উম্মে আইমান

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

উম্মে আইমান বারাকাহ (রা.) ছিলেন মুহাম্মদ (সা.) এর একজন অত্যন্ত মর্যাদামান সাহাবী। ইসলামের প্রথমদিকে , যখন মুসলমানদের প্রচণ্ড দুর্সময় চলছিল, তখন রাসুলুল্লাহকে বিপদ-আপদ থেকে আগলে রেখেছিলেন এই উম্মে আইমান বারাকাহ। তিনি মুহাম্মদ (সা.) এর পিতা আবদুল্লাহ ইবনে আবদুল মুত্তালিবের অধীন একজন ইথিওপিয়ান দাসী ছিলেন। আবদুল্লাহর মৃত্যুর পর তিনি মুহাম্মদ (সা.) এর অধীনে কাজ করতেন। পরবর্তীতে তিনি তাকে মুক্ত করে দেন। এরপর তিনি বনু খাজরাজ গোত্রের উবাইদ ইবনে জায়িদ নামক এক ব্যক্তিকে বিয়ে করেন। আইমান নামে তাদের এক সন্তান হয়। একারণে তাকে উম্মে আইমান (আইমানের মা) ডাকা হয়। স্বামীর মৃত্যুর পর তিনি জায়িদ ইবনে হারিসকে (রা.)বিয়ে করেন। একদিন মসজিদে আসরের নামাজের পর রাসুলুল্লাহ বললেন, তোমাদের মধ্যে কে একজন জান্নাতি মহিলাকে বিয়ে করতে চাও। জমায়েত নিশ্চুপ। হঠাৎ উঠে দাঁড়ালেন রাসুলের পালক পুত্র জায়িদ। বললেন, ইয়া রাসুলুল্লাহ আমি। রাসুল এই কথা বলেন তিনবার। তিনবারই কেবল জায়িদ তার সম্মতির কথা জানান। বিয়েতে এই পবিত্র দম্পতির উসামা ইবনে জায়িদ নামে এক পুত্র জন্মগ্রহণ করেন। হযরত উসামা (রা.)অনেক যুদ্ধে মুসলমানদের সেনাপতিত্ব করেন। ক্রীতদাসী মায়ের সন্তানকে এভাবে সম্মান দিয়ে রাসুল কুরাইশদের আভিজাত্যকে ধুলোয় মিশিয়ে দেন। উম্মে আইমান বারাকাহ ও বেলাল (রা.) দুইজনই দুনিয়াতে বেহেস্তের সুসংবাদপ্রাপ্ত। কিন্তু কোনো এক অজ্ঞাত কারণে এরা আশারায়ে মুবাশশিরার সদস্য নন। অথচ সহিহ হাদিস দ্বারা দুজনের জান্নাতপ্রাপ্তি প্রমাণিত। উসমান ইবনে আফফানের শাসনামলে উম্মে আইমান বারাকার (রা.) মহান সন্তান উসামা মৃত্যুবরণ করেন।

উম্মে আইমান বারাকাহ মুহাম্মদ (সা) এর জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত সময়কালের প্রত্যক্ষদর্শী ছিলেন। এই পরিবারকে রাসুল দিয়েছিলেন অসাধারণ সম্মান ও মর্যাদা।

আরও দেখুন[সম্পাদনা]