কল অব ডিউটি (সিরিজ)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(কল অফ ডিউটি (সিরিজ) থেকে পুনর্নির্দেশিত)
কল অফ ডিউটি (সিরিজ)
Call of Duty logo.svg
কল অব ডিউটি সিরিজের লোগো (ব্ল্যাক অপস)
ডেভেলপার ইনফিনিটি ওয়ার্ড
ট্রেয়ার্ক
গ্রে ম্যাটার ইন্টারঅ্যাক্টিভ
নকিয়া
Demonware, (কো-ডেভলপার)
অ্যাকটিভিশন
আমেইজ এন্টারটেইনমেন্ট
রেবেলিয়ন ডেভলপমেন্টস
এন-স্পেস
পরিবেশক অ্যাকটিভিশন
আস্পিয়ার মেডিয়া
নির্মাতা বেন চিকোসকি
পটভূমি মাইক্রোসফট উইন্ডোজ/ম্যাক ওএস এক্স, নিনটেন্ডো ডিএস, নিনটেন্ডো গেইমকিউব, নোকিয়া এন-গেইজ, প্লেস্টেশন ২, প্লেস্টেশন ৩, প্লেস্টেশন পোর্টেবল, উইই, এক্সবক্স, এক্সবক্স ৩৬০, আইফোন, ব্ল্যাকবেরি
প্রথম প্রকাশ কল অফ ডিউটি
অক্টোবর ২৯, ২০০৩
সর্বশেষ প্রকাশ কল অফ ডিউটি: ব্ল্যাক অপস ২
নভেম্বর ১৩, ২০১২
প্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইট www.callofduty.com (ইংরেজি)

কল অফ ডিউটি (ইংরেজি: Call of Duty) একটি যুদ্ধভিত্তিক ফার্স্ট পার্সন শুটার গেম সিরিজ। গেমটি মূলত দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ অবলম্বনে তৈরি। তবে কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ারকল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার ২ আধুনিক যুদ্ধ এবং কল অফ ডিউটিঃ ব্ল্যাক অপস ভিয়েতনাম যুদ্ধ ও স্নায়ু যুদ্ধকে কেন্দ্র করে তৈরি। কল অফ ডিউটি বিশ্বের অন্যতম সেরা ফার্স্ট পার্সন শুটার গেম সিরিজ। ২৭শে নভেম্বর, ২০০৯ সাল অনুযায়ী কল অফ ডিউটি সিরিজের ৫৫ মিলিয়ন ডলার কপি বিক্রি হয়েছে।[১] এখন পর্যন্ত কল অফ ডিউটি সিরিজের মোট ৭টি গেম বের হয়েছে। ইনফিনিটি ওয়ার্ড ডেভেলপ করেছে ৪টি এবং ট্রেয়ার্ক ৩টি। ইনফিনিটি ওয়ার্ড-এর ডেভেলপ করা ৪টি গেম তুলনামূলক ভাবে বেশি সফলতা অর্জন করেছে।

প্রধান সিরিজ[সম্পাদনা]

কল অফ ডিউটি ১[সম্পাদনা]

কল অফ ডিউটি ১ সিরিজের প্রথম গেম। ২৯শে অক্টোবর,২০০৩ সালে গেমটি মুক্তি পায়। গেমটির নির্মাতা ইনফিনিটি ওয়ার্ড এবং প্রকাশক অ্যাকটিভিশন। প্রকাশের সাথে সাথেই গেমটি বাজারে সাড়া ফেলে দেয়। গেমটি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ অফলম্বনে তৈরি।[২] অসাধারণ গ্রাফিক্স ও গেম -প্লের কারণে কল অফ ডিউটি ১ ২০০৩ সালের সেরা অ্যাকশন গেম-এর পুরস্কার অর্জন করে।

কল অফ ডিউটি ২[সম্পাদনা]

মূল নিবন্ধ: কল অফ ডিউটি ২

কল অফ ডিউটি ২ সিরিজের দ্বিতীয় গেম। ২৫শে অক্টোবর, ২০০৫ সালে গেমটি মুক্তি পায়। গেমটির নির্মাতা ইনফিনিটি ওয়ার্ড এবং প্রকাশক অ্যাকটিভিশন। গেমটি ওমাহা বিচ, লিবিয়ার মরুভূমি, রাশিয়া, জার্মানির বিভিন্ন স্থানের দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধকালীন অফস্থা চমৎকারভাবে ফুটিয়ে তোলে। কল অফ ডিউটি ২ তার প্রথম পর্বের মত বিশ্বব্যাপী সফলতা অর্জন করে। এইটি পিসির জন্য ২৫শে অক্টোবর, ২০০৫ সালে, এক্সবক্স ৩৬০ এর জন্য ১৫ই নভেম্বর, ২০০৫ সালে এবং ম্যাক ওএস এক্স এর জন্য ১৩ই জুন, ২০০৬ সালে মুক্তি পেয়েছে। অন্যান্য মোবাইল ফোন, পকেট পিসি এবং স্মার্টফোন সংস্করণের জন্য তৈরি করা হয়েছিল।

কল অফ ডিউটি ৩[সম্পাদনা]

মূল নিবন্ধ: কল অফ ডিউটি ৩

কল অফ ডিউটি ৩ সিরিজের তৃতীয় গেম। ৭ই নভেম্বর, ২০০৬ সালে গেমটি মুক্তি পায়। প্রথম দুই পর্বের চেয়ে গেমটি ব্যতিক্রমধর্মী। সিরিজের প্রথম গেম যেটি ইনফিনিটি ওয়ার্ড ডেভেলপ করেনি। গেমটির নির্মাতা ট্রেয়ার্ক এবং প্রকাশক অ্যাকটিভিশন। গেমটি পিসি গেমারদের কাছে খুব একটা পরিচিত নয়। কারণ কল অফ ডিউটি ৩ এর কোন পিসি সংস্করণ নেই। এইটি প্লেস্টেশন ২, উইই, এক্সবক্স এবং এক্সবক্স ৩৬০ তে মুক্তি পায়।[৩]

কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার[সম্পাদনা]

কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার সিরিজের চতুর্থ গেম। কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার-কে সিরিজের বিপ্লবী গেম হিসেবে অভিহিত করা হয়।কারণ মডার্ন ওয়ারফেয়ার সিরিজের প্রথম গেম যেটি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ অফলম্বনে তৈরি নয়। গেমটির নির্মাতা ইনফিনিটি ওয়ার্ড এবং প্রকাশক অ্যাকটিভিশন। নভেম্বর ৭, ২০০৭ সালে মুক্তি পাওয়া গেমটিকে সিরিজের সবচেয়ে সেরা ও সর্বাধিক সফল গেম হিসেবে ধরা হয়। গেমটি ২০১১ সালের কাল্পনিক যুদ্ধ অফলম্বনে তৈরি। গেমটি ২০০৭ সালের সেরা অ্যাকশন গেম-এর পুরস্কার অর্জন করে। গেমটি দৈর্ঘ্য স্বল্পতার জন্য সমালোচিত হয় যার ফলশ্রুতিতে গেমটির সিকুয়েল কল অফ ডিউটি: মডার্ন ওয়ারফেয়ার ২ তৈরি হয়।

কল অফ ডিউটিঃওয়ার্ল্ড এ্যাট ওয়ার[সম্পাদনা]

কল অফ ডিউটিঃ ওয়ার্ল্ড এ্যাট ওয়ার সিরিজের পঞ্চম গেম। গেমটির নির্মাতা ট্রেয়ার্ক এবং প্রকাশক অ্যাকটিভিশন। কল অফ ডিউটিঃ ওয়ার্ল্ড এ্যাট ওয়ার-এর মাধ্যমে কল অফ ডিউটি সিরিজ পুনরায় দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে অনুপ্রবেশ করে।[৪] গেমটি ৯ই জুন, ২০০৮ সালে মুক্তি পায়। গেমটি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের জাপানের পেলিলিউ, রাশিয়া, জার্মানি ইত্যাদি অঞ্চলের দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ চলাকালীন অবস্থা তুলে ধরে। গেমটি বাজারে মোটামুটি সাফল্য অর্জন করে। পূর্বের পর্বে অর্থাৎ কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার-এর সফলতাকে সদ্ব্যবহার না করার জন্য কল অফ ডিউটিঃ ওয়ার্ল্ড এ্যাট ওয়ার-কে গেইম বিশেষজ্ঞরা প্রশ্ন বিদ্ধ করে। কল অফ ডিউটিঃওয়ার্ল্ড এ্যাট ওয়ার পিসি, উইই, এক্সবক্স ৩৬০ কোনসোলস এবং নিনটেন্ডো ডিএস হ্যান্ডহোল্ড করা হয় ১১ই নভেম্বর, ২০০৮ সালে উত্তর আমেরিকাতে এবং ইউরোপে ১৪ই নভেম্বর, ২০০৮ সালে। ২০০৯ সালের জুন পর্যন্ত কল অফ ডিউটিঃ ওয়ার্ল্ড এ্যাট ওয়ারের ১১ মিলিয়ন কপি বিক্রয় হয়েছে।[৫]

কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার ২[সম্পাদনা]

কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার ২ সিরিজের ষষ্ঠ গেম। গেমটির নির্মাতা ইনফিনিটি ওয়ার্ড এবং প্রকাশক অ্যাকটিভিশন। নভেম্বর ১০, ২০০৯ সালে গেমটি মুক্তি পায়। কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার ২,কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার-এর সরাসরি সিকুয়েল। কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার ২ অন্যতম সফল গেম। কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার ২ এক্সবক্স ৩৬০ প্লাটফর্মের সর্বাধিক বিক্রিত গেম। গেমটির ঘটনাবলি কল অফ ডিউটিঃ মডার্ন ওয়ারফেয়ার-এর সমাপ্তির ৫ বছর পর সংঘটিত হয়। প্লেয়ারকে ব্রাজিলের রিও ডি জেনেরো, যুক্তরাষ্ট্রের হোয়াইট হাউস, আফগানিস্তান, কাউকাসাস পর্বত, রাশিয়ার বিমানবন্দর ও সাবমেরিনে গেমটির অধিকাংশ মিশন খেলতে হয়। গেমটি ২০০৯ সালের সেরা অ্যাকশন গেম-এর পুরস্কার অর্জন করে।

কল অফ ডিউটিঃ ব্ল্যাক অপস[সম্পাদনা]

কল অফ ডিউটিঃ ব্ল্যাক অপস[৬] সিরিজের সপ্তম ভিডিও গেম[৭]। গেমটির নির্মাতা ট্রেয়ার্ক এবং প্রকাশক অ্যাকটিভিশন ৯ই নভেম্বর, ২০১০ সালে গেমটি বাজারে ছাড়ে।[৮] গেমটি কোল্ড ওয়ার ও ভিয়েতনাম যুদ্ধ অফলম্বনে তৈরি। গেমারকে রাশিয়া, ভিয়েতনাম, কিউবাসহ পৃথিবীর অন্যান্য দেশের যুদ্ধে অংশগ্রহণ করতে হবে। গেমটি বাজারে ইতিবাচক সাড়া পেয়েছে।


কল অফ ডিউটিঃ ব্ল্যাক অপস ৩[সম্পাদনা]

কল অফ ডিউটিঃ ব্ল্যাক অপস৩[৯] সিরিজের দ্বাদস নাম্বার গেম এটি।। এখন পর্যন্ত কল অফ ডিউটি সিরিজের সর্ব শেষ ভার্সন হলো অফ ডিউটিঃ ব্ল্যাক অপস৩। প্রকাশক অ্যাকটিভিশন,, জুন ২০১৫ থেকে বাজারজাত করবে কল অফ ডিউটি। এখন শুধুমাত্র তাদের নিজস্ব ওয়েবে অনলাইনে বিক্রয় করছে।।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Call Of Duty series tops 55 million sales"। MCV। ২০০৯-১১-২৭। সংগৃহীত ২০০৯-১১-২৭ 
  2. Gamespot - Call of Duty Retrieved on September 23, 2007
  3. New Call of Duty skipping PC - Xbox 360 News at GameSpot
  4. Call of Duty: World at War - first details in OXM
  5. McWhertor, Michael (২০০৯-০৬-১৫)। "Call of Duty: World At War Tops 11 Million"। Kotaku। 
  6. "Call of Duty: Black Ops Home"Activision। সংগৃহীত ২০১০-০৪-৩০ 
  7. Brian Crecente (এপ্রিল ৩০, ২০১০)। "New Treyarch Developed Call of Duty Hits may 24 With Likely Modern Setting"Kotaku। সংগৃহীত এপ্রিল ২৮, ২০১০ 
  8. Luke Plunkett (এপ্রিল ৩০, ২০১০)। "Next Call Of Duty Game Named, And It's Not Vietnam"Kotaku। সংগৃহীত এপ্রিল ২৮, ২০১০ 
  9. "Call of Duty: Black Ops3 Home"Activision। সংগৃহীত ২০১০-০৪-৩০ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

টেমপ্লেট:কল অফ ডিউটি সিরিজস