কামারখালী ঘাট রেলওয়ে স্টেশন

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
কামারখালী রেলওয়ে স্টেশন
বাংলাদেশের রেলওয়ে স্টেশন
অবস্থানফরিদপুর জেলা, ঢাকা বিভাগ
 বাংলাদেশ
মালিকানাধীনবাংলাদেশ রেলওয়ে
পরিচালিতবাংলাদেশ রেলওয়ে
লাইনকালুখালী-গোবরা লাইন
প্ল্যাটফর্ম
ট্রেন পরিচালকপশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে
নির্মাণ
সাইকেলের সুবিধাআছে
ইতিহাস
চালু১৯৩২
অবস্থান

কামারখালী ঘাট রেলওয়ে স্টেশন বাংলাদেশের ঢাকা বিভাগের ফরিদপুর জেলার মধুমতি নদী সংলগ্ন একটি অব্যবহৃত রেলওয়ে স্টেশন

ইতিহাস[সম্পাদনা]

দক্ষিণাঞ্চলের বাঁশ বেত পাট বহনের গুরুত্ব বিবেচনা করে ১৯৩২ সালের ১ জানুয়ারি রাজবাড়ীর কালুখালী ঘাট পর্যন্ত রেলপথ স্থাপন করা হয়। একই সময়ে আরও একটি শাখা লাইন মধুখালী থেকে কামারখালী পর্যন্ত নির্মাণ করা হয়। এ সময় লাইনটি এলাকার অধিবাসীর কাছে অনেক গুরুত্বপূর্ণ ছিল। কিন্তু একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে এই শাখা লাইনটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়। যা পরবর্তীতে বন্ধ করে দেওয়া হয়। ২০১৮ সালে সরকার মধুখালী থেকে কামারখালী ঘাট হয়ে মাগুরা পর্যন্ত ব্রডগেজ রেলপথ নির্মাণ করার ঘোষণা দেয়।[১][২]

পরিষেবা[সম্পাদনা]

কোন ট্রেন পরিষেবা নেই।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "মধুখালী-মাগুরায় নির্মিত হচ্ছে ব্রডগেজ রেলপথ"banglanews24.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-২৩ 
  2. "কিলোমিটারে ট্র্যাক নির্মাণব্যয় ১৩ কোটি ৬৩ লাখ টাকা ওয়েবসাইট=দৈনিক নয়াদিগন্ত"। ২০২০-০২-২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০২-২৩