কাজ ২ (ইয়ট)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(কাজ ২ থেকে পুনর্নির্দেশিত)
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
টাউন্সভিলে ফরেনসিক পরীক্ষার সময় কাজ ২

কাজ ২ (ইংরেজি:Kaz II ; ভৌতিক ইয়ট খেতাবপ্রাপ্ত[১]) হলো একটি ৯.৮-মিটার কাঠের ভেলা বা ইয়ট যা ১৮ই এপ্রিল ২০০৭ সালে অস্ট্রেলিয়ার উপকূল থেকে ১৬৩ কিমি. (৮৮ ন্যাটিকাল মাইল) দূরে পাওয়া গিয়েছিল। ইয়টটিতে তিনজন যাত্রী ছিল কিন্তু ইয়টটি উদ্ধারের সময় তাদের কাউকেই খোঁজে পাওয়া যায় নি। এই রহস্যময় ঘটনাটিকে মেরি চেলেস্টার সাথে তুলনা করা হয়।[২][৩][৪][৫][৬]

নাবিকদল-এর অন্তর্ধান[সম্পাদনা]

অস্ট্রেলিয়ান মেরিটাইম সেফটি অথরিটির মতে, কাজ ২ ১৫ই এপ্রিল ২০০৭ সালে এয়ারলাই সৈকত থেকে যাত্রা শুরু করে এবং টাউন্সভিল যাচ্ছিল। ইয়টটিতে যাত্রী ছিল তিন জন; তাদের মধ্যে মালিক ডেরেক বাটেন এবং তার প্রতিবেশী দুই ভাই পিটার ও জেমস টান্সটিড।[৩]

১৮ই এপ্রিল প্রথম জানা গিয়েছিল কোন সমস্যা হয়েছে, যখন এটিকে একটি হেলিকাপ্টার আবিষ্কার করে, তখন ইয়টটি গ্রেট বেরিয়ার রিফ উপস্থ এলাকার দিকে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল এবং এর ক্রুরা অবশাদগ্রস্থ ছিল। ২০শে এপ্রিল মেরিটাইম কর্তৃপক্ষ ইয়টি ধরতে সক্ষম হয় এবং একটি নৌকার সাহায্যে ইয়টটিতে আরোহণ করে। তারা সেখানে ঢুকে সবকিছু ঠিকই দেখতে পায় কিন্তু শুধু যাত্রী তিনজন অনুপস্থিত। এই অবস্থাকে তারা অদ্ভুত বলে মন্তব্য করেছিল।[২][৩]

তারা সেখানে যা পেয়েছিল তা ছিল অদ্ভুত কারণ সবকিছুই ঠিকঠাকমতই ছিল। - জন হল, কুইন্সল্যান্ড এর জরুরি ম্যানেজমেন্ট অফিস।[২]

যেদিন কর্তৃপক্ষের লোকজন ইয়টটিতে আরোহণ করে সেদিনই কুইন্সল্যান্ড এর জরুরি ম্যানেজমেন্ট অফিস থেকে সরকারি কর্মকর্তারা একটি মন্তব্য দেন। তারা বলেন, ইয়র্টটিতে গিয়ে দেখা যায় ইঞ্জিন তখনো চলছে, একটি ল্যাপটপ তখনো অন হয়ে আছে , রেডিও ও জিপিএস ঠিক আছে এবং তিনজনের খাবার সাজানো টেবিলে। সরকারি কর্মকর্তারা আরো নিশ্চিত করেন নৌযানটির জরুড়ি অবস্থার জন্য সকল যন্ত্রপাতিই ঠিক রয়েছে। লাইফ জ্যাকেটও ছিল।[২][৩] সংবাদ মাধ্যমের সূত্রে জানা যায়, ইয়টে একটি ছোট নৌকাও ছিল যা বিপদের মুহূর্তে ব্যবহার করা যেত। সাধারণভাবে সেখানে একটি মাত্র সূত্র ছিল যে, ইয়টের একটি পাল কিছুটা ছিদ্র ছিল। (যদিও এটি অজানা)।[২][৩] পরবর্তীতে তদন্ত কর্মকর্তারা একটি ভিডিও টেপ আবিষ্কার করেন যেটি ইয়টটি উদ্ধারের কিছুক্ষণ পূর্বে ধারণ করা। ভিডিওটিতেও তিনজনের মধ্যে বিপদের কোন আশঙ্কার ছাপ চেহারাতে ছিল না। অনুসন্ধান দল গঠন করে তাদের খোঁজ করা হলেও আর কোনদিনই তিনজনকে জীবিত বা মৃত উদ্ধার করা যায়নি।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Queensland Police Service (২০০৭-০৪-২০)। "Search continues for missing men, off Townsville" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০০৮-০৭-১৮ 
  2. Reuters (২০০৭-০৪-২০)। "Australian "ghost ship" mystery puzzles rescuers" (ইংরেজি ভাষায়)। Yahoo! News। ২০০৭-০৪-২৩ তারিখে মূল (– Scholar search) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৭-০৪-২১ 
  3. BBC (২০০৭-০৪-২০)। "'Ghost yacht' found off Australia" (ইংরেজি ভাষায়)। BBC News Online। সংগ্রহের তারিখ ২০০৭-০৪-২১ 
  4. AAP (২০০৭-০৪-২২)। "Search for yachtsmen called off" (ইংরেজি ভাষায়)। Melbourne: The Age। সংগ্রহের তারিখ ২০০৭-০৪-২২ 
  5. ORF (২০০৭-০৪-২২)। "Police abandoned hope (German)" (ইংরেজি ভাষায়)। ২০০৭-০৪-২৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৭-০৪-২২ 
  6. Sydney Morning Herald (২০০৭-০৫-০৫)। "Cruel sea refuses to give up its secrets" (ইংরেজি ভাষায়)। The Sydney Morning Herald। সংগ্রহের তারিখ ২০০৭-০৫-০৮ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]