তারকা অভিনেত্রী বিভাগে গোল্ডেন গ্লোব পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।[২] তিনি ১৯৬৯ সালে অফ-ব্রডওয়ে মঞ্চে আ সেন্ট অব ফ্লাওয়ার্স নাটকে অভিনয় করে থিয়েটার ওয়ার্ল্ড পুরস্কার অর্জন করেন।[৩]

২০১০ সালে তিনি এম নাইট শ্যামালান পরিচালিত দ্য লাস্ট এয়ারবেন্ডার চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন।

চলচ্চিত্রের তালিকা[সম্পাদনা]

বছর চলচ্চিত্রের শিরোনাম মূল শিরোনাম ভূমিকা টীকা
১৯৬৭ গেজ হুজ কামিং টু ডিনার Guess Who's Coming to Dinner জোঅ্যানা 'জোই' ড্রেটন
১৯৭৪ দ্য গার্ডেনার The Gardener এলেন বেনেট
১৯৮২ দ্য আইজ অব দ অ্যামারিলিস The Eyes of the Amaryllis
১৯৮৮ মিস্টার নর্থ Mr. North মিসেস স্কিল
১৯৯১ বিলি বাথগেট Billy Bathgate শার্লট
১৯৯৩ ইথান ফ্রোম Ethan Frome মিসেস হেল
১৯৯৩ দ্য নাইট উই নেভার মেট The Night We Never Met চিজ লেডি
১৯৯৫ লেট ইট বি মি Let It Be Me গৃহহীন নারী
২০০৪ কিনসি Kinsey মিসেস স্পল্ডিং
২০১০ দ্য লাস্ট এয়ারবেন্ডার The Last Airbender ক্যারাটার দাদীমা

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. জোন্স, ক্রিস (২৯ মার্চ ২০১৮)। "A big problem with 1967's 'Guess Who's Coming to Dinner' is the woman at the center has so little to say"শিকাগো ট্রিবিউন (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মে ২০১৯ 
  2. "Katharine Houghton"গোল্ডেন গ্লোব (ইংরেজি ভাষায়)। হলিউড ফরেন প্রেস অ্যাসোসিয়েশন। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মে ২০১৯ 
  3. "Katharine Houghton"প্লেবিল (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৪ মে ২০১৯ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]