ওরান

স্থানাঙ্ক: ৩৫°৪১′৪৯″ উত্তর ০°৩৭′৫৯″ পশ্চিম / ৩৫.৬৯৬৯৪° উত্তর ০.৬৩৩০৬° পশ্চিম / 35.69694; -0.63306
উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ওরান
وهران
শহর
ওরান বন্দরের দৃশ্য
মোবিলার টাওয়ার
Hotel de Ville of Oran
স্যাকরেড হার্ট ক্যাথেড্রাল
শেরাটন হোটেল
সান্তা-ক্রুজ গির্জা
আবদেলহামিদ বেন বাদিস মসজিদ
উপরের দিক থেকে, বাম থেকে ডানে: ওরান বন্দরের দৃশ্য, মোবিলার টাওয়ার, ওরান সিটি হল, স্যাকরেড হার্ট ক্যাথেড্রাল, শেরাটন হোটেল, সান্তা-ক্রুজ চ্যাপেল এবং আবদেলহামিদ বেন বাদিস মসজিদ
ওরানের অফিসিয়াল সীলমোহর
সীলমোহর
ডাকনাম: উজ্জ্বল "الباهية"
ওরানের অবস্থান
ওরান আলজেরিয়া-এ অবস্থিত
ওরান
ওরান
ওরান আফ্রিকা-এ অবস্থিত
ওরান
ওরান
আলজেরিয়ায় অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ৩৫°৪১′৪৯″ উত্তর ০°৩৭′৫৯″ পশ্চিম / ৩৫.৬৯৬৯৪° উত্তর ০.৬৩৩০৬° পশ্চিম / 35.69694; -0.63306
দেশ আলজেরিয়া
প্রদেশওরান প্রদেশ
জেলাওরান জেলা
পুনঃপ্রতিষ্ঠিত৯৪৪
সরকার
 • ওয়ালি (গভর্নর)মাসউদ দজারি
আয়তন
 • শহর২১২১ বর্গকিমি (৮১৯ বর্গমাইল)
উচ্চতা০.৯ মিটার (৩ ফুট)
জনসংখ্যা (শহরের জন্য ২০০৮, মেট্রো এলাকার জন্য ২০১৯)[১]
 • শহর৮,০৩,৩২৯
 • জনঘনত্ব৩৮০/বর্গকিমি (৯৮০/বর্গমাইল)
 • মহানগর২২,৫৪,০৯৮
সময় অঞ্চলসিইটি (ইউটিসি+১)
ডাককোড৩১০০০ - ৩১০৩৭

ওরান বা ওয়াহরান (আরবি: وهران‎‎) উত্তর-পশ্চিম আলজেরিয়ার একটি শহর ও আলজেরিয়ার ওরান প্রদেশের রাজধানী। এটি ভূমধ্যসাগরের ওরান উপসাগরের উপকূলে অবস্থিত। ওরান আলজেরিয়ার ব্যস্ততম বন্দরগুলির একটি। এটি দেশটির একটি বাণিজ্যিক ও ব্যবসায়িক কেন্দ্র। এখানে উৎপন্ন দ্রব্যের মধ্যে আছে প্লাস্টিক দ্রব্য, রাসায়নিক দ্রব্য, ওয়াইন ও প্রক্রিয়াজাত খাদ্য। সাহারা মরুভূমি থেকে একটি পাইপলাইনের মাধ্যমে শহরটিতে প্রাকৃতিক গ্যাস সরবরাহ করা হয়। শহরটির দর্শনীয় স্থানগুলির মধ্যে আছে সান্তা ক্রুজের বিরাট ক্যাথিড্রাল, উসমানীয় তুর্কিরা যেটির নির্মাণকাজ শুরু করেছিলেন। ১৭৯৬ সালে নির্মিত মহান মসজিদ। এবং কাসবাহ। এখানে ১৯৬৫ সালে ওরান বিশ্ববিদ্যালয় এবং ১৯৭৫ সালে ওরান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপিত হয়। এছাড়া এখানে সঙ্গীত, নাট্যকলা, আবহবিদ্যা ও টেলিযোগাযোগ ইন্সটিটিউট অবস্থিত।

নামকরণ[সম্পাদনা]

ওয়াহরান(ওরানের আরবি প্রতিশব্দ) শব্দটি আরবি ওয়াহর থেকে এসেছে যার অর্থ সিংহ। স্থানীয় উপকথায় প্রচলিত আছে, ৯৭০ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত লোকালয়ে সিংহ দেখা গেছে৷ সর্বশেষ সিংহ দুটি ওরানের নিকটবর্তী পাহাড়ে শিকার করা হয়, পরবর্তীতে যার নাম হয় "সিংহ পাহাড়" (লা মন্টাগনে দেস লায়ন্স)। ওরানের সিটি হলের সামনে দুটি বিশাল সিংহমূর্তি দেখা যায় যা শহরকে প্রতিনিধিত্ব করে।[২]

সংক্ষিপ্ত ইতিহাস[সম্পাদনা]

রোমান সাম্রাজ্যের সময়, ইউনিকা কলোনিয়া নামে একটি ছোট বসতি বর্তমান ওরান অঞ্চলে বিদ্যমান ছিল, কিন্তু মাগরেবের আরব বিজয়ের পরে এটি অদৃশ্য হয়ে যায়।

বর্তমান ওরান মুর আন্দালুস ব্যবসায়ীদের দ্বারা ৯০৩ সালে স্থাপিত হয়।[৩] ১৫০৯ সালে কার্ডিনাল সিসনেরোসের অধীনে ক্যাসলিয়ানদের দ্বারা এটি দখল করা হয় এবং ১৭০৮ সালে অটোমানরা শহর জয় করার আগ পর্যন্ত পর্যন্ত এখানে স্পেনের সার্বভৌমত্ব বজায় থাকে। স্পেন ১৭৩২ সালে শহরটি পুনরায় দখল করে নেয়। কিন্তু একটি বাণিজ্য-কেন্দ্র হিসেবে এর মূল্য ব্যাপকভাবে হ্রাস পাওয়ায় স্পেনের রাজা চতুর্থ চার্লস ১৭৯২ সালে তুর্কিদের কাছে শহরটি বিক্রি করে দেন। উসমানীয় শাসন ১৮৩১ সাল পর্যন্ত স্থায়ী হয় এবং এরপর শহরটি ফরাসিদের অধীনে চলে যায়।

ঊনবিংশ ও বিংশ শতাব্দীতে ফরাসী শাসনামলে ওরান একই নামের (৯২ নম্বর) একটি ডিপার্টমেন্ট এর রাজধানী ছিল। ১৯৪০ সালের জুলাই মাসে ফরাসিরা যখন আত্মসমর্পণের জন্য আল্টিমেটাম প্রত্যাখ্যান করে, ব্রিটিশ নৌবাহিনী বন্দরের ফরাসি যুদ্ধজাহাজে শেল বর্ষণ করে; নৌবহরটি যাতে জার্মানদের হাতে না পড়ে তা নিশ্চিত করার জন্য এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছিল। কারণ নাৎসিরা ফ্রান্সকে পরাজিত করে প্যারিস দখল করেছিল। এই পদক্ষেপটির ফলে ব্রিটেনের প্রতি ভিচি শাসনের ঘৃণা বেড়ে যায় কিন্তু বিশ্বদরবারে এটা প্রমাণিত হয় যে ব্রিটিশরা নাৎসি জার্মান এবং তার মিত্রদের বিরুদ্ধে একাই লড়াই করবে। ভিচি সরকার দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় ওরানকে ধরে রেখেছিল, যতক্ষণ না ১৯৪২ সালের শেষের দিকে অপারেশন টর্চের সময় মিত্ররা তার দখল নেয়।

আলজেরিয়ার যুদ্ধের আগে, ১৯৫৪-১৯৬২ সালে, উত্তর আফ্রিকার যে কোনও শহরের মধ্যে ওরানে ইউরোপীয়দের অনুপাত ছিল সর্বোচ্চ। ১৯৬২ সালের জুলাই মাসে যুদ্ধবিরতি এবং ফ্রান্সের সাথে চুক্তির পরে, এফএলএন ওরানে প্রবেশ করে এবং একজন ইউরোপীয় দ্বারা গুলিবিদ্ধ হয়। এই হামলার প্রতিক্রিয়ায় একটি জনতা পাইড-নয়ের লোকালয়ে হামলা চালায় এবং ওরানের হাজার হাজার ইউরোপীয়কে হত্যা করে;[৪] ৪৫৩ জন "নিখোঁজ হয়েছে" বলে জানা যায়।[৫] এর ফলে ইউরোপীয়দের এক বিশাল অংশ ফ্রান্সে প্রস্থান করে, যা ইতোমধ্যে ধীরে ধীরে চলছিলো। যুদ্ধ শেষ হওয়ার অল্প সময়ের মধ্যেই ওরানে বসবাসকারী অধিকাংশ ইউরোপীয় ও আলজেরীয় ইহুদিরা ফ্রান্সে পালিয়ে যায় এবং তিন মাসেরও কম সময়ের মধ্যে ওরান তার জনসংখ্যার প্রায় অর্ধেক হারায়। এই জনসংখ্যার হ্রাস ইহুদিদের অনুরূপ, কারণ আলজেরিয়ার স্বাধীনতা যুদ্ধে ফ্রান্সের সমর্থনের পর অনেকে পালিয়ে যায়। যুদ্ধের অগ্রগতির সাথে সাথে, আলজেরিয়ার স্বাধীনতা সমর্থকরা ফ্রান্সের পক্ষাবলম্বনকারীদের হুমকি দেয়, ফলে তারা পালিয়ে যায়।[৬]

ভৌগোলিক অবস্থা[সম্পাদনা]

জলবায়ু[সম্পাদনা]

ওরানের জলবায়ু।

ওরানের জলবায়ু আধা-শুষ্ক ধরণের (কৌপেন জলবায়ু শ্রেণিবিন্যাস অনুযায়ী বিএসকে/বিএসএইচ)। এখানে বার্ষিক বৃষ্টিপাতের পরিমাণ ৩২৬ মিমি (১৩ ইঞ্চি) যার অধিকাংশই ঘটে নভেম্বর থেকে মে এর মধ্যে। গ্রীষ্ম হচ্ছে বছরের উষ্ণতম সময় এবং বছরের উষ্ণতম মাসে (আগস্ট) সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩২ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত হয়ে থাকে। শীতকাল বছরের শীতলতম সময় এবং বছরের শীতলতম মাসের (জানুয়ারি) সর্বোচ্চ তাপমাত্রা প্রায় ১৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

ওরান-এর আবহাওয়া সংক্রান্ত তথ্য
মাস জানু ফেব্রু মার্চ এপ্রিল মে জুন জুলাই আগস্ট সেপ্টে অক্টো নভে ডিসে বছর
সর্বোচ্চ রেকর্ড °সে (°ফা) ২৬.৪
(৭৯.৫)
৩৩.০
(৯১.৪)
৩৬.৬
(৯৭.৯)
৩৩.২
(৯১.৮)
৪০.০
(১০৪.০)
৩৯.৫
(১০৩.১)
৪৫.৮
(১১৪.৪)
৪৩.৮
(১১০.৮)
৪০.৬
(১০৫.১)
৩৯.০
(১০২.২)
৩৩.০
(৯১.৪)
৩০.৮
(৮৭.৪)
৪৫.৮
(১১৪.৪)
সর্বোচ্চ গড় °সে (°ফা) ১৬.৬
(৬১.৯)
১৭.৭
(৬৩.৯)
১৯.৭
(৬৭.৫)
২১.৫
(৭০.৭)
২৩.৯
(৭৫.০)
২৭.৭
(৮১.৯)
৩০.৫
(৮৬.৯)
৩১.৬
(৮৮.৯)
২৯.০
(৮৪.২)
২৫.২
(৭৭.৪)
২০.৬
(৬৯.১)
১৭.৭
(৬৩.৯)
২৩.৫
(৭৪.৩)
দৈনিক গড় °সে (°ফা) ১০.৯
(৫১.৬)
১২.১
(৫৩.৮)
১৩.৯
(৫৭.০)
১৫.৮
(৬০.৪)
১৮.৬
(৬৫.৫)
২২.৩
(৭২.১)
২৫.০
(৭৭.০)
২৫.৯
(৭৮.৬)
২৩.৪
(৭৪.১)
১৯.৬
(৬৭.৩)
১৫.১
(৫৯.২)
১২.২
(৫৪.০)
১৭.৯
(৬৪.২)
সর্বনিম্ন গড় °সে (°ফা) ৫.১
(৪১.২)
৬.৫
(৪৩.৭)
৮.১
(৪৬.৬)
১০.০
(৫০.০)
১৩.২
(৫৫.৮)
১৬.৯
(৬২.৪)
১৯.৪
(৬৬.৯)
২০.১
(৬৮.২)
১৭.৭
(৬৩.৯)
১৪.০
(৫৭.২)
৯.৫
(৪৯.১)
৬.৭
(৪৪.১)
১২.৩
(৫৪.১)
সর্বনিম্ন রেকর্ড °সে (°ফা) −৩.০
(২৬.৬)
−৩.০
(২৬.৬)
−১.৩
(২৯.৭)
০.০
(৩২.০)
৩.০
(৩৭.৪)
৫.০
(৪১.০)
১১.০
(৫১.৮)
৯.০
(৪৮.২)
৭.৭
(৪৫.৯)
৩.০
(৩৭.৪)
০.০
(৩২.০)
−৬.১
(২১.০)
−৬.১
(২১.০)
অধঃক্ষেপণের গড় মিমি (ইঞ্চি) ৪৩.৬
(১.৭২)
৪৪.৪
(১.৭৫)
৩৫.০
(১.৩৮)
২৯.৬
(১.১৭)
২৭.২
(১.০৭)
৩.৮
(০.১৫)
১.৮
(০.০৭)
২.৭
(০.১১)
১৩.২
(০.৫২)
২৪.৮
(০.৯৮)
৫৫.৫
(২.১৯)
৪৫.২
(১.৭৮)
৩২৬.৮
(১২.৮৭)
অধঃক্ষেপণ দিনগুলির গড় (≥ ০.১ mm) ৮.৭ ৮.৫ ৭.১ ৭.২ ৬.৯ ২.০ ১.৩ ১.৮ ৩.৬ ৬.৬ ৮.৪ ৮.৮ ৭০.৯
আপেক্ষিক আদ্রতার গড় (%) ৭৯.৫ ৭৬.৫ ৭৪.০ ৭০.০ ৬৮.০ ৬৬.২ ৬৪.৭ ৬৬.৫ ৭০.২ ৭৩.৯ ৭৬.৩ ৭৮.৬ ৭২.০
উৎস ১: বিশ্ব আবহাওয়া সংস্থা (জাতিসংঘ)[৭]
উৎস ২: climatebase.ru (সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন মান এবং আদ্রতা)[৮]

ভূমিকম্প[সম্পাদনা]

যেহেতু ওরান উত্তর আলজেরিয়ায় অবস্থিত, এখানে ভূমিকম্পের ঝুঁকি বিদ্যমান। ১৭৯০ খ্রিস্টাব্দে সংঘটিত সর্বশেষ ভূমিকম্পে প্রায় ৩,০০০ লোক মৃত্যুবরণ করে।[৯] শহরের অসংখ্য পুরোনো দালানকোঠার ভূমিকম্প সহনশীলতা বাড়ানো হচ্ছে এবং নতুন অবকাঠামোসমূহ ভূমিকম্প সহনশীল করে নির্মাণ করা হচ্ছে।

পৌরসভাসমূহ[সম্পাদনা]

ওরানের পৌরসভা ও প্রতিবেশী অঞ্চল, পুরোনো মানচিত্র।

২০১৯ সাল থেকে ওরানে ১৮টি পৌরসভা(ফরাসি: communal délégations) ও ৮৩টি কোয়ার্টার রয়েছে।[১০]

ওরানের পৌরসভাসমূহ[১১]:
পৌরসভা নাম আরবি নাম ইংরেজি নাম
   এল মেনজাহ المنزه El Menzeh
   কর্নেল লটফি العقيد لطفي Colonel Lotfi
   এল সেদিকিয়া الصديقية Es Seddikia
   হামৌ বোতলেলিস حمو بوتليليس Hamou Boutlelis
   ফেলাউচেন فلاوسن Fellaoucen
   আল-মুকারি المقري El Makkari
   আল-আমির الأمير El Emir
   আল-নাসের النصر Ennasr
   আল-খালিদিয়া الخالدية El Khalidia
১০    ইবনে সিনা ابن سينا Ibn Sina
১১    আল-হামরি الحمري El Hamri
১২    সিদি আল-বশির سيدي البشير Sidi El Bachir
১৩    আল-মাকরানি المقراني El Mokrani
১৪    আল-ওথমানিয়া العثمانية El Othmania
১৫    আল-বদর البدر El Badr
১৬    মাহি আলদিন محي الدين Mahieddine
১৭    সিদি আল-হাওয়ারি سيدي الهواري Sidi El Houari
১৮    বুয়েমামা بوعمامة Bouamama

সংস্কৃতি[সম্পাদনা]

ওরানে ডিস্কো মাঘরেব(রেকর্ড লেবেল), ২০১৭

রাই(Raï; আরবিতে "মতামত") নামক লোকসংগীতের উৎপত্তি ওরানে। আরব ও ইউরোপীয় প্রভাবে ১৯৩০ এর দশকে এ ধারার সৃষ্টি হয়। পরিবেশনকালে নারীদের মুখ্য ভূমিকা এবং ভালোবাসা ও মদ্য বিষয়ে ভোগবাদী গানের কথা থাকায় এ ধরনের সংগীত ঘিরে বিতর্ক অব্যাহত থাকে। ফলে এক্ষেত্রে কঠোর সরকারি নিয়ন্ত্রণের সূত্রপাত ঘটে যা পরবর্তীতে গ্রেফতার, জখম ও গুপ্তহত্যার দিকে প্রসারিত হয়।[১২] চেব হাসনি, খালেদরাচিদ তাহাসহ অসংখ্য রাই সংগীতশিল্পীর উৎপত্তি ওরানে। বেহালাবাদক আকিম এল সিকামেয়াও ওরানে জন্মগ্রহণ করেন।[১৩]

রন্ধনশিল্প[সম্পাদনা]

ঐতিহ্যবাহী আলজেরীয় লেবুর সরবত ক্রেপন ওরানে উৎপত্তিলাভ করেছে।[১৪][১৫]

অর্থনীতি ও অবকাঠামো[সম্পাদনা]

ওরান বৃহত্তর এলাকার জন্য একটি প্রধান বাণিজ্য কেন্দ্র হয়ে উঠেছে। আরজিউ হচ্ছে অঞ্চলটির তেল/গ্যাস বন্দর এবং সোনাত্রাচ দেশের বৃহত্তম তেল ও গ্যাস কোম্পানি। সোনেলগাজ এখানে একটি নতুন কংগ্রেস কেন্দ্র স্থাপন করেছে এবং ২০১০ সালে অনুষ্ঠিত তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাসের উপর ১৬তম আন্তর্জাতিক সম্মেলন ও প্রদর্শনী ওরানে অনুষ্ঠিত হয়, যা সারা বিশ্ব থেকে প্রায় ৩ হাজার দর্শক ও প্রধান প্রধান সংস্থাগুলোকে আকৃষ্ট করতে সক্ষম হয়। সকল দর্শনার্থীদের থাকার সুবিধার্থে বর্তমানে নতুন নতুন হোটেল নির্মাণাধীন রয়েছে এবং ভবিষ্যতে ভাসমান হোটেলও ব্যবহৃত হবে। নগরায়ণ বৃদ্ধির সাথে সাথে ওরানে পানির গুণগত মান ও ব্যবস্থাপনা ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে; পানির গুণগত মানের এই পরিবর্তন সামুদ্রিক জীবন এবং পর্যটন চালিত এই শহরের সৈকতের অবস্থাকে প্রভাবিত করছে।[১৬]

পর্যটন[সম্পাদনা]

বিলাসবহুল থেকে শুরু করে মৌলিক; ওরানে সবধরনের অসংখ্য হোটেল রয়েছে। এছাড়া আলজেরীয় বিশেষ খাবার ও অন্যান্য খাবারের জন্য রয়েছে অসংখ্য রেস্তোরাঁ। এছাড়া পর্যটকরা খুঁজে পাবেন বিভিন্ন ধরনের সিনেমা হল, আর্ট সেন্টার, আঞ্চলিক থিয়েটার, একটি ওপেন-এয়ার থিয়েটার, যাদুঘর, ওরানের ঐতিহাসিক শহর কেন্দ্র, সিদি এল হুয়ারি জেলা, পৌর উদ্যান, কারিগরি পণ্যসমৃদ্ধ মদিনা দিয়েদিদা, ক্যাথেড্রাল, দিয়েবেল মুরদিয়াদিয়ো এবং নিকটবর্তী সমুদ্রতীরস্থ রিসোর্ট। আহমেদ বেন বেলা বিমানবন্দর শহরের কেন্দ্র থেকে ১১.৯ কিমি (  মা) দূরে অবস্থিত। এছাড়া জাতীয় কোম্পানি অ্যালগরি ফেরিস ব্যবহার করে মার্সেই, সেটে, আলিকান্তে কিংবা আলমেরিয়া বন্দর থেকেও ওরানে পৌঁছানো যায়। দ্য গ্রেট মস্কও পর্যটকদের জন্য আরেক আকর্ষণ। ১৭৯৬ সালে ওরানে স্পেনীয় শাসনের অবসান উদযাপন করার জন্য এটি প্রতিষ্ঠিত করা হয়েছিলো।[১৭]

আন্তর্জাতিক সম্পর্ক[সম্পাদনা]

যমজ শহর ও ভগিনী নগরীসমূহ[সম্পাদনা]

ওরানের সাথে নিম্নোক্ত নগরীসমূহের যমজ ও ভগিনীতুল্য সম্পর্ক বিদ্যমান[১৮]:

সহযোগী শহর[সম্পাদনা]

এছাড়াও, ওরানের সাথে ১টি নগরীর অংশীদারিত্ব ও সহযোগিতার সম্পর্ক রয়েছে:

উল্লেখযোগ্য ব্যক্তিত্ব[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Algeria: The provinces of the People's Democratic Republic of Algeria as well as all cities of over 25,000 inhabitants"। CITYPOPULATION। ২০১৪-০৮-১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২১-০৪-০৭ 
  2. "আলজেরিয়ার ওরান শহরের ইতিহাস (ফরাসি ভাষায়: Histoire de la ville d'Oran en Algérie)"web.archive.org। ২০১৪-১২-২৩। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-০৭ 
  3. "The Jewish Community of Oran, Algeria | Beit Hatfutsot"Beit Hatfutsot (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৮-০৬-১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০২-০৯ 
  4. Benjamin Stora, Algeria, 1830–2000: A Short History (Cornell University Press, 2004) p105
  5. "Algérie 1962 : La vérité sur les massacres d'Oran - L'EXPRESS"web.archive.org। ২০১২-০৮-১৩। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০২-০৯ 
  6. "ওরান"Jewish Virtual Library। ২০১৬-১১-১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০২-০৯ 
  7. "World Weather Information Service - Oran"web.archive.org। ২০১১-০১-০৪। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-১০ 
  8. "Climatebase.ru - Oran, Algeria"web.archive.org। ২০১৩-০৫-০২। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-১০ 
  9. "The keys to Oran"Hürriyet Daily News (ইংরেজি ভাষায়)। ডিসেম্বর ১৪, ২০১৩। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-১০ 
  10. "AG extraordinaire aujourd'hui: L'APC d'Oran passera de 12 à 18 délégations communales (ফরাসি ভাষায়)"www.lequotidien-oran.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-১৫ 
  11. "Quarters of Oran explained"everything.explained.today। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-১৫ 
  12. Joan, Gross (২০০২)। Jonathan Xavier and Renato Rosaldo, সম্পাদক। "Arab Noise and Ramadan Nights: Rai, Rap and Franco-Maghrebi Identities" The Anthology of Globalization: A Reader। Oxford: Blackwell। 
  13. Romero, Angel (২০১৬-০৬-০৯)। "Artist Profiles: Akim El Sikameya | World Music Central" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২৩ 
  14. GOUAL (২০২১-০৭-২৭)। KOI VOIR A ORAN (ফরাসি ভাষায়)। GOUAL। 
  15. Akoun, André (২০০৪)। Né à Oran: autobiographie en troisième personne (ফরাসি ভাষায়)। Editions Bouchène। আইএসবিএন 978-2-912946-88-1 
  16. Tayeb A, Chellali M, Hamou A, Debbah S (১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৫)। "আলজেরিয়ার ওরানের উপকূলীয় সামুদ্রিক পরিবেশে শহুরে ও শিল্প বর্জ্যের প্রভাব (ইংরেজি ভাষায়)"Marine Pollution Bulletin। ৯৮ (১-২):২৮১-২৮৮। ডিওআই:10.1016/j.marpolbul.2015.07.013পিএমআইডি 26164780। সংগ্রহের তারিখ ৯ ফেব্রুয়ারি ২০২২ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  17. "Visit Oran - Great Mosque"web.archive.org। ২০১৬-১১-০৯। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০২-০৯ 
  18. "Jumelage" (ফরাসি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২১ 
  19. "Curiosas anécdotas de la ciudad de Alicante - Blog La Lonja"Hostal La Lonja (স্পেনীয় ভাষায়)। ২০২০-০৪-০৬। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২১ 
  20. "eThekwini Online - Sister Cities Home Page"web.archive.org। ২০১১-০৮-১০। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২১ 
  21. "Jumelages"Site officiel de la ville de Toulon (ফরাসি ভাষায়)। ২০১৪-১০-২১। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২১ 
  22. "Bordeaux : Découvrir Bordeaux - Europe et International"web.archive.org। ২০১৩-০২-০৭। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২১ 
  23. "Wayback Machine" (PDF)web.archive.org। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২১ 
  24. "Coopérations et partenariats"www.strasbourg.eu (ফরাসি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২২-০১-২১ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]