ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক কোম্পানির সাধারণ কার্যালয়

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক কোম্পানির সাধারণ কার্যালয়
WestinghouseAirBrakeCompanyGeneralOfficeBuilding.jpg
ভবনটি ২০০৯ সালে, বামে এক্সিকিউটিভ শাখা
অবস্থানমারগারিট ও ব্লাফ স্ট্রীট, ওয়িলমেরডিং, পেনসিলভানিয়া
আয়তন২ একর (০.৮১ হেক্টর)
নির্মিত১৮৯০
স্থপতিঅস্টারলিং, ফ্রেডরিক জে. ; জেনসেন ও ককেন
স্থাপত্য শৈলীরেনেসাঁ, রোমন
এনআরএইচপি সূত্র #৮৭০০০৩৭৬[১]
গুরুত্বপূর্ণ তারিখ
এনআরএইচপি-তে যোগ৬ মার্চ, ১৯৮৭
মনোনীত PHLF১৯৭৫[২]

ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক কোম্পানির সাধারণ কার্যালয় হলো পেনসিলভানিয়ার ওয়িলমেরডিং-এ অবস্থিত একটি ভবন; যা স্থানীয়ভাবে 'লাইব্রেরি হল' বা 'প্রাসাদ' নামে পরিচিত।[৩]) এটি ১৮৯০ সাল প্রতিষ্ঠিত ও ১৯৭৫ সালে পিটসবার্গ ইতিহাস এবং ল্যান্ডমার্ক ফাউন্ডেশনের তালিকাভুক্ত, ১৯৮৭ সালে ঐতিহাসিক স্থান হিসাবে জাতীয় নিবন্ধন এর মর্যাদা পেয়েছিল।[১] মূলত একটি অফিস ভবন হিসাবে নির্মিত হয়েছিল, তবে এটা এখন জর্জ ওয়েস্টিংহাউস জাদুঘর হিসেবে ঘোষিত হয়েছে।

নির্মাণ[সম্পাদনা]

স্থপতি ফ্রেডেরিক জে. অস্টারলিং এটা নির্মাণ করেন, ভবন-টির একটি চার দিক বিশিষ্ট ক্লক টাওয়ার আছে,যা চেইন এবং কপিকল সিস্টেম দ্বারা পরিচালিত। ১৯২৭ সালে অতিরিক্ত ডিজাইন এবং পুনঃনির্মাণ করেন জেনসেন ও ককেন, যাতে কর্মকর্তাদের জন্য আলাদা শাখা, সম্মেলন কক্ষ ও খাবারের কক্ষ যোগ করা হয়।

স্থাপত্য শৈলী রেনেসাঁ এবং রোমনের একটি মিশ্রণ। এটা ১৮৯৬ সালের ৮ এপ্রিল একটি ভয়ানক অগ্নিকাণ্ড দ্বারা ধ্বংস হয়।[৩] ফাউন্ডেশন, ইট, পাথর, সিমেন্ট দিয়ে তৈরি তাই বেচেছিল।এরপরে কাঠামোটি আবার একই ভিত্তির উপর পুনঃনির্মিত হয়েছিল।[৪][৫][৬] পুনঃনির্মাণের সময় ঘড়ির টাওয়ারটি যোগ করা হয়েছিল।[৫][৬] প্রথমে সমগ্র দ্বিতীয় তলা কর্মচারীদের ব্যবহারের জন্য ডিজাইন করা হয়েছিল, যেখানে লাইব্রেরি, সম্পূর্ণরূপে সজ্জিত ব্যায়ামাগার, রেস্তোরাঁ, সুইমিংপুল এর সুবিধা ছিল।[৪][৭][৭][৮] যা ভবনের ভিতরে মোট আয়তন আনে ৫৫০০০ বর্গফুট (৫১০০ বর্গমিটার) [৬]

ভবন-টিতে বয়লার এবং বাতিঘর ছিল , যা পাওয়ার প্ল্যান্টে বাষ্প ও পাওয়ার সরবরাহ করত। যা আবার বিভিন্ন বাণিজ্যিক কাজেও সরবরাহ করা হয় যেমন-ওয়িলমেরডিং ওয়াইডব্লিউসিএ।[৯]

ব্যবসার ইতিহাস[সম্পাদনা]

এই ভবনে এক শতাব্দী ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক কোম্পানির অফিস ছিল।[৬] কোম্পানি মূলত ১৮৬৯ সালে জর্জ ওয়েস্টিংহাউস দ্বারা প্রতিষ্ঠিত হয়।[১০] ওয়েস্টিংহাউস বিংশ শতাব্দীর শুরুতে শিল্প বিপ্লবের সময় অনেক কোম্পানি প্রতিষ্ঠা করেন। এয়ার ব্রেক প্ল্যান্ট তৈরি হয়েছিলো জাতির রেল বাবস্থার উন্নত কর্মক্ষমতা এবং গতি বৃদ্ধি করার জন্য। পরে এটি ১৮৮৯ সালে পেনসিলভানিয়ার ওয়িলমেরডিং এর নতুন অবস্থানে সরিয়ে নেওয়া হয়।[১১] ওয়িলমেরডিং একটি ছোট শহর, যা প্রায় ১৪ মাইল (২৩ কিমি), পিটসবার্গের বাইরে ওই সময় মাত্র পাঁচ হাজার লোক বাস করত। ওয়িলমেরডিং এ সামাজিকতার রীতি সুদৃঢ় ছিল এবং এটি একটি শান্তিপূর্ণ, ভেদাভেদ মুক্ত কৃষি এলাকা ছিল। ধারণা করা হতো এটি প্রতিষ্ঠানের জন্য "আদর্শ টাউন" কারণ এর অবস্থান পেনসিলভানিয়া রেলপথের ঠিক পাশে। এয়ার ব্রেক কোম্পানি পার্শ্ববর্তী পিটসবার্গ এলাকা থেকে তিন হাজার লোককে নিযুক্ত করে। কিন্তু প্রায় সম্পূর্ণ লোকবল-ই ওয়িলমেরডিং এর বাসিন্দা ।[১১]

ভবনটি ১৯৮৫ সালে খালি করা অবধি অফিস ভবন হিসেবে ব্যবহৃত হয়।[৮] পরে আমেরিকান প্রডাকশন এবং পরিসংখ্যা কন্ট্রোল সোসাইটি কে দান করা হয়েছিল। ১৯৯৯ সালে ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক কোম্পানি মটিভ পাওয়ার ইন্ডাস্ট্রিজ কর্পোরেশনের সঙ্গে মিশে গিয়ে ওয়াবটেক কর্পোরেশন গঠন করে।[৮] ওয়াবটেক এখনও ১০০০ এর অধিক অধিবাসীদের জন্য কর্ম সংস্থান এর যোগান দেয়।[৬]

সমাজে এর প্রভাব[সম্পাদনা]

১৯০৫ সালে ভিন্ন কোণ থেকে ভবনটি

ওয়েস্টিংহাউস প্ল্যান্ট ওয়িলমেরডিং এ সরিয়ে নেওয়া হলে, কর্মীদের জন্য বাসস্থানের বাবস্থা করা কঠিন হয়ে ওঠে।[১২][১৩][১৪][১৫] এর সমাধানে ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক কোম্পানি ১৯১৯ সালে দশ লক্ষ মার্কিন ডলার দিয়ে হাউজিং কোম্পানি গঠন করে।[১২][১৩][১৫] পূর্বে ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক কোম্পানির মালিকানাধীন যে ৪০০ ঘর ও বিশাল পরিমাণ খালি জমি ছিল তা নতুন কোম্পানীর কাছে হস্তান্তর করা হয়।[১২][১৩][১৫] বিভিন্নতার অভাব এড়াতে নতুন ঘরবাড়ি বিশেষভাবে তৈরি করা হয়।[১৪] দশ বছরের মধ্যে ওয়েস্টিংহাউস এয়ার ব্রেক হউজিং কোম্পানি সফল হয়ে ছিল যে টরটেল ক্রীকের দক্ষিণ দিকে ছাড়া কোন খালি জায়গা ছিল না।[১৪] জর্জ ওয়েস্টিংহাউস ওয়িলমেরডিং এ ভবনটি যে ব্যাপক পরিবর্তন , কর্মসংস্থান, এবং সমৃদ্ধি এনেছিল তা আজও উৎসবের মত প্রতি বৎসরের পুরো জুন মাস "জর্জ ওয়েস্টিংহাউস ডে" হিসাবে পালন করা হয়।[৭]

ভবনের অভ্যন্তর[সম্পাদনা]

ভবনটি জর্জ ওয়েস্টিংহাউস যাদুঘর,[১৬][১৭] একটি মডেল ট্রেন প্রদর্শনী, ডিপ্রেশন গ্লাস রুম হিসাবে ব্যবহৃত হয়।[১৭] ওয়েস্টিংহাউস দুর্গ একটি অলাভজনক সংস্থা এবং স্বেচ্ছাসেবীদের দ্বারা পরিচালিত। ২০০৭ সালে জাদুঘরের হস্তনির্মিত বস্তু গুলো হেইঞ্জ ইতিহাস কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়ে ছিল।[৭] ২০০৭ সাল থেকেই ওয়েস্টিংহাউস তাদের উত্পাদিত বস্তু সংগ্রহ করা শুরু করে এবং তাদের ওয়েস্টিংহাউস মিউজিয়াম রুমে প্রদর্শনের এখন হয়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. কর্মী (২০০৯-০৩-১৩)। "জাতীয় নিবন্ধন তথ্য পদ্ধতি"ঐতিহাসিক স্থানসমূহের জাতীয় নিবন্ধনজাতীয় পার্ক পরিষেবা 
  2. Historic Landmark Plaques 1968-2009 (PDF)। Pittsburgh, PA: Pittsburgh History & Landmarks Foundation। ২০১০। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৮-০৯ 
  3. nationalregisterofhistoricplaces.com, PENNSYLVANIA - Allegheny County, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৮ 
  4. Princeton University (১৯৮৭), The Railway age and northwestern railroader, 24, পৃষ্ঠা 644, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৯ 
  5. Wilmerding World Wide (২০০২)। Wilmerding and the Westinghouse Air Brake Company। Arcadia Publishing। পৃষ্ঠা 19–20। আইএসবিএন 0-7385-1078-5। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৮ 
  6. Vondas, Jerry (২০০৬), "Man with a plan", Pittsburgh Tribune Review, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৯ 
  7. Miller, Jr., Arthur P.; Miller,Marjorie L. (২০০৩)। Guide to the Homes of Famous Pennsylvanians: Houses, Museums, and Landmarks। Stackpole Books। পৃষ্ঠা 134। আইএসবিএন 0-8117-2628-2। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৯ 
  8. Martin Aurand, 1986, [[[:টেমপ্লেট:NRHP-PA]] NRHP Nomination Form for Westinghouse Air Brake Company General Office Building] Enter "public" for ID and "public" for password to access the site.
  9. Wilmerding World Wide (২০০২)। Wilmerding and the Westinghouse Air Brake Company। Arcadia Publishing। পৃষ্ঠা 43। আইএসবিএন 0-7385-1078-5। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৮ 
  10. Bellis, Mary, "Inventors: George Westinghouse", About.com, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৯ 
  11. Life in Wilmerding, “The Air Brake City” the Ideal Hometown. Wilmerding News, 2 September.4.
  12. Saunders, William Lawrence (১৯১৯), Compressed air magazine: devoted to the useful applications of compressed air, 24, পৃষ্ঠা 9395, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৪-২৭ 
  13. A. Sinclair Co. (১৯১৯), Railway and locomotive engineering: a practical journal of railway motive power and rolling stock, 32, পৃষ্ঠা 259, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৪-২৭ 
  14. Wilmerding Boro History, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৪-২৭ 
  15. Simmons-Boardman Publishing Corporation (১৯১৯), Railway signaling and communications, 12, পৃষ্ঠা 332, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৪-২৭ 
  16. Potter, Chris (২০০৭), "The George Westinghouse museum", Pittsburgh City Paper, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৯ 
  17. Wilson, Marie (২০১০), "Wilmerding museum regains Westinghouse name", Pittsburgh Tribune Review, সংগ্রহের তারিখ ২০১১-০৩-০৯ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]